আজঃ সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে ‘কন্ট্রাক্ট বিয়ে’ করলেন মৌসুমী!

প্রকাশিত:রবিবার ২৬ নভেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ২৬ নভেম্বর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
বিনোদন ডেস্ক

Image

ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় নায়িকা মৌসুমী। বর্তমানে তিনি অবস্থান করছেন যুক্তরাষ্ট্রে। সেখানে পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাচ্ছেন। অংশ নিয়েছেন কিছু অনুষ্ঠানেও। শুধু তাই নয়, সেখানে বসেই করেছেন একটি ওয়েব সিরিজের শুটিং। নাম কন্ট্রাক্ট বিয়ে। এতে মৌসুমীর বিপরীতে দেখা যাবে অভিনেতা ও পরিচালক হাসান জাহাঙ্গীরকে। তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন এই অভিনেতা ও নির্মাতা।

সিরিজটিতে আরও রয়েছেন জনপ্রিয় অনেক তারকা। সাসপেন্স থ্রিলার ঘরানার এই সিরিজটির গল্প মৌসুমীকে ঘিরেই আবর্তিত হবে। গল্পে দেখা যাবে, যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি জমানোর পর স্থায়ী হওয়ার জন্য বাংলাদেশের মেয়েরা কিছু সময়ের জন্য কন্ট্রাক্ট বিয়ে করেন। মৌসুমীও তেমনি বিয়ে করেন হাসান জাহাঙ্গীরকে। তারপর উঠে আসবে বাংলাদেশ-যুক্তরাষ্ট্রের বাস্তব পরিস্থিতির দৃশ্যপট। যা কাঁদাবে দর্শককে, কখনও দেবে আনন্দও।

ওয়ার্ল্ডওয়াইড সংগঠন হিউম্যান রাইটসের তত্ত্বাবধানে এসএএস প্রোডাকশনের ব্যানারে শামসুল আলম সোহাগ ও মাসুদ রানার সার্বিক সহযোগিতায় নির্মিত হচ্ছে কন্ট্রাক্ট বিয়ে। এর গল্প ও পরিচালনা করছেন হাসান জাহাঙ্গীর।

তিনি বলেন, এ সিরিজের গল্পের পটভূমিতে অন্য এক মৌসুমীকে খুঁজে পাবেন দর্শক। অনেকেই স্বপ্নের দেশ যুক্তরাষ্ট্রে আসতে চান। এজন্য তারা নানা কৌশল অবলম্বন করেন। অনেকে ফাঁদে পড়ে নিঃস্ব হয়ে যান। এমন গল্পগুলো উঠে আসবে এ সিরিজে। আমার বিশ্বাস, দর্শক সিরিজটি উপভোগ করবেন।


আরও খবর
ফের বিয়ে করছেন অনুপম রায়, পাত্রী কে?

সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




আট বছর পর স্পাই ইউনিভার্সে শাহরুখের সঙ্গে আলিয়া

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
বিনোদন ডেস্ক

Image

প্রায় আট বছর আগে ডিয়ার জিন্দেগি সিনেমায় শাহরুখ খানের সঙ্গে তালে তাল মিলিয়ে অভিনয়ে আলো ছড়িয়েছিলেন আলিয়া ভাট। এরপর এই জুটিকে এক সিনেমায় আর দেখা যায়নি। এই সময়ের মধ্যে আলিয়া-শাহরুখ একসঙ্গে বিজ্ঞাপনের কাজ করলেও সিনেমায় আসেননি। অবশেষে তাদের এক সিনেমায় আনছেন নির্মাতা আদিত্য চোপড়া। টাইমস অব ইন্ডিয়া লিখেছে, স্পাই ইউনিভার্স তাদের আগামী সিনেমায় শাহরুখ-আলিয়ার যোগসূত্র তৈরি করতে চাইছে। সিনেমার চিত্রনাট্যও প্রাথমিকভাবে তৈরি হয়েছে, যেখানে আলিয়াকে দেখানো হয়েছে শাহরুখের বাড়ির একজন আশ্রিতা হিসেবে।

২০১৬ সালে ডিয়ার জিন্দেগি সিনেমায় শাহরুখের রোগীর চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন আলিয়া। মানসিক রোগ থেকে রক্ষা পেতে চিকিৎসক শাহরুখের পরামর্শ নিতে নিতে একপর্যায়ে তার প্রেমে পড়ে যান আলিয়া, যদিও শাহরুখের কাছ থেকে কোনো সাড়া মেলেনি। সিনেমায় আলিয়া সেই অর্থে শাহরুখের নায়িকার চরিত্রে অভিনয় করেননি। বরং শাহরুখ-আলিয়ার অন্য রসায়ন পেয়েছে দর্শক।

আলিয়া কিছুদিন হল জিগরার শুটিং শেষ করেছেন। এছাড়া তার হাতে আছে সঞ্জয় লীলা বানসালির লাভ অ্যান্ড ওয়ার সিনেমাটি। এ সিনেমায় রাণবীর কাপুর এবং ভিকি কৌশল অভিনয় করেছেন। এদিকে শাহরুখের নতুন কিছু কাজের খবর সংবাদমাধ্যমে এলেও, সেগুলোর মধ্যে কোনটি তিনি আগে শুরু করবেন, সে বিষয়ে জানা যায়নি।


আরও খবর
ফের বিয়ে করছেন অনুপম রায়, পাত্রী কে?

সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




মাদক-কিশোর গ্যাংয়ের বিরুদ্ধে ‘অলআউট অ্যাকশন’ : র‌্যাব ডিজি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | অনলাইন সংস্করণ
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

Image

মাদক ও কিশোর গ্যাং এর বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার কথা জানিয়েছেন র‌্যাবের মহাপরিচালক এম খুরশীদ হোসেন।

তিনি বলেন, বর্তমানে বাংলাদেশ হচ্ছে মাদকের একটি ট্রানজিট রোড। এর থেকে যদি বাঁচতে হয়, তবে আমাদের সম্মিলিতভাবে মাদকের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে হবে। এছাড়া মাদক-কিশোর গ্যাংয়ের বিরুদ্ধে অল-আউট অ্যাকশন-এ যাবে র‌্যাব।

মঙ্গলবার (২০ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে জাতীয় শহীদ মিনারে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের নিরাপত্তা সংক্রান্ত মতবিনিময় শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

এদিন র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈনের লেখা মাদকের সাতসতেরো: বাংলাদেশের বাস্তবতা ও সমাধানসূত্র এবং 'কিশোর গ্যাং: কীভাবে এলো, কীভাবে রুখব শীর্ষক দুটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন র‌্যাব ডিজি।

এম খুরশীদ হোসেন বলেন, আমাদের মূল কাজ হচ্ছে জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। মানুষ যেন নির্বিঘ্নে চলাচল করতে পারে। সমাজ ব্যবস্থা যেন সুন্দরভাবে পরিচালনা হতে পারে, সমাজের মানুষ যেন কোনো প্রকার হুমকির মধ্যে না থাকেন সেটি নিশ্চিত করা। আপনারা জানেন রাজধানীর মোহাম্মদপুর ও মিরপুরে এই কিশোর গ্যাং এর বিস্তার খুব বেড়ে গিয়েছিল, যেখানে র‌্যাব অভিযান পরিচালনা করে তা নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়েছে।

র‌্যাব মহাপরিচালক বলেন, এসব কিশোর গ্যাং এর কেউ না কেউ আশ্রয়-প্রশ্রয় দাতা আছেন। এরা সব সময় থাকে, অতীতেও ছিল এখনও আছে ভবিষ্যতেও থাকবে। আমরা চেষ্টা করছি কিশোর গ্যাং সমূলে কিভাবে বিনাশ করা যায়, পাশাপাশি যারা এদের পরিচালনা করছে আমরা তাদেরকেও আইনের আওতায় আনবো।

এম খুরশীদ বলেন, মাদকের বিষয়ে কিছু দিন আগেও প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে মিটিং হয়েছে। সেখানে গোয়েন্দা সংস্থা থেকে শুরু করে সকল বাহিনীর প্রধানরা উপস্থিত ছিলেন। মাদকের বিষয়টি এমন হয়েছে যে শুধু পুলিশ-র‌্যাব ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর দিয়ে কোনোভাবেই নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব নয়। বিশ্বের অন্যান্য দেশগুলো মাদক নিয়ন্ত্রণে অনেক বেআইনি পদক্ষেপও নিয়েছে। কিন্তু আমরা সেই পথে যাচ্ছি না, আইনের মধ্যে থেকেই মাদক নিয়ন্ত্রণে কাজ করছি।

র‌্যাব প্রধান বলেন, দেশে যখন জঙ্গী উত্থান হয়েছিল, আমরা তখন দল মত নির্বিশেষে সামাজিকভাবে এর মোকাবিলা করলাম তখন কিন্তু জঙ্গি নির্মূল করা সম্ভব হয়েছে। সেভাবে মাদকও নিয়ন্ত্রণ সম্ভব। এক সময় বাংলাদেশে মাদক আসতো স্থল পথে। তখন বেশি প্রচলন ছিল ফেনসিডিল ও হেরোইনের। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পরে যখন ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক হলো তারপরে কিন্তু বাংলাদেশে ফেনসিডিল আসা বন্ধ হয়েছে। কারণ তখন ভারতের বর্ডার এলাকাগুলোতে ফেনসিডিলের কারখানা ছিল। এরপরেই বাংলাদেশ ফেনসিডিলের চাহিদা অনেকটাই কমে গেছে। স্থল পথে রাজশাহীর চারঘাট, বাগমারা এলাকা দিয়ে গোদাগাড়ীর ওদিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও দিনাজপুর কুমিল্লা বিভিন্ন জায়গা দিয়ে মাদকগুলো আসতো। এখন শুধুমাত্র ফেনসিডিল নয় অনেক বিপজ্জনক মাদক বাংলাদেশে আসছে বিভিন্ন স্থলপথ- বর্ডার এলাকা দিয়ে, জলপথ ও আকাশপথেও আসছে।

কিশোর গ্যাং ও মাদক প্রতিরোধের বিষয়ে লেখা দুটি নিয়ে তিনি বলেন, আমি মনে করি এ ধরনের বই কিশোরদের কাছে পৌঁছে দেওয়া যেতে পারে। পাঠ্য বইয়ে মাদকের কুফল, কিশোর গ্যাং এর কুফলের বিষয়গুলো তুলে ধরা হলে অপরাধ কমে যাবে।

তিনি বলেন, আমরা যদি জাপানের দিকে দেখি, সেখানে শিশুদের প্রথম দুই বছর কোনো পাঠ্য বইয়ের শিক্ষা পড়ানো হয় না। তাদেরকে সেখানে শিখানো হয় ম্যানার (আচার-আচরণ)। দুই বছর পর তাদের পাঠ্য বইয়ে পড়াগুলোকে শেখানো হয়। যদি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে গিয়ে মাদকের কুফল কিশোর গ্যাং এর কুফল নিয়ে আলোচনা করা হয়, বা ক্লাস নেওয়া হয়, তাহলে যথেষ্ট সাড়া পাওয়া যাবে। অতীতেও আমি এ বিষয়গুলো দেখেছি। তাই সর্বোপরি সবাই সব জায়গা থেকে মাদক এবং কিশোর গ্যাংয়ের বিরুদ্ধে জনসচেতনতা তৈরি করতে হবে।


আরও খবর



ভালোবাসা দিবস ও পহেলা ফাল্গুন উপলক্ষে ফুল বিক্রির ধুম

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
অলিউল্লাহ্ ইমরান, বরগুনা

Image

বরগুনায় ফুলের দোকানে ভালবাসা দিবস ও পহেলা বসন্ত বরণকে কেন্দ্র করে মানুষের মধ্যে আনন্দের আমেজ বিরাজ করছে। দোকানগুলোতে সকাল থেকে ধিরে ধিরে ভিড় জমানো শুরু করেছে তরুণ-তরুণী সহ সকল বয়সের বিভিন্ন শ্রেণি পেশাজীবির মানুষ।

বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) ভালবাসা দিবস ও পহেলা ফাল্গুন দিবসকে ঘিরে বরগুনার পৌর নাথ পট্টি লেক এর পাশে ছোট ছোট দোকানের পাশাপাশি বিভিন্ন উপজেলা শহরে সড়কে, পার্কে গড়ে উঠেছে সারি সারি অস্থায়ী ফুলের দোকান। দোকানগুলোতে গোলাপ থেকে শুরু করে নানা ধরনের ফুলের পসরা সাজিয়ে রেখেছেন ফুল ব্যবসায়ীরা।

এ বছরও ক্রেতাদের পছন্দের তালিকায় রয়েছে ভালোবাসার গোলাপের পাশাপাশি গাঁদা, রজনীগন্ধা, জিপসি, চেরি, গ্লাডিওলাস, জাবালা, চন্দ মল্লিকাসহ বিভিন্ন জাতের দেশি ও বিদেশি ফুলের কদর।

প্রতিটি গোলাপ স্বাভাবিক ভাবে সবসময় ২০-৫০ টাকা বিক্রি হলেও এই দিবস উপলক্ষে বিক্রি হচ্ছে ৮০ থেকে ১২০ টাকা পর্যন্ত। সব ফুল মিলিয়ে তোড়া বানিয়ে বিক্রি করছে হরেক দামে। এছাড়াও ফুলের তৈরি মাথার বেল্ট বিক্রি হচ্ছে ২০০-৩০০ টাকা দরে। এছাড়াও স্পেশাল ভাবে প্রিয় মানুষের জন্য ৫০০ টাকা টাকা দরে তোরা বানিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। বিশেষ এই দিনে প্রিয়জনকে ফুল উপহার দিয়ে দাম নিয়ে কোনো মাথাব্যাথা নেই কারো। অনেকেই প্রেমিক-প্রেমিকা, মা-বাবাসহ প্রিয় মানুষদেরকে ফুল দিয়ে প্রকাশ করছে হৃদয় নিংড়ানো ভালোবাসা।

পৌর নাথ পট্টি লেকে গিয়ে দেখা যায়, লেক রোডে ফুল মার্কেটের সব দোকানিই এখন ব্যস্ত পহেলা ফাল্গুন ও ভালোবাসা দিবসে ফুল বিক্রির কাজে।

লিটন নামে একজন ক্রেতা বলেন, বিশেষ দিনে ভালোবাসার মানুষকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানাতে পারলে আমি আনন্দিত হবো, পূর্ণতা পাবো। আমার ছোট বাচ্চাদের জন্য ফুল কিনেছি তারা ভালোবাসা দিবসে ফুল পেয়ে অনেক খুশি হবে।

বরগুনা ফুল ব্যবসায়ী রাখাল বলেন, গত বছরের তুলনায় এ বছর বেশি দামে ফুল কিনে এনে বিক্রি করছি। সকাল থেকে অল্প অল্প করে ক্রেতার সারা মিলেছে। আস্তে আস্তে হয়তো আরো বাড়বে। এবারে বাজারে ৮০ থেকে ১২০ টাকা করে গোলাপ ফুল বিক্রি করছি। এছাড়াও বিভিন্ন দামের ফুলের তোড়া বিক্রি করছি।

এ ব্যাপারে বরগুনা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আবু সৈয়দ মো. জোবায়দুল আলম বলেন, ফাল্গুন ও ভালোবাসা দিবসে সকলেই প্রিয়জনদের ফুল দিয়ে ভালোবাসা জানিয়ে তৃপ্তি পায়।

দামের বিষয় জানতে চাইলে তিনি বলেন, বরগুনাতে বাণিজ্যিকভাবে ফুলের চাষ না করার কারণে বিভিন্ন জেলা থেকে ফুল নিয়ে এসে চাহিদা পূরণ করা হয়। এছাড়াও ভালোবাসা দিবস ও পহেলা ফাল্গুন সকলকে শুভেচ্ছা জানান তিনি।

এদিকে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় বটতলায় পহেলা ফাল্গুন উপলক্ষে সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার আয়োজন করেন জেলা প্রশাসক মুহা. রফিকুল ইসলাম।


আরও খবর
ঝিনাইদহ জেলা কারাগারে কয়েদির মৃত্যু

সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




আজকের রাশিফল: মঙ্গলবার ৩০ জানুয়ারি ২০২৪

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ৩০ জানুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ৩০ জানুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জীবন ধারা ডেস্ক

Image

আজ নতুন কী ঘটতে চলেছে? আজ কি আপনার জন্য ভাল কিছু অপেক্ষা করে আছে? কেমন থাকবে আপনার আর্থিক অবস্থা? নাকি খারাপ কিছুর অপেক্ষা করে আছে আপনার ভাগ্যে। বিখ্যাত জ্যোতিষীর দ্বারা বিশ্লেষণের পর আজকের দিন নিয়ে ভবিষ্যত গণনা জানুন আপনার আজকের রাশিফলে।

মেষ/ Aries রাশিফল ( March 21 April 20 )

পর্যটনের ক্ষেত্র আপনাকে লোভনীয় পেশা দিতে পারে। এখন আপনার উচ্চাশা উপলব্ধি করা এবং তার জন্য কঠোর পরিশ্রম করার সময়। সাফল্য আপনার জন্য ব্যগ্র হয়ে প্রতীক্ষা করছে। কোনো খবর না দিয়েই আজকে আপনার কোনো আত্বিয় আপনার বাড়িতে আসতে পারে।

বৃষ/ Taurus রাশিফল ( April 21 May 21 )

অত্যধিক দুশ্চিন্তা এবং চাপ উচ্চ রক্তচাপের কারণ হতে পারে। আপনার পরিচিত মানুষদের মাধ্যমে উপার্জনের নতুন উত্স সৃষ্টি হবে। অবিলম্বে প্রয়োজন নেই এমন জিনিসে অর্থ ব্যয় করার জন্য আপনি আপনার স্ত্রীর প্রতি বিচলিত হবেন। আপনার চোখের তারা খুব উজ্জ্বল।

মিথুন/ Gemini রাশিফল ( May 22 June 21 )

তাঁরা বুঝতে পারেন যে আপনি তাঁদের জন্য পরোয়া করেন। উদ্যম হারাবেন না। ব্যর্থতা একদম স্বাভাবিক, এগুলোই তো জীবনের সৌন্দর্য্য। কর্মক্ষেত্রে শত্রুরা শুধুমাত্র একটি ভাল কাজের কারণে আজকে আপনার সাথে বন্ধুত্ব করতে পারে। আজকে আপনি অযথা জটিলতার থেকে দূর হবেন।

কর্কট/ Cancer রাশিফল ( June 22 July 23 )

বিপরীত লিঙ্গের সহায়তায় আজ আপনি ব্যবসা বা চাকরিতে আর্থিক সুবিধা পেতে পারেন। পরিবারের সদস্যদের প্রয়োজনীয়তাকে অগ্রাধিকার দিন। তাঁদের আনন্দ এবং দুঃখ ভাগ করে নিতে নিজেকেও অন্তর্ভুক্ত করুন।

সিংহ/ Leo রাশিফল ( July 24 August 23 )

আজকে আপনি নিজের জন্য কিছু সময় বার করতে পারবেন। আজ আত্মীয় আপনাদের বৈবাহিক সুখের ক্ষতির কারণ হতে পারেন। ভ্রমণ করার পক্ষে খুবই দুর্বল তাই দীর্ঘ যাত্রা এড়ানোর চেষ্টা করুন।

কন্যা/ Virgo রাশিফল ( August 24 September 23 )

আপনি আপনার সঙ্গী কাছ থেকে মানসিক ব্ল্যাকমেল এড়িয়ে চলুন। আপনার আজ কর্মক্ষেত্রে একজন অসাধারণ ব্যক্তির সঙ্গে দেখা হতে পারে। এই রাশির লোকেরা খুব কৌতূহলোদ্দীপক হয়। কখনো একা থেকে যদিও একা থাকা এতটা সহজ নয়।

তুলা/ Libra রাশিফল ( Sept 24 Oct 23)

আপনার স্বাস্হ্য ভালো করার খাতিরে লম্বা পায়চারীতে বেরোন। আজ, আপনি অর্থ-সম্পর্কিত সমস্যার মুখোমুখি হতে পারেন। পরামর্শের জন্য আপনার পিতাকে বা পিতার মতো ব্যক্তিকে জিজ্ঞাসা করতে পারেন। পরিবারে কোন মহিলা সদস্যের স্বাস্হ্য দুশ্চিন্তার সৃষ্টি করতে পারে।

বৃশ্চিক/ Scorpio রাশিফল ( Oct 24 Nov 22 )

কর্মরতদের অবশ্যই অফিসে গসিপিং এড়ানো উচিত। আপনার অনুভূতি কী তা সবাইকে জানাতে ব্যস্ত হবেন না। আজ, আপনার স্ত্রী আপনাকে তার জীবনে আপনি বিশ্বের একমাত্র ব্যক্তি বলে মনে করাবে।

ধনু/ Sagitarious রাশিফল ( Nov 23 Dec 22 )

সন্তানদের আপনার উদারতার সুযোগ নিতে দেবেন না। আপনার ভালবাসার জীবন আজ সত্যি সত্যিই আপনার জন্যে অসাধারণ কিছু বয়ে আনবে। এই রাশিচক্রের অধীনে ব্যবসায়ীদের অযাচিত কাজের সাথে সম্পর্কিত ভ্রমনে যেতে হতে পারে। এটি আপনাকে মানসিকভাবে চাপ দিতে পারে।

মকর/ Capricorn রাশিফল ( Dec 23 Jan 20 )

বাচ্চারা আপনার সন্ধ্যেটা উজ্জ্বল করবে। নিষ্প্রাণ আর কর্মব্যস্ত দিনকে বিদায় জানাতে একটি সুন্দর ডিনারের পরিকল্পনা করুন। সঙ্গ আপনার শরীরকে চাঙ্গা করে দেবে। আপনি যদি ভবিষ্যতে আর্থিকভাবে শক্তিশালী হয়ে উঠতে চান তবে আপনাকে আজ থেকে অর্থ সাশ্রয় করতে হবে।

কুম্ভ/ Aquarious রাশিফল ( Jan 21 Feb 19 )

অসমাপ্ত কাজ শেষ করার জন্য আপনারা একসাথে কাজ করবেন। ভ্রমণ লাভদায়ক হলেও খরচসাপেক্ষ হবে। আপনার স্ত্রী আজ তার নিজের কাজ নিয়ে খুব বেশী নিবিষ্ট থাকবেন, যা আপনাকে সত্যিই খুব হতাশ বোধ করাবে।

মীন/ Pisces রাশিফল ( Feb 20 Mar 20 )

কাউকে তাদের ঋণ দেওয়ার বিষয়ে পছন্দ করেন না, তবে অভাবী ব্যক্তিকে আপনার অর্থ ঋণ দিয়ে আপনি স্বস্তি বোধ করবেন। আপনার ভালোবাসার মানুষটির সাথে আজ শিষ্ট আচরণ করুন। ব্যবসায়িক অংশীদাররা সহায়ক আচরণ করবে।


আরও খবর
নারীর জন্য প্রয়োজনীয় পাঁচ ভিটামিন

রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

২৩ ফেব্রুয়ারি : ইতিহাসে আজকের এই দিনে

শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




বিটিএস সদস্যকে বিয়ে করতে ঘরছাড়া ৩ কিশোরী উদ্ধার

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

দক্ষিণ কোরিয়ার ব্যান্ড বিটিএসের টানে ঘর ছাড়া রাজধানীর মেরাদিয়ার তিন কিশোরীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) রাত পৌনে ১০টায় তাদেরকে টঙ্গী পশ্চিম থানা এলাকা থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। দক্ষিণ কোরিয়ার জনপ্রিয় ব্যান্ডদল বিটিএসের ভক্ত এই তিন কিশোরী। এই ব্যান্ডদলের টানেই ২৯ জানুয়ারি ঘর ছেড়ে পালিয়ে যায় তারা।

কিশোরীরা হলেন ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী রিজওয়ানা রিজু (১৪), জান্নাতুল আক্তার বর্ষা ও রুবিনা আক্তার মিম। ২৯ জানুয়ারি দুপুরে তারা পালিয়ে যাওয়ার পর খিলগাঁও থানায় সাধারণ ডায়েরি করে তিন কিশোরীর পরিবার। ওই কিশোরীদের মধ্যে একজন একটি চিঠি লিখে যায়। চিঠিতে সে জানায়, মা-বাবার অবহেলায় বিটিএসের সদস্য জাংকুককে বিয়ে করতে বদ্ধপরিকর সে।

জানা গেছে, কিশোরী তিনজনই বাবা-মায়ের একমাত্র সন্তান। রাজধানীর মেরাদিয়ায় থাকতেন তারা। সাধারণ ডায়েরির পর তদন্তে নেমে পুলিশ সিসিটিভি ফুটেজ বিশ্লেষণের পাশাপাশি বিভিন্ন থানায় নিখোঁজের এই তথ্য ছড়িয়ে দেয়।

এদিকে পালিয়ে যাওয়ার পর গাজীপুরের টঙ্গীতে একটি ঘর ভাড়া নিয়ে থাকছিলেন তারা। বৃহস্পতিবার বিকেলে গাজীপুরের টঙ্গীর এক বাড়িমালিক কিশোরীদের খোঁজ দেন। ওই বাড়ির মালিক বলেন, টিভিতে তাদের নিখোঁজের খবর দেখে পুলিশকে জানান তিনি। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধারের পর বিষয়টি নিশ্চিত হয়।

ডিএমপির মতিঝিল বিভাগের ডিসি হায়াতুল ইসলাম খান বলেন, টেলিভিশনের একটি কনসার্টের মাধ্যমে তারা বিটিএসের গান দেখে। এরপর থেকেই তারা এই ব্যান্ডদলের প্রতি আকৃষ্ট হয়। এক সময় ওই তিন কিশোরী চিন্তা করতে শুরু করে তারা ব্যান্ডদলের সঙ্গে যোগাযোগ করবে। তারা খুব সরল ও সহজ চিন্তাভাবনা নিয়েই বাড়ি থেকে বের হয়ে যায়।

পুলিশ জানায়, মেরাদিয়া থেকে টঙ্গীর আউচপাড়ায় বাসাভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করে তিন কিশোরী। কেনে প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র। বিটিএসের মতো করে নিজেদের তৈরি করতে তারা ভর্তি হন জিমনেসিয়ামে। এছাড়া গার্মেন্টসে চাকরি করে কোরিয়া যাওয়ার প্রয়োজনীয় টাকা সঞ্চয়ের চিন্তা ছিল তাদের। এছাড়া তাদের কাছ থেকে বিটিএস সাদৃশ্য বিভিন্ন সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে।


আরও খবর
ছুটির দিনেও ঢাকার বায়ু ‌‘অস্বাস্থ্যকর’

সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪