আজঃ শনিবার ২৯ জানুয়ারী ২০২২
শিরোনাম

প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ক্লাস চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৩ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জানুয়ারী ২০২২ | ১০৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে ক্লাস চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের পরিচালক (পলিসি অ্যান্ড অ্যাডমিনিস্ট্রেশন) মনীষ চাকমা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেছেন, আজ অধিদপ্তর ও মন্ত্রণালয়ের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়েছে। জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা ও থানা শিক্ষা কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। তাদের মাধ্যেম প্রতিদিন শিক্ষার্থীদের তথ্য পাঠাবেন স্কুলপ্রধানরা। পঞ্চম শ্রেণিতে সপ্তাহে ৬ দিন এবং বাকিদের ২ দিন করে ক্লাস হবে।

তবে প্রাক-প্রাথমিকে সশরীরে ক্লাস বন্ধ থাকবে। একই সময়ে অনলাইনে ক্লাস চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশনা দিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়।

১৭ মাস পর স্কুল-কলেজে ক্লাস চালু হয় গত বছরের ১২ সেপ্টেম্বর। কিন্তু আবারও করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়তে থাকায় তৈরি হয়েছে অনিশ্চয়তা।

মাধ্যমিকের শিক্ষার্থীদের করোনার টিকা দেওয়ার ওপর গুরুত্ব দিচ্ছে সরকার। আশা করা হচ্ছে, ৩১ জানুয়ারির মধ্যে ১২ বছরের বেশি বয়সী সব শিক্ষার্থী টিকার আওতায় আসবে। টিকা নিলে সশরীরে ক্লাস করতে পারবে তারা।


আরও খবর



কন্যা সন্তানের মা হয়েছেন পপি

প্রকাশিত:বুধবার ১৯ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১৯ জানুয়ারী ২০২২ | ৪২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

কন্যা সন্তানের মা হয়েছেন ঢাকাই সিনেমার নন্দিত নায়িকা সাদিকা পারভীন পপি। গেল প্রায় এক বছর ধরে নিখোঁজ নায়িকাকে ঘিরে এমন খবরই উড়ে বেড়াচ্ছে চলচ্চিত্রপাড়ায়। পপির বেশ কয়েকজন ঘনিষ্ট প্রযোজক, পরিচালক ও সহশিল্পী এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তবে কেউই পপির বিয়ের সময়, পাত্রের নাম-পরিচয় ও মেয়ে জন্ম নেয়ার সময়-নাম বলতে চাইছেন না। এ বিষয়ে তারা এখনো মুখে কুলুপ এঁটে রয়েছেন।

বর্তমানে চলচ্চিত্রপাড়া সরগরম শিল্পী সমিতির নির্বাচন নিয়ে। ২০১৭ সালে রিয়াজ, ফেরদৌস, পূর্ণিমা, রোজিনা, আলীরাজদের সঙ্গে নির্বাচন করে জয়ী হয়েছিলেন কি জাদু করিলাখ্যাত এই নায়িকা। শোনা গিয়েছিলো এবারে ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেল থেকে নির্বাচন করবেন পপি।

নির্বাচন তো দূর, নায়িকার দেখাই মিলছে না। তবে তিনি আলোচনায় থাকছেন রোজ রোজ। তাকে মিস করছেন সবাই, এমন আফসোস উঠে আসছে প্রতিদিন।

এদিকে পপির ঘনিষ্ট কিছু সূত্রে জানা গেল, পপি আছেন রাজধানী ঢাকাতেই। বিয়ে করে সংসারী হয়েছেন। পাত্র ব্যবসায়ী। সংসারে মন দিতেই নিজেক অভিনয় থেকে গুটিয়ে নিয়েছেন।

গর্ভবতী অবস্থায় পাড়ি দিয়েছিলেন মালয়েশিয়া। সেখানেই কন্যা সন্তানের জন্ম দিয়েছেন তিনি। খুব দ্রুতই মেয়ে-স্বামীসহ সবার সামনে এসে চমক দেবেন তিনি।

এদিকে শিল্পী সমিতির নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছেন এমন কয়েকজন শিল্পীর সঙ্গে পপি প্রসঙ্গে কথা বলতে গেলে তারাও নায়িকার বিয়ে ও সন্তান হওয়ার বিষয় শুনেছেন বলে দাবি করেছেন। তাদের ভাষ্য, পপি একজন গুণী অভিনেত্রী। সিনিয়র অভিনেত্রী। বহু হিট-সুপারহিট সিনেমা তিনি দিয়েছেন। বয়স হয়েছে। বিয়ে থা করেছেন, মা হয়েছেন বলে শুনেছি।

তিনি নিজেকে সময় দিচ্ছেন। এটা তার ব্যক্তিগত অধিকার। আপাতত আমরা তাকে বিরক্ত করছি না। তিনি আপাদমস্তক একজন অভিনেত্রী, সিনেমার মানুষ। আজ বা কাল হয়তো ফিরবেন। যেখানেই থাকুন না কেন, দোয়া করি আমাদের পপি ভালো থাকুন।


আরও খবর
টাকা দিয়ে ভোট কিনছেন জায়েদ খান : নিপুণ

শুক্রবার ২৮ জানুয়ারী ২০২২




৭০৮ ইউনিয়ন পরিষদে ভোটগ্রহণ শুরু

প্রকাশিত:বুধবার ০৫ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ০৫ জানুয়ারী ২০২২ | ৫১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পঞ্চম ধাপে ৭০৮ ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) ভোটগ্রহণ চলছে। বুধবার সকাল ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়; একটানা চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত।

এদিকে ৭০৮ ইউনিয়নের মধ্যে ৪০টিতে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) ভোট নেওয়া হচ্ছে; বাকিগুলোতে কাগজের ব্যালটে ভোট হবে।

সূত্র জানায়, পঞ্চম ধাপে ৪৮ জেলার ৯৫ উপজেলায় ভোট হবে। ১৯ জেলার ৩১ উপজেলায় বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তিন জেলায় ম্যাজিস্ট্রেট এবং বিজিবি ও র্যা বের বাড়তি সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। সেগুলো হচ্ছেচাঁপাইনবাবগঞ্জের সদর, মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া ও নওগাঁর পত্নীতলা।

এ ছাড়া বাড়তি ম্যাজিস্ট্রেট মোতায়েন করা হয়েছে, নীলফামারীর ডোমার, ফরিদপুরের মধুখালী ও সদরপুর, গাইবান্ধার সাঘাটা ও ফুলছড়ি, শেরপুরের ঝিনাইগাতী ও শ্রীবরদী, হবিগঞ্জের মাধবপুর ও চুনারুঘাট, কুমিল্লার নাঙ্গলকোট, চান্দিনা ও লালমাই এবং গাজীপুরের শ্রীপুরে। এ ছাড়া র্যা ব ও বিজিবির বাড়তি সদস্য বাড়ানো হয়েছে সাতক্ষীরার আশাশুনি, শ্যামনগর ও কলারোয়া, চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ, হাইমচর ও কচুয়া, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সদর ও আশুগঞ্জ, জামালপুরের বকশীগঞ্জ ও দেওয়ানগঞ্জ, চট্টগ্রামের বোয়ালখালী ও চন্দনাইশ, মানিকগঞ্জের হরিরামপুর ও দৌলতপুর এবং ভোলা সদরে।

সংশ্লিষ্টরা জানান, এ ধাপের নির্বাচনেও আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী ছাড়াও দলটির বিপুলসংখ্যক বিদ্রোহী প্রার্থী মাঠে রয়েছেন। ক্ষমতাসীন দলের একাধিক প্রার্থী মাঠে থাকায় সহিংসতার শঙ্কাও রয়েছে। এসব বিবেচনায় বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়। যদিও ৪৮ চেয়ারম্যানসহ ১৯৩ জন জনপ্রতিনিধি বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী হয়েছেন। তাদের মধ্যে সংরক্ষিত সদস্য ৩৩ এবং সাধারণ সদস্য ১১২ জন। বাকি পদগুলোতে ভোট হচ্ছে।

জানা গেছে, পঞ্চম ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৩৬ হাজার ৪৫৭ প্রার্থী। তাদের মধ্যে চেয়ারম্যান ৩ হাজার ২৭৪ জন, সংরক্ষিত সদস্য সাত হাজার ৯৫০ এবং সাধারণ সদস্য ৩৯ হাজার ৩৯১ জন। এ ধাপে মোট ভোটার সংখ্যা ১ কোটি ৪২ লাখ ২০ হাজার ১৯৫ জন। এর মধ্যে নারী ভোটার ৬৮ লাখ ৩৬ হাজার ৩১ জন ও পুরুষ ৭০ লাখ ৬০ হাজার ১৪০ জন এবং তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার ২১ জন।


আরও খবর



করোনা: বিশ্বজুড়ে সংক্রমণ ছাড়াল ৩৩ কোটি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারী ২০২২ | ২৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

চলমান করোনা মহামারিতে বিশ্বজুড়ে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে। তবে আগের দিনের কিছুটা কমেছে নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন প্রায় ৫ হাজার মানুষ। একই সময়ে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্তের সংখ্যা রয়েছে ১৯ লাখ ২৯ হাজারের ঘরে।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বজুড়ে সবচেয়ে বেশি সংক্রমণের ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রে। অন্যদিকে দৈনিক প্রাণহানির তালিকায় শীর্ষে রয়েছে রাশিয়া। প্রাণহানির তালিকায় এরপরই রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, ইতালি, হাঙ্গেরি ও আর্জেন্টিনা। এতে বিশ্বব্যাপী করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৩৩ কোটি ১১ লাখের ঘর। অন্যদিকে মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৫৫ লাখ ৬৩ হাজার।

মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) সকালে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত, মৃত্যু ও সুস্থতার হিসাব রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে পাওয়া সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৪ হাজার ৯৩২ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে প্রায় এক হাজার। এতে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৫৫ লাখ ৬৩ হাজার ১০৭ জনে।

একই সময়ের মধ্যে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১৯ লাখ ২৯ হাজার ১২২ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা কমেছে প্রায় ২ হাজার। এতে মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত ভাইরাসে আক্রান্ত মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৩ কোটি ১১ লাখ ২৭ হাজার ১০৬ জনে।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে করোনায় সবচেয়ে বেশি সংক্রমণের ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রে। এই সময়ের মধ্যে দেশটিতে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৩৯ হাজার ৫৫৮ জন এবং মারা গেছেন ৪২৪ জন। করোনাভাইরাসে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৬ কোটি ৭৪ লাখ ৯৪ হাজার ৯৬৯ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ৮ লাখ ৭৪ হাজার ২১৩ জন মারা গেছেন।

অন্যদিকে দৈনিক প্রাণহানির তালিকায় শীর্ষে রয়েছে রাশিয়া। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৬৭০ জন এবং নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৩০ হাজার ৭২৬ জন। এছাড়া মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ৮ লাখ ৩৪ হাজার ২৬০ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ২১ হাজার ৯৯০ জনের।

এছাড়া গত এক দিনে যুক্তরাজ্যে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৮৪ হাজার ৪২৯ জন এবং মারা গেছেন ৮৫ জন। মহামারির শুরু থেকে এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ৫৩ লাখ ৫ হাজার ৪১০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ১ লাখ ৫২ হাজার ৭৫ জন মারা গেছেন। একই সময়ে ইতালিতে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৮৩ হাজার ৪০৩ জন এবং মারা গেছেন ২৮৭ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় ফ্রান্সে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ২ হাজার ১৪৪ জন এবং মারা গেছেন ২৯৬ জন। মহামারির শুরু থেকে এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ৪২ লাখ ৭৪ হাজার ৫২৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ১ লাখ ২৭ হাজার ২৬৩ জন মারা গেছেন। একই সময়ে কলম্বিয়ায় নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ২৪ হাজার ২৭২ জন এবং মারা গেছেন ১৩৪ জন।

এছাড়া জার্মানিতে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৩ হাজার ৯১৬ জন এবং মারা গেছেন ১৪৩ জন। করোনা মহামারির শুরু থেকে ইউরোপের এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৮০ লাখ ৪৫ হাজার ৩৪৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ১ লাখ ১৬ হাজার ৪১১ জন মারা গেছেন। একই সময়ের মধ্যে ইউক্রেনে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজার ৭২ জন এবং মারা গেছেন ৭৮ জন।

লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১৬২ জন এবং নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৭৬ হাজার ৩৪৫ জন। অপরদিকে মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ২ কোটি ৩০ লাখ ৮৩ হাজার ২৯৭ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৬ লাখ ২১ হাজার ২৬১ জনের।

এদিকে করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রতিবেশী দেশ ভারত। তবে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যার তালিকায় দেশটির অবস্থান তৃতীয়। মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্ত ৩ কোটি ৭৬ লাখ ২ হাজার ৮৩২ জন এবং মারা গেছেন ৪ লাখ ৮৬ হাজার ৭৮৪ জন।

এছাড়া করোনায় আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় তুরস্কে ১৬২ জন, হাঙ্গেরি ২৭০ জন, দক্ষিণ আফ্রিকায় ৮৭ জন, গ্রিসে ১০৩ জন, কানাডায় ১৪৯ জন এবং আর্জেন্টিনায় ১৯১ জন মারা গেছেন। অন্যদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় মেক্সিকোতে মারা গেছেন ৭৬ জন। মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত উত্তর আমেরিকার এই দেশটিতে মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ১ হাজার ৪১০ জনের।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ২০২০ সালের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে বৈশ্বিক মহামারি হিসেবে ঘোষণা করে। এর আগে একই বছরের ২০ জানুয়ারি বিশ্বজুড়ে জরুরি পরিস্থিতি ঘোষণা করে সংস্থাটি।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস

আরও খবর
করোনায় আরও ২০ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৫৪৪০

শুক্রবার ২৮ জানুয়ারী ২০২২

করোনায় মৃত্যু ১৫, শনাক্ত ১৫ হাজার ৮০৭ জন

বৃহস্পতিবার ২৭ জানুয়ারী ২০২২




ঝুঁকিতে থাকা সব বয়সীরাই পাবেন বুস্টার ডোজ

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ০৩ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৬৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শারীরিকভাবে অসুস্থ এমন ব্যক্তিদের করোনাভাইরাসের টিকার বুস্টার ডোজ দেওয়ার চিন্তা করা হচ্ছে এবং স্বাস্থ্যগত ঝুঁকিতে থাকা ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে বয়স কোনো বাধা হবে না বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এবিএম খুরশীদ আলম।

সোমবার (০৩ জানুয়ারি) স্বাস্থ্য অধিদফতরে হেলথ রিপোর্টার্স ফোরামের সদস্যদের সঙ্গে আলোচনাকালে তিনি এ কথা বলেন।

এবিএম খুরশীদ আলম বলেন, মৃত্যু ঝুঁকিতে আছেন, শারীরিকভাবে অসুস্থ, এমন ব্যক্তিদের করোনা ভাইরাসের টিকার বুস্টার ডোজ দেওয়ার চিন্তা করা হচ্ছে। স্বাস্থ্যগত ঝুঁকিতে থাকাদের ক্ষেত্রে বয়স কোনো বাধা হবে না। এক্ষেত্রে টিকা কার্ড নিয়ে টিকা কেন্দ্রে যেতে হবে। তাকে বলতে হবে যে, তার শারীরিক অসুস্থতা রয়েছে। একটা লোকের ক্যানসার আছে, কিন্তু বয়স ৪০। তিনি বাদ যাবেন কেন? আমরা তাকে টিকা দেওয়ার ব্যবস্থা করবো।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক বলেন, টিকার জন্য নিবন্ধন করার সময় সব তথ্য নেওয়া হয়েছে। এটা দেখেই নিশ্চিত হওয়া যাবে তার কোনো কো মরবিডিটি আছে কিনা। আর কেউ যদি নিবন্ধনের সময় তথ্য না দিয়ে থাকেন, তাহলে তিনি দেখাবেন যে, তিনি ক্যানসারে আক্রান্ত। অনেক ধরনের কো মরবিডিটি আছে। যেমন, ক্যানসারে আক্রান্ত, অ্যান্টিক্যানসার ড্রাগ খেয়েছেন, রেডিয়েশন পেয়েছেন, কেমোথেরাপি পেয়েছেন, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম এ ধরনের মানুষদের আমরা প্রাধান্য দিতে চাচ্ছি।

তিনি আরও বলেন, এসএমএস ছাড়াও ষাট বছরের কম বয়সী কোমরবিড রোগীরা আগের কেন্দ্রে টিকা নিতে পারবেন। সেক্ষেত্রে তাদের রোগের প্রয়োজনীয় তথ্য-প্রমাণ থাকতে হবে।


আরও খবর
করোনায় আরও ২০ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৫৪৪০

শুক্রবার ২৮ জানুয়ারী ২০২২

করোনায় মৃত্যু ১৫, শনাক্ত ১৫ হাজার ৮০৭ জন

বৃহস্পতিবার ২৭ জানুয়ারী ২০২২




ঈমানের পরই নামাজের স্থান

প্রকাশিত:বুধবার ২৬ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ২৬ জানুয়ারী ২০২২ | ১৯০জন দেখেছেন

Image

ইসলামের মূল ভিত্তি পাঁচটি। একজন মানুষ মুসলিম পরিচয় লাভের জন্য সর্ব প্রথম তাকে ইমান আনতে হবে। আর সেই ঈমানটা হলো আল্লাহ এক ও অদ্বিতীয় তার কোনো শরিক নেই, মুহাম্মাদ সা: তার নবী ও রাসূল। এর পরই নামাজের স্থান। প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম নামাজকে ঈমানের পর স্থান দিয়েছেন। নামাজ শব্দটিকে আরবিতে বলা হয় সালাত।

নামাজই একমাত্র ইবাদত; যার মাধ্যমে মানুষ দুনিয়ার সব কাজ ছেড়ে শুধুমাত্র আল্লাহর জন্য নিবেদিত হয়ে যায়। এ নামাজই মানুষকে দুনিয়ার সব পাপ-পংকিলতা থেকে ধুয়ে মুছে পাক-সাফ করে দেয়। দুনিয়ার সব অন্যায়-অনাচার থেকে হেফাজত করে।

সালাত শব্দের আভিধানিক অর্থ দোয়া, তাসবিহ, রহমত তথা দয়া, ইস্তিগফার বা ক্ষমা প্রার্থনা করা। পরিভাষায় বলা হয় নির্দিষ্ট সময়ে, নির্দিষ্ট নিয়মে, নির্দিষ্ট পদ্ধতিতে ইবাদত করার নামই সালাত।

রাসূলুল্লাহ সা: যখন মিরাজে গমন করেন, মহান আল্লাহ তায়ালা তখন পাঁচ ওয়াক্ত সালাত ফরজ করেন রাসূল সা: ও তার উম্মতের ওপর। পবিত্র কুরআনে মহান আল্লাহ তায়ালা সর্বমোট ৮২ বার নামাজের কথা বলেছেন।

নামাজ একটি ফরজ তথা আবশ্যক ইবাদত, সেই প্রসঙ্গে আল্লাহপাকের বর্ণিত কুরআনের কিছু আয়াত যারা অদৃশ্যের বিষয়গুলোতে ইমান আনে এবং নামাজ কায়েম করে (সূরা বাকারা, আয়াত-৩)। আর তোমরা নামাজ প্রতিষ্ঠা করো; জাকাত প্রদান করো এবং রুকুকারীদের সাথে রুকু করো (সূরা বাকারা, আয়াত-৪৩)। হে নবী! আমার বান্দাদের মধ্যে যারা মুমিন তাদের বলুন, নামাজ কায়েম করতে (সূরা ইবরাহিম, আয়াত-৩১)। তোমরা লোকদের সাথে উত্তমভাবে কথা বলবে এবং নামাজ আদায় করবে (সূরা বাকারা, আয়াত-৮৩)। আল্লাহ ইরশাদ করেন, তুমি বলে দাও, আমার রব ন্যায়বিচারের নির্দেশ দিয়েছেন। তোমরা প্রত্যেক নামাজের সময় তোমাদের মুখমণ্ডল স্থির রেখো (সূরা আরাফ, আয়াত-২৯)। অতএব, আল্লাহকে সিজদা করো এবং তার ইবাদত করো (সূরা নাজম, আয়াত-৬২)।

নামাজের গুরুত্বপূর্ণ একটি দিক হলো নামাজ অশ্লীল ও মন্দকাজ থেকে বিরত রাখে। আল্লাহ রাব্বুল আলামিন ইরশাদ করেন, নিশ্চয় নামাজ অশ্লীল ও মন্দকাজ থেকে বিরত রাখে। (সূরা আনকাবুত, আয়াত-৪৫) যারা কিতাবকে দৃঢ়ভাবে ধারণ করে এবং নামাজ প্রতিষ্ঠা করে আমি এরূপ সৎকর্মশীলদের কর্মফল নষ্ট করি না (সূরা আরাফ, আয়াত-১৭০)। মুমিনরা নামাজ আদায় করে, জাকাত আদায় করে এবং আল্লাহ ও তার রাসূলের আদেশ মেনে চলে, এসব লোকের প্রতি আল্লাহ অবশ্যই করুণা বর্ষণ করবেন (সূরা তাওবা, আয়াত-৭১)।

মানুষের জীবনে কোনো বিপদ-আপদ এলে একজন প্রকৃত মুমিন বান্দার উচিত ধৈর্য্য ধারণ করা ও আল্লাহর কাছে সাহায্য প্রার্থনা করা এবং অবশ্যই তা নামাজের মাধ্যমে। এ প্রসঙ্গে আল্লাহ ইরশাদ করেছেন, হে ঈমানদারগণ! সবর ও নামাজের দ্বারা সাহায্য গ্রহণ করো, আল্লাহ সবরকারীদের সাথে আছেন (সূরা বাকারা, আয়াত-১৫৩)। অশান্তি বা গোলযোগের সময় হলে পায়ে হেঁটে অথবা বাহনে চড়ে যেভাবেই সম্ভব নামাজ পড়ো। আর যখন শান্তি স্থাপিত হয়ে যায় তখন আল্লাহকে সেই পদ্ধতিতে স্মরণ করো, যা তিনি তোমাদের শিখিয়েছেন, যে সম্পর্কে ইতঃপূর্বে তোমরা অনবহিত ছিলে (সূরা বাকারা, আয়াত-২৩৯)। নামাজ কায়েম করো এবং তাঁর নাফরমানি করা থেকে দূরে থাকো। তাঁরই কাছে তোমাদের সমবেত করা হবে (সূরা আল আনয়াম, আয়াত-৭২)।

বলো, আমার নামাজ, আমার ইবাদতের সমস্ত অনুষ্ঠান, আমার জীবন ও মৃত্যু সবকিছু আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের জন্য (সূরা আল আনয়াম, আয়াত-১৬৩)। আমিই আল্লাহ, আমি ছাড়া আর কোনো ইলাহ নেই, কাজেই তুমি আমার ইবাদত করো এবং আমাকে স্মরণ করার জন্য নামাজ কায়েম করো (সূরা ত্বহা, আয়াত-১৪।

নামাজের গুরুত্ব বোঝাতে গিয়ে রাসূল সা: বলেছেন নামাজ বেহেশতের চাবি। দৈনিক পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ আদায়ের মাধ্যমে আল্লাহর সাথে তার বান্দার সরাসরি যোগাযোগ স্থাপিত হয়। আর এ জন্যই একজন মুসলিমের জীবনে নামাজের গুরুত্ব অনেক, কারণ মহান আল্লাহ তায়ালার কাছে প্রিয় ইবাদত হলো নামাজ।

হজরত আবদুল্লাহ ইবনে মাসউদ রা: থেকে বর্ণিত তিনি বলেন, আমি রাসূলুল্লাহ সা:কে জিজ্ঞাসা করলাম, (হে আল্লাহর রাসূল) আল্লাহর কাছে সবচেয়ে বেশি প্রিয় আমল কোনটি? রাসূলুল্লাহ সা: বললেন, নামাজ। (বুখারি ও মুসলিম)

নামাজ এমন একটি ইবাদত যার মাধ্যমে কুফর এবং ইমানের মধ্যে পার্থক্য করা যায়। কোন ব্যক্তি ইমানদার আর কোন ব্যক্তি কাফির তার স্পষ্টত ফারাক হলো নামাজ। কারণ মুমিন ব্যক্তি যেকোনো অবস্থাতেই প্রত্যহ পাঁচবার নামাজ আদায় করবে, আর কাফির ব্যক্তি নামাজ থেকে দূরে থাকে।

এ সম্পর্কে জাবির রা: বলেছেন, আল্লাহর রাসূল সা: নামাজের গুরুত্ব সম্পর্কে আলোচনা করতে গিয়ে বলেছেন, কুফর ও ইমানের মধ্যে পার্থক্য হলো নামাজ ত্যাগ করা। (সুনানে তিরমিজি-২৬১৮, সহিহ ইবনে মাজাহ-১০৭৮, মুসলিম)

হুসায়ন ইবনে হুরায়স রহ. বুরায়দা রা: থেকে বর্ণিত তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সা: বলেছেন, আমাদের এবং কাফিরদের মধ্যে পার্থক্যকারী আমল হলো সালাত। যে সালাত ছেড়ে দিলো সে কুফরি করল। (সুনানে নাসায়ি-৪৬৪, সহিহ ইবনে মাজাহ-১০৭৯)

ব্যক্তি জীবন, পারিবারিক জীবন, সমাজ জীবন, রাষ্ট্রীয় জীবন, নামাজ সর্বোপরি সব জীবনের জন্যই একটি কল্যাণকর ইবাদত। মহান আল্লাহ সুবহানাহু তায়ালা সব বান্দাকে সঠিকভাবে নামাজ আদায়ে তৌফিক দান করুক, আমিন।

নিউজ ট্যাগ: নামাজ

আরও খবর
ক্ষমা মহত্ত্বের লক্ষণ

বৃহস্পতিবার ২৭ জানুয়ারী ২০২২

সূরা ফাতিহার গুরত্ব

মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারী ২০২২