আজঃ মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

টুঙ্গিপাড়ায় পুকুরে বিষ দিয়ে মাছ নিধন

প্রকাশিত:শনিবার ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

Image

গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া একটি মাছের ঘেরে বিষ প্রয়োগ করে ১০ লাখ টাকার মাছ মারার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে উপজেলার গোপালপুর ইউনিয়নের পাথর ঘাটা গ্রামে নওরোজ আলী খানের পুকুরে এ ঘটনা ঘটে।

পুকুরের মালিক নওরোজ আলী খান গণমাধ্যমকে বলেন, প্রায় ৪ একর জায়গার উপর পুকুর খনন করে আমি কয়েক বছর ধরে মাছ চাষ করছি। এবার পুকুরে রুই, কাতলা, জাপানি পুঁটিসহ দেশীয় বিভিন্ন জাতের মাছ চাষ করেছি। এতে আমার প্রায় ১০ লাখ টাকা খরচ হয়েছে। কিছু দিনের মধ্যেই মাছগুলো বাজারে বিক্রির উপযোগী হয়ে উঠতো।

শনিবার গভীর রাতে কয়েকজন লোক পুকুরের আশপাশে চলাচল করেছে বলে জানান পুকুরের মালিক নওরোজ আলী খান। এর কিছুক্ষণ পরেই তিনি পুকুরের মাছ মরে ভেসে উঠতে দেখেন। প্রথমে আমরা গ্যাসের অভাবে মাছ মরে ভেসে উঠছে ভাবলেও সকালে পুকুরের পাড়ে তিনটি বিষের বোতল পড়ে থাকতে দেখি। পুকুরে বিষ প্রয়োগের কারণেই সব মাছ মরে ভেসে উঠেছে। এতে আমার প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, আমি একজন গরীব কৃষক অনেক কষ্ট করে ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে পুকুরে মাছের চাষ করি। তাই আমাকে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করার জন্য পূর্ব শত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষরা এ ঘটনা ঘটিয়ে থাকতে পারে।

এ ঘটনায় টুঙ্গিপাড়ায় থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে বলে জানান তিনি। টুঙ্গিপাড়া থানার ডিউটি অফিসার এ এস আই মনির হোসেন বলেন, অভিযোগ পেয়েছি, ঘটনা তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।


আরও খবর
ঝিনাইদহ জেলা কারাগারে কয়েদির মৃত্যু

সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




আজ যে সব এলাকায় বৃষ্টি হতে পারে

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | হালনাগাদ:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় আজ শুক্রবার বৃষ্টি হতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, লঘুচাপের বর্ধিতাংশ ভারতের গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ ও তার আশপাশ এলাকা পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে।

আগামী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রাজশাহী, ঢাকা ও ময়মনসিংহ বিভাগের দুয়েক জায়গায় হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া দেশের অন্য এলাকায় আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে।

কুয়াশার বিষয়ে বলা হয়েছে, মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারা দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা পড়তে পারে। ঘন কুয়াশার কারণে অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন যোগাযোগে সাময়িকভাবে বিঘ্ন ঘটতে পারে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশের মধ্যে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল পটুয়াখালীর খেপুপাড়ায় ২৮ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় ১০ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।


আরও খবর
সারা দেশে কমতে পারে রাতের তাপমাত্রা

সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ইসরায়েলের বর্বরতা : খাবারের জন্য অপেক্ষারত ফিলিস্তিনিদের ওপর গুলি বর্ষণ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | অনলাইন সংস্করণ
Image

খাবারের জন্য লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা ফিলিস্তিনিদের ওপর এলোপাতাড়ি গুলি চালিয়েছে ইসরায়েল। এই ঘটনায় এক ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এছাড়া আরও বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে। গাজার উত্তরাঞ্চলে ইসরায়েলি বাহিনী খাবারের অপেক্ষায় থাকা ক্ষুধার্ত ফিলিস্তিনিদের ওপর গুলি চালিয়েছে বলে বেশ কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী নিশ্চিত করেছেন। এই ঘটনার বেশ কিছু ভিডিওতেও ঘটনার সত্যতা প্রকাশ পেয়েছে।

আল জাজিরার যাচাই করা এসব ফুটেজে দেখা গেছে, সোমবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) উত্তর গাজার একটি ধ্বংসপ্রাপ্ত উপকূলীয় রাস্তা ধরে পালানোর চেষ্টা করছেন ফিলিস্তিনিরা। সে সময় তীব্র গোলাগুলি চলছিল। সেখানে ইসরায়েলি বাহিনীর তাণ্ডবের কারণে কোনো ধরনের সহায়তা পৌঁছানো সম্ভব হচ্ছে না।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ইসরায়েলি বাহিনীর গুলিতে একজন নিহত হয়েছেন। তিনি মাথায় গুলিবিদ্ধ হয়ে মাটিতে ছিটকে পড়েন। ফিলিস্তিনি বার্তা সংস্থা ওয়াফা নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে, ওই হামলায় কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়েছে।

ভুক্তভোগী ও প্রত্যক্ষদর্শীরা আল জাজিরাকে জানিয়েছেন, বিনা প্ররোচনায় ইসরায়েলি বাহিনী সেখানে হামলা চালিয়েছে। এই ঘটনায় আহত এক ব্যক্তি বলেন, আমি গোলাগুলির শব্দ শুনতে পাই। এরপর কি ঘটেছে আমি জানি না।

অপর এক ব্যক্তি জানান, তিনি সেখানে ময়দা নেওয়ার জন্য গিয়েছিলেন। তিনি বলেন, আমরা আমাদের সন্তানদের খাবার দিতে চাই যেভাবে অন্যরা দিচ্ছে। আমরা সামান্য কিছু ময়দা পাওয়ার আশায় সেখানে গিয়েছিলাম। কিন্তু তারা আমাদের ওপর গুলি চালিয়েছে। তারা ট্যাঙ্ক নিয়ে আমাদের ওপর হামলার জন্য অগ্রসর হচ্ছে।

বেশ কিছু ফুটেজে দেখা গেছে, বস্তা থেকে মাটিতে পড়ে থাকা ময়দা তুলে নিচ্ছে ফিলিস্তিনি শিশুরা। সম্প্রতি গাজায় দুর্ভিক্ষের মতো পরিস্থিতি হতে পারে বলে সতর্ক করেছে জাতিসংঘ। সেখানে ইসরায়েলি বাহিনীর তাণ্ডবের কারণে তীব্র মানবিক সংকট তৈরি হয়েছে।

এমন ভয়াবহ পরিস্থিতির পরেও ইসরায়েলি বাহিনী গাজায় কোনো ধরনের মানবিক সহায়তা প্রবেশের অনুমতি দিচ্ছে না। সোমবার জাতিসংঘের বেশ কয়েকটি সংস্থা সতর্ক করেছে যে, খাদ্য ও পানির অভাব এবং এর পাশাপাশি রোগের বিস্তারের কারণে গাজায় শিশু মৃত্যুর হার উদ্বেগজনক ভাবে বাড়তে পারে।

এদিকে গাজার হামাস-নিয়ন্ত্রিত স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, সেখানে কমপক্ষে ২৯ হাজার ৯২ জন ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এর মধ্যে অধিকাংশই নারী এবং শিশু। এছাড়া আহত হয়েছে আরও ৬৯ হাজার ২৮ জন।

এর আগে ইসরায়েলি সেনাবাহিনী এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, গাজার দক্ষিণাঞ্চলে আরও এক সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন। তার পরিচয় প্রকাশ করা হয়েছে। ওই সেনার নাম সার্জেন্ট সিমোন স্লোমোভ, বয়স ২০ বছর। গাজায় ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযানে এ নিয়ে এখন পর্যন্ত ২৩৫ জন সেনা সদস্য নিহত হয়েছেন।

গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলের সীমান্তে প্রবেশ করে আকস্মিক হামলা চালায় ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস। এরপর থেকেই গাজায় অভিযানের নামে নিরীহ ফিলিস্তিনিদের ওপর আগ্রাসন চালিয়ে যাচ্ছে ইসরায়েলি বাহিনী।

চলতি বছরের ১০ মার্চ গাজায় রমজান শুরু হচ্ছে। ইসরায়েলের যুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রিসভা দেশটির শীর্ষ নিরাপত্তা কর্মকর্তাদের নিয়ে গঠিত। গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলের সীমান্তে প্রবেশ করে আকস্মিক হামলা চালায় হামাস। এতে কমপক্ষে ১২০০ জন নিহত এবং ২৫৩ জনকে জিম্মি হিসেবে অপহরণ করা হয়। হামাসের হাতে এখনও প্রায় ১৩০ জন জিম্মি বন্দি রয়েছে বলে জানিয়েছে ইসরায়েল।


আরও খবর
বিশ্ববাজারে আবারো কমেছে জ্বালানি তেলের দাম

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ছেলের সঙ্গে ক্যান্টিনে বসে খাওয়ার অপরাধে স্কুল থেকেই গ্রেফতার অভিভাবক

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

নিয়ম মেনে স্কুলের শিক্ষক-শিক্ষিকাদের সঙ্গে পড়ুয়াদের অভিভাবকদের আলোচনা হয় মাঝেমধ্যেই। সেই উদ্দেশ্যেই ছেলের স্কুলে গিয়েছিলেন এক অভিভাবক। আর শেখানেই ঘটে বিপত্তি, খিদে পেলে ছেলের সঙ্গে বসে স্কুলের ক্যান্টিনে খেতে যান তিনি। তার পরেই গ্রেফতার হতে হয় তাকে। বুধবার (০৭ ফেব্রুয়ারি) এই ঘটনাটি আমেরিকার পিট্সবার্গ এলাকার কাছে ওয়াশিংটন কাউন্টির একটি স্কুলে ঘটেছে।

স্থানীয় সংবাদ সংস্থা সূত্রে জানা যায়, বুধবার (০৭ ফেব্রুয়ারি) স্থানীয় সময় ১০টা ৪৫ মিনিটে স্কুলের ক্যান্টিন থেকে গ্রেফতার করা হয় অভিভাবককে। স্কুল কর্তৃপক্ষের দাবি, স্কুলের ক্যান্টিনে বসে তার ছেলের সঙ্গে খাওয়াদাওয়া করছিলেন ওই অভিভাবক। স্কুল চত্বরের ভিতর অনধিকার প্রবেশ নিষেধ বলে জানান কর্তৃপক্ষ। স্কুলের নিয়ম ভেঙে ক্যান্টিনে প্রবেশ করেছিলেন বলে গ্রেফতার করা হয়েছে অভিভাবককে। স্কুল কর্তৃপক্ষের দাবি, এই ঘটনার ফলে স্কুলের নিরাপত্তা ব্যবস্থা লঙ্ঘন করা হয়েছে।

স্থানীয় সংবাদ সংস্থা সূত্রে জানা গিয়েছে, ক্যান্টিনের ভিতর থেকে অভিভাবককে হাতকড়া পরিয়ে বাইরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। যদিও পুলিশ এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করেনি। তবে ঘটনাটি নিয়ে নেটমাধ্যমে আলোচনা শুরু হলে স্কুল কর্তৃপক্ষের নিন্দা করেন নেট ব্যবহারকারীরা। কেউ বলেন, পড়ুয়াদের অভিভাবকেরা অচেনা নন। তাঁরা ক্যান্টিনে প্রবেশ করলে কী-ই বা ক্ষতি হবে?

অন্য এক নেট ব্যবহারকারীর মন্তব্য, এমন অদ্ভুত নিয়ম কিসের? উনি তো ছেলের সঙ্গে বসে খাচ্ছিলেন। গ্রেফতার করার খুব প্রয়োজন ছিল কি?


আরও খবর
বিশ্ববাজারে আবারো কমেছে জ্বালানি তেলের দাম

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




পাঁচ মামলায় শামসুজ্জামান দুদুর জামিন

প্রকাশিত:রবিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

রাজধানীর তিনটি থানার আলাদা আট মামলার মধ্যে পাঁচটিতে জামিন পেয়েছেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু।

রোববার (১৮ ফেব্রুয়ারি) শুনানি শেষে এই আদেশ দেন ঢাকার অ্যাডিশনাল চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. সুলতানা সোহাগ উদ্দিনের আদালত।

জামিন পাওয়া মামলাগুলোর মধ্যে রমনা মডেল থানার তিনটি, বাড্ডা ও পল্টন থানার একটি করে মামলা রয়েছে। পল্টন থানার তিনটি মামলায় নথি না থাকায় এদিন শুনানি হয়নি। নথি পাওয়ার পর জামিন শুনানি হবে।

দুদুর পক্ষে জামিন শুনানি করেন মাসুদ আহমেদ তালুকদার, সৈয়দ জয়নুল আবেদীন মেজবাহ। তাদের দাবি, শামসুজ্জামান দুদুর বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট অভিযোগ নেই। যে উদ্দেশ্যে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল, তা শেষ হয়ে গেছে। অসুস্থ এবং বয়স্ক মানুষ হওয়ায় তার জামিনের প্রার্থনা করেন আইনজীবীরা।

এর আগে, এদিন দুপুরে রাজধানীর পল্টন থানার চার, রমনা থানার তিন ও বাড্ডা থানার এক মামলায় শামসুজ্জামান দুদুকে গ্রেপ্তার দেখানোর আবেদন মঞ্জুর করেন আদালত।

১৫ ফেব্রুয়ারি ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এই আট মামলায় দুদুকে গ্রেপ্তার দেখানোর আবেদনসহ জামিন আবেদন করেন তার আইনজীবীরা।

 উল্লেখ্য, ৫ নভেম্বর দিবাগত রাতে ঢাকায় বোনের বাসা থেকে দুদুকে আটক করে ডিবি পুলিশ। পরদিন প্রধান বিচারপতির বাসভবনে হামলা, পুলিশের ওপর হামলা ও পুলিশ সদস্য হত্যার অভিযোগে করা মামলায় তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। রিমান্ড শেষে ৯ নভেম্বর তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। এরপর থেকে তিনি কারাগারে আটক রয়েছেন।


আরও খবর



দেশের বাজার নিয়ন্ত্রণে রাখতে পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ রাখবে ভারত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

চলতি বছরের ৩১ মার্চ পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে রেখেছিল ভারত। দেশটির কেন্দ্রীয় সরকারের নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, সেটা অব্যাহত থাকবে। অর্থাৎ এর আগে মসলাজাতীয় পণ্যটি রপ্তানি করবে না তারা। ভারতীয় প্রভাবশালী সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া এবং দ্য হিন্দুর প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে।

এতে বলা হয়, গত ২০ ফেব্রুয়ারি এক শীর্ষ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, দেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে মরিয়া ভারত সরকার। সেই সঙ্গে অভ্যন্তরে পর্যাপ্ত সরবরাহ রাখতে চায় তারা। সেই লক্ষ্যে রান্নাঘরের মুখ্য পণ্যটি রপ্তানি নিষিদ্ধ রাখতেই আগ্রহী তারা। প্রয়োজনে বন্ধ রাখার মেয়াদ আরও বাড়তে পারে।

বার্তা সংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়াকে ভোক্তা বিষয়ক সচিব রোহিত কুমার বলেন, পেঁয়াজ রপ্তানিতে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া হচ্ছে না। এ নিয়ে বিদ্যমান অবস্থান পরিবর্তনের কোনো বাধ্যবাধকতা আপাতত নেই। ভারতে পেঁয়াজের দর যৌক্তিক পর্যায়ে আনতে মুখিয়ে আছে সরকার। দেশের মার্কেটে পণ্যটির সহজলভ্যতা ও প্রাপ্যতা নিশ্চিত করতে চায় তারা। এখন মূলত তাতে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে।

সম্প্রতি খবর বের হয়, পেঁয়াজ রপ্তানিতে জারি করা নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেছে ভারত। এ সংবাদ ছড়িয়ে পড়তেই দেশটিতে নিত্যপণ্যটির দর ৪০ দশমিক ৬২ শতাংশ বেড়ে যায়। পরিপ্রেক্ষিতে গত ১৯ ফেব্রুয়ারি দেশটির বাজারে পাইকারিতে প্রতি কুইন্টালের মূল্য দাঁড়ায় ১২৮০ রুপি (ভারতীয় মুদ্রা)।

সূত্র জানায়, সামনে ভারতে জাতীয় নির্বাচন। এর আগে পেঁয়াজের ওপর থেকে নরেন্দ্র মোদি সরকারের নিষেধাজ্ঞা ওঠানোর সম্ভাবনা ক্ষীণ। একরকম নেই বললেই চলে। কারণ, শীতকালীন মৌসুমে দেশটির শীর্ষ উৎপাদক অঞ্চল মহারাষ্ট্রে তুলনামূলক কম উৎপন্ন হয়েছে।

অবশ্য ইতোমধ্যে বাংলাদেশসহ কয়েকটি বন্ধুত্বপূর্ণ দেশে সীমিত পরিমাণে পেঁয়াজ রপ্তানির অনুমতি দিয়েছে ভারত। সেই চুক্তি বজায় থাকতে পারে।


আরও খবর
২৪ দিনে প্রবাসী আয় ১৮ হাজার কোটি টাকা

রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪