আজঃ বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

তুরস্ক ও সিরিয়ায় ভূমিকম্পে নিহত বেড়ে ৫৬০

প্রকাশিত:সোমবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

তুরস্ক ও সিরিয়া সীমান্তে আঘাত হানা ভয়াবহ ভূমিকম্পে সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী ৫৬০ জন মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। আহত হয়েছেন সহস্রাধিক মানুষ। উদ্ধার অভিযান এখনও চলছে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। সোমবার ভোরে ৭ দশমিক ৮ মাত্রার শক্তিশালী এই ভূমিকম্প আঘাত হানে। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে তুরস্কে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করা হয়েছে।

বার্তা সংস্থা এপি জানিয়েছে, ভূমিকম্পের পর অন্তত ২০টি আফটার শক অনুভূত হয়েছে, রিখটার স্কেলে যার মাত্রা ছিল ৬ দশমিক ৬। তুরস্কের গাজিয়ানটেপ শহর থেকে ৯০ কিলোমিটার দূরে উৎপত্তি হওয়া ভূমিকম্প আশপাশের দেশগুলোতে, বিশেষ করে লেবানন, সাইপ্রাস, ইসরাইল, ইতালিতে অনুভূত হয়েছে। বিবিসি বলছে, ইতালিতে প্রথমে সুনামি সতর্কতা জারি করা হলেও পরে তা প্রত্যাহার করা হয়।

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান বলেছেন, ভূমিকম্প আঘাত হানার পর পরই ঘটনাস্থলে উদ্ধারকারীদের পাঠানো হয়। আশা করছি, সম্মিলিত প্রচেষ্টার মাধ্যমে দ্রুতই এ দুর্যোগ কাটিয়ে উঠতে পারব। পরিস্থিতি মোকাবিলায় তুর্কি সরকারের পক্ষ থেকে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের কাছে সাহায্যের অনুরোধ জানানো হয়েছে।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি তুরস্কের বিপদে পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন। টুইটে তিনি বলেছেন, আমরা নিহতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি, সেইসঙ্গে আহতদের দ্রুত সুস্থতা কামনা করছি। এই পরিস্থিতিতে আমরা আমাদের বন্ধুত্বপূর্ণ তুরস্কের সঙ্গে আছি এবং প্রয়োজনীয় সহায়তা করতে প্রস্তুত ইউক্রেনের জনগণ।

অপরদিকে ইসরাইল সরকারও তুরস্ককে সাহায্যের প্রস্তাব দিয়েছে। দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী এলি কোহেন বলেছেন, জরুরি সহায়তা কার্যক্রম শুরুর প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে। বিশ্লেষকরা বলেছেন, বিগত ৮০ বছরের মধ্যে এমন ভয়াবহ ভূমিকম্প দেখেনি তুরস্ক।

যুক্তরাষ্ট্রের ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা ইউএসজিএস জানিয়েছে, স্থানীয় সময় সোমবার ভোর ৪টা ১৭ মিনিটে গাজিয়ানটেপ শহরে ৭ দশমিক ৮ মাত্রার শক্তিশালী এ ভূমিকম্প আঘাত হানে। অবশ্য তুকি কর্তৃপক্ষ বলেছে, রিখটার স্কেলে ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৭ দশমিক ৪।

ভয়াবহ এ ভূমিকম্পের ফলে বহু ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। ধ্বংসস্তূপের নিচে আটকা পড়েছেন অনেক মানুষ। তাদের উদ্ধারে অভিযান চলছে। ভূমিকম্পে তুরস্কের রাজধানী আঙ্কারাসহ বিভিন্ন শহর ও পার্শ্ববর্তী অঞ্চলও কেঁপে ওঠে।

সাম্প্রতিক ইতিহাসে সবচেয়ে শক্তিশালী এই ভূমিকম্পের ফলে ধসে পড়া ভবনগুলোর নিচে অনেক মানুষ আটকা পড়েছেন। ধ্বংসস্তূপে হন্যে হয়ে স্বজনদের খুঁজছেন মানুষ। কেউবা আহতদের উদ্ধারের পর ছুটছেন হাসপাতালের পথে। হাসপাতাল ও ধসে পড়া ভবনগুলোর সামনে স্বজনদের কান্না আর আহাজারি যেন থামছেই না।

তুরস্কের সীমান্তবর্তী দেশ সিরিয়াতেও আঘাত হেনেছে ভূমিকম্প। উত্তর-পশ্চিম সিরিয়ার বিদ্রোহী-নিয়ন্ত্রিত অঞ্চলের পরিস্থিতিকে বিপর্যয়কর হিসেবে বর্ণনা করা হচ্ছে। সেখানেও ভবন ধসে অনেকের আটকা পড়ার খবর এসেছে। দেশটির সরকার ও বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত অঞ্চলে অনেক লোক হতাহত হয়েছেন।


আরও খবর
সৌদি আরবে এক দিনে সাতজনের শিরশ্ছেদ

বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




পুনম পাণ্ডে ও তার স্বামীর বিরুদ্ধে ১০০ কোটির মামলা

প্রকাশিত:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
বিনোদন ডেস্ক

Image

সার্ভিক্যাল ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর নাটক সাজিয়ে দেশজুড়ে আলোড়ন ফেলে দিয়েছিল ভারতীয় মডেল পুনম পাণ্ডে। এবার সেই ভুলের মাশুল গুনতে হচ্ছে তাকে। কানপুরে পুনম এবং তার স্বামী স্যাম বম্বের বিরুদ্ধে দায়ের হলো ১০০ কোটি রুপির মানহানি মামলা। নিজের জন্মভূমিতেই আইনি বিপাকে পড়লেন পুনম!

এর আগে ০২ ফেব্রুয়ারি সার্ভিক্যাল ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার খবর ছড়ায় পুনম পাণ্ডের ইনস্টাগ্রাম একাউন্ট থেকে।

এর একদিন পর অভিনেত্রী জানান, তিনি বেঁচে আছেন। মৃত্যুর ভুয়া খবরটি তিনিই ছড়িয়েছিলেন। ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, আমি বেঁচে আছি। সার্ভিক্যাল ক্যানসারে আমি মারা যাইনি।’

তিনি আরও জানান, আগের মৃত্যুর পোস্টটি তিনি নিজেই দিয়েছিলেন। পুনম পাণ্ডে চেয়েছিলেন সার্ভাইক্যাল ক্যানসার নিয়ে সচেতনতার বার্তা দিতে। কিন্তু হিতে বিপরীত হয়ে গেল! মৃত্যু নিয়ে তো বটেই, এমনকী ক্যানসারের মতো মরণব্যাধি নিয়ে তার এমন রসিকতায় খেপে উঠেছেন ভক্তরাও। দাবি উঠছিল, আইনের আওতায় আনার। এবার মানহানি মামলায় জড়ালেন মডেল অভিনেত্রী।

এবিপি নিউজের প্রতিবেদন অনুসারে, কানপুরের পুলিশ কমিশনারের কাছে পুনম পাণ্ডের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেছেন ফয়জান আনসারি নামে এক ব্যক্তি। সেই অভিযোগনামায় বলা হয়েছে, ১০০ কোটি টাকার মানহানি মামলা দায়ের করা হয়েছে পুনম পাণ্ডে এবং তার স্বামীর বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, তাদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করার অনুরোধও জানিয়েছেন ওই ব্যক্তি।

এফআইআর-এ উল্লেখ রয়েছে, পুনম পাণ্ডে এবং স্যাম বম্বে ডেথ স্টান্টের ষড়যন্ত্র করেছেন।

এমনকী, ক্যানসারের মতো মারণ রোগ নিয়েও ছেলেখেলা করেছেন তারা। পুনম পাণ্ডে আসলে নিজের প্রচারের স্বার্থেই এমন প্রতারণা করে গোটা বলিউড এবং দেশবাসীর আবেগে আঘাত হেনেছেন।

২০১৩ সালে নাশা ছবিতে বলিউডে অভিষেক হয় পুনমের। অভিনয় করেছেন ভোজপুরি, কন্নড় ছবিতেও। সাহসী ও খোলামেলা পোশাকের কারণে সব সময়ই ছিলেন আলোচনায়।


আরও খবর



বৃষ্টিতে ভোগান্তি বিশ্ব ইজতেমার মুসল্লিদের

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | হালনাগাদ:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | অনলাইন সংস্করণ
জেলা প্রতিনিধি

Image

টঙ্গীর তুরাগ নদের তীরে বিশ্ব ইজতেমা উপলক্ষে লাখো মুসল্লির সমাগম হয়েছে। বৃহস্পতিবার বাদ মাগরিব সমবেত মুসল্লিদের উদ্দেশ্যে বয়ান রাখছিলেন মাওলানা ইব্রাহীম দেওলা। ময়দান জুড়ে নেমে আসে পিনপতন নিরবতা।

সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টার দিকে হঠাৎ বৃষ্টির ঢল নেমে সেই নিরবতাকে ভেঙ্গে দেয়। এক পর্যায়ে বৃষ্টির তীব্রতা বাড়তে থাকলে মুসল্লিরা দিকবিদিক ছোটাছুটি করে যে যেখানে পেরেছেন আশ্রয় নিয়েছেন। কেউ ময়দানের চারপাশের বহুতল টয়লেট, ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের উড়াল সড়কের নিচে, কেউ কেউ আবার ময়দানেই পলিথিন মুড়ি দিয়ে বসে ছিলেন।

সরেজমিন ইজতেমা ময়দান ঘুরে দেখা যায়, বৃষ্টিতে ময়দানের অনেক খিত্তায় পানি জমে গেছে। বৃষ্টি হওয়ায় ইজতেমা ময়দানে মুসল্লিদের মধ্যে চরম উদ্বেগ উৎকণ্ঠা দেখা দিয়েছে। বৃষ্টিতে অনেকের বেডিংপত্র ভিজে গেছে। মুসল্লিদেরকে নিজ নিজ খিত্তার পানি সেঁচতে দেখা গেছে। ভেজা কাপড় চোপর নিয়ে তাদের রাত্রিযাপন কষ্টকর হয়ে যাবে বলেও অনেক মুসল্লি জানিয়েছে। অনেকে আবার পুরো ময়দানে টিনের ছাউনি দেওয়ার দাবি জানান।

রংপুর থেকে আমির আসাদুজ্জামানের নেতৃত্বে আশরাফুল ইসলাম, শাহিন, বাচ্চু মিয়াসহ  ৫২জনের একটি জামাত ময়দানের ৩৫নং খিত্তায় (খুটি নং-১৬১৩) অবস্থান নিয়ে মুরুব্বিদের বয়ান শুনছিলেন। তারা জানালেন, সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি পড়তে থাকে। একপর্যায়ে সন্ধ্যা ৭টায় বৃষ্টি ঢল শুরু হয়। এতে আমাদের প্রয়োজনীয় ইস্তেমায়ী সামানা ও কাপড় চোপর ভিজে গেছে। আল্লাহ হেফাজতকারী।

এদিকে বগুড়া থেকে এসেছেন মানসুরুল মিয়া, মোকসুদুর রহমানসহ ২০জনের একটি জামাত। তারা জানান, পুরো ময়দানে টিনের ছাউনি দেয়া হলে হয়তোবা আমাদের এতো কষ্ট হতো না। সরকারের এ বিষয়টির দিকে নজর দেওয়া উচিত।

প্রথমপর্বের ইজতেমা আয়োজক কমিটির মুরুব্বি প্রকৌশলী মাহফুজ হান্নান বলেন, হঠাৎ করে সন্ধ্যায় বৃষ্টি হওয়ায় মুসল্লিরা কষ্ট করছেন। তবে আল্লাহর রাস্তায় যারা কাজ করছেন, আল্লাহই  তাদের হেফাজত করবেন।

নিউজ ট্যাগ: বিশ্ব ইজতেমা

আরও খবর
সিলেট নগরী থেকে গৃহবধূর গলিত লাশ উদ্ধার

বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




নির্বাচন বাতিল চেয়ে পাকিস্তানের সুপ্রিমকোর্টে আবেদন

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

পাকিস্তানর জাতীয় নির্বাচন বাতিল চেয়ে দেশটির সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করা হয়েছে। আবেদন গ্রহণ করে শুনানির জন্য অনুমোদন দিয়েছেন আদালত। প্রধান বিচারপতি কাজী ফয়েজ ইসার নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের বেঞ্চ এই শুনানি কার্যক্রম পরিচালনা করবেন। পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম জিও নিউজের এক প্রতিবেদন থেকে এই তথ্য জানা যায়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ৩০ দিনের মধ্যে নতুন করে নির্বাচন দেওয়ার দাবি জানিয়ে আলী খান নামের এক নাগরিক আবেদন করেছেন। আবেদনে পাকিস্তানের নির্বাচন কমিশন (ইসিপি) ও কেন্দ্রীয় সরকারকে বিবাদী করা হয়েছে।

৮ ফেব্রুয়ারি পাকিস্তানে সাধারণ পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ৬০ ঘণ্টা পর প্রকাশিত ফলে দেখা যায়, স্বতন্ত্র প্রার্থীরা পেয়েছেন ১০২টি আসন, পাকিস্তান মুসলিম লিগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন) ৭৪টি এবং পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) ৫৪টি। এ ছাড়া মুত্তাহিদা কওমি মুভমেন্ট পাকিস্তান (এমকিউএম) ১৭ আসনে জয়ী হয়েছে। অন্য দলগুলো পেয়েছে ১৭টি আসন। পাকিস্তানে সরকার গঠনের জন্য প্রয়োজন ১৩৪ আসন। কিন্তু কোনো দলই এই সংখ্যায় না পৌঁছানোয় জোট সরকার গঠনের পদক্ষেপ নেন দেশটির রাজনীতিবিদরা।

তবে এই নির্বাচনের স্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে পিটিআই, পিপিপি, জামায়াতে ইসলামি ও জমিয়াত উলেমা-ই-ইসলাম ফজল (জেইউআই-এফ) এর মতো দলগুলো।  যুক্তরাষ্ট্রও পাকিস্তানি কর্তৃপক্ষকে নিরপেক্ষ ও স্বাধীন কমিশন গঠন করে নির্বাচনের অভিযোগ নিয়ে তদন্তের আহ্বান জানিয়েছে। 


আরও খবর
সৌদি আরবে এক দিনে সাতজনের শিরশ্ছেদ

বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়েতে বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত বেড়ে ৫

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
মীর ইমরান, মাদারীপুর

Image

মাদারীপুরের শিবচরে বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়েতে ট্রাকের সঙ্গে বাসের সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা বেড়ে পাঁচজনে দাঁড়িয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন। এর মধ্যে ঘটনাস্থলে ২ জন ও হাসপাতালে নেওয়ার পথে আরও ৩ জন নিহত হন।

বৃহস্পতিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সাড়ে ৭টার দিকে শিবচর উপজেলার সূর্যনগর এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সন্ধ্যায় ঢাকা থেকে ছেড়ে আসে হানিফ পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাস। বঙ্গবন্ধু এক্সপ্রেসওয়ের শিবচর উপজেলার সূর্যনগর এলাকায় আসলে পেছন থেকে একটি ট্রাক যাত্রীবাহী বাসটিকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই বাসের দুই যাত্রী নিহত হন এবং হাসপাতলে নেওয়ার পথে আরও তিন যাত্রী মারা যান। এই ঘটনায় আহত হন বেশ কয়েকজন।

এ ছাড়াও শিবচরের পাচ্চর এলাকার রয়েল হাসপাতালে আহত পাঁচ জনকে নেওয়া হয়। পরে তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তাছাড়া কয়েকজনকে আশপাশের হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

শিবচর হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাকিল জানান, দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলে দুই জন নিহত হয়েছেন। আহতদের উদ্ধার করে নিকটস্থ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। সেখানে আরও তিনজন মারা গেছেন।


আরও খবর
সিলেট নগরী থেকে গৃহবধূর গলিত লাশ উদ্ধার

বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ভারত থেকে পেঁয়াজ-চিনি এনে বিক্রি করবে টিসিবি

প্রকাশিত:বুধবার ৩১ জানুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ৩১ জানুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

ভারত থেকে পেঁয়াজ ও চিনি এনে ভোক্তাদের কাছে বিক্রি করবে সরকারি বিপণন সংস্থা ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)।

আজ বুধবার দুপুরে সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে নিজ দপ্তরে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ তথ্য জানান বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু।

বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী বলেন, আমরা ভারতের সঙ্গে কথা বলেছি। ভারতের বাণিজ্যমন্ত্রীর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তাদের নিষেধাজ্ঞা ছিল যে, চিনি ও পেঁয়াজ কোনো পার্শ্ববর্তী দেশকে দেবে না, সেখানে তারা একটু রিল্যাক্স (শিথিল) করেছে। তারা আমাদের আবেদনটা সহানুভূতি নিয়ে দেখছে। আমরা প্রস্তাব পাঠিয়েছি। আশা করছি, রমজানের আগেই আমরা একটা ইতিবাচক সাড়া পাব। সেই চিনি ও পেঁয়াজ আমরা টিসিবির মাধ্যমে বিপণন করতে পারব।

আহসানুল ইসলাম টিটু বলেন, ২০ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজ ও ৫০ হাজার মেট্রিক টন চিনি ভারত দিতে পারবে বলে জানিয়েছে। আমরা বলেছি, আমাদের চাহিদা আরেকটু বেশি। আমরা ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ ও ১ লাখ টন চিনি চেয়েছি। তারা বিষয়টি বিবেচনা করবেন। সামনে তাদের নির্বাচন, তাদের ভোক্তাদের কষ্ট দিয়ে তো আমাদের দেবে না। যতটুকু সহনীয়, ততটুকুই তারা দেবে।

তিনি বলেন, বাজারে এই মুহূর্তে মুড়িকাটা পেঁয়াজগুলো আছে। মূল পেঁয়াজটা উঠতে মাসখানেক সময় লাগবে। পুরোপুরি ফসল তোলা শেষ হবে এপ্রিলের মাঝামাঝিতে। আমরাও উদ্যোগ নিয়েছি, টিসিবির মাধ্যমে আমরা যেন বাইরে থেকে পেঁয়াজ এনে বিক্রি করতে পারি।

বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী বলেন, আমরা গত ২২ জানুয়ারি জাতীয় রাজস্ব বোর্ডে চিঠি দিয়েছি। সেখানে চিনির যে ৩০ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক আছে, সেটা রমজান উপলক্ষে কমানোর প্রস্তাব দিয়েছি। ভোজ্যতেলের ক্ষেত্রে ১৫ শতাংশের জায়গায় পাঁচ শতাংশ শুল্কের প্রস্তাব আমরা দিয়েছি। আর খেজুরের একটা ভ্যালু (মূল্য) ঠিক করা ছিল, আমরা বলেছি, ইনভয়েস ভ্যালুতে (চালান মূল্য) করটা নির্ধারণ করার জন্য। এখন এনবিআরকে আপনারা প্রশ্ন করেন, যত দ্রুত তারা এটা দেবে, আমার জন্য মার্কেট অপারেশন তত সহজ হবে।

এ বিষয়ে এনবিআরের সঙ্গে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের বৈঠক হবে কি না, জানতে চাইলে আহসানুল ইসলাম টিটু বলেন, এনবিআরের সঙ্গে আর বৈঠক করার দরকার নেই। গেল ২২ জানুয়ারি আমরা চিঠি দিয়েছি। বৃহস্পতিবার তারা চিঠি পাওয়ার কথা স্বীকার করেছেন। এখন এনবিআর কেন দিচ্ছে না, সেটা গিয়ে তাদের বলতে হবে।


আরও খবর
কোম্পানির রিটার্ন জমার সময় বাড়ল দুই মাস

বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪