আজঃ মঙ্গলবার ০৫ মার্চ ২০২৪
শিরোনাম

স্বরূপকাঠির আমড়া চাষী ও ব্যবসায়ীদের মুখে হাসি

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৭ অক্টোবর ২০২৩ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ অক্টোবর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
হযরত আলী হিরু, স্বরূপকাঠি

Image

পিরোজপুরের স্বরূপকাঠি উপজেলার কুড়িয়ানার পেয়ারা মতই এই এলাকার আমড়ার সুখ্যাতি রয়েছে দেশব্যাপী। স্বাদ ও পুষ্টিগুনে অনন্য এ আমড়ার কদর রয়েছে দেশজুড়ে। বরিশাল বিভাগের আমড়ার সিংহভাগ ফলন হয় পিরোজপুর জেলার এই স্বরূপকাঠি উপজেলায়। এ উপজেলায় বানিজ্যিকভাবে আমড়ার আবাদ চলছে ৭০-৮০ বছর পূর্ব থেকে। এ বছর এই এলাকায় আমড়ার ফলন ভালো হয়েছে।

বিগত বছরগুলোতে যোগাযোগ ব্যবস্থার দূরবস্থা ও করোনাকালীন সময়ে তেমন ক্রেতা পাইকাররা না আসায় ব্যাপক লোকসানের সম্মুখিন হয়েছেন এখানকার চাষী ও ব্যবসায়ীরা। এ বছর আমড়ার সাইজ ফলন ও ভালো এবং যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি হওয়ায় এখানকার চাষী ও ব্যবসায়ীদের মুখে হাসি ফুটেছে। বিগত বছরগুলোর লোকসানের ক্ষতি পুষিয়ে এবছর লাভবান হওয়ার ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী তারা।

উপজেলা কৃষি অফিস থেকে পাওয়া তথ্যমতে এ বছর উপজেলার ১৬০ হেক্টর জমিতে এই আমড়ার মুল চাষ হচ্ছে। এ বছর প্রতি হেক্টরে গড়ে ১৫ থেকে ২০ মেট্রিক টন আমড়া উৎপাদিত হয়েছে। আমড়ার চাষাবাদ ও বিপণন ব্যবস্থার সাথে ঐ সমস্ত এলাকার প্রায় পাঁচ থেকে সাত হাজার শ্রমজীবী মানুষ প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে জড়িত থেকে জীবন-জীবিকা নির্বাহ করছে। প্রতিবছর আষাঢ় মাসের মাঝামাঝি সময় হতে কার্তিক মাস পর্যন্ত আমড়ার মৌসুম হিসেবে ধরা হয়।

উপজেলার কুড়িয়ানা, আটঘর, আদমকাঠি, জিন্দাকাঠি, ধলহার, আতা, মাদ্রাসহ ছোট বড় মিলিয়ে অন্তত ১০ টি খালে প্রতিদিনই আমড়ার ভাসমান হাট বসে। আমড়া চাষীরা বাগান থেকে আমড়া পেরে বিক্রয়ের জন্য নৌকা ও ট্রলারে করে হাটে নিয়ে আসেন।

ব্যাবসায়ীরা আমড়া ক্রয় এবং সরবরাহ করার জন্য ওই হাটে অস্থায়ী আড়ত নির্মান করেছেন। আড়তগুলোতে পুরুষ শ্রমিকের পাশাপাশি নারী শ্রমিকেরাও কাজ করে চলছেন। পুরুষ শ্রমিকেরা প্রতিদিন ৮ থেকে ১০ ঘন্টা কাজ করে ৬ শত থেকে ৮ শত টাকা এবং নারী শ্রমিকেরা প্রতিদিন ৫ থেকে ৭ ঘন্টা কাজ করে ৪ থেকে ৫ শত টাকা মজুরী পান। সকালে আড়তে কাজকর্মের তেমন কোন চাপ না থাকলেও বেলা বাড়ার সাথে সাথে হাটে ও আড়তগুলোতে ক্রেতা বিক্রেতা ও শ্রমিকদের কাজে সরগরম হয়ে ওঠে ওই সকল এলাকা। দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত চলে আমড়া বেচাকেনা। সন্ধ্যার পর থেকে শ্রমিকেরা আমড়া বাছাই করে  প্লাষ্টিকের ক্যারেট, বস্তা ও ঝুড়ি ভর্তি করেন। গভীর রাত পর্যন্ত তারা ট্রাক ও পিকআপে আমড়া বোঝাই করেন। কোন কোন ব্যবসায়ী লঞ্চযোগেও আমড়া সরবরাহ করে থাকেন। 

বর্তমানে হাটে আমড়া পাইকারিভাবে মন প্রতি ৯০০ থেকে ১১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতিবছর আমড়ার এ মৌসুমে ঢাকা, কুমিল্লা, চাঁদপুর, সিলেটসহ দেশের বিভিন্ন স্থানের এক শ্রেণির পাইকাররা এখান থেকে হাজার হাজার মন আমড়া ক্রয় করে লঞ্চ, ট্রাক ও পিকআপযোগে নিয়ে যায়। অপরপক্ষে স্থানীয় পর্যায়ে এক শ্রেণির ব্যবসায়ীরাও প্রতিদিন শত শত মন আমড়া এখান থেকে লঞ্চ, ট্রলার ও ট্রাক যোগে দেশের বিভিন্ন স্থানে চালান দেয়।

এক্ষেত্রে বিগত বছরগুলোতে যোগাযোগ ব্যবস্থার সমস্যার কারণে রাজধানী ঢাকা, চট্টগ্রাম, চাঁদপুর, কুমিল্লাসহ আশেপাশের এলাকায় আমড়া পৌছাতে ১২ থেকে ১৬ ঘন্টা পর্যন্ত লেগে যেত। এতে করে আমড়া মোকামে পৌছানোর পূর্বে পথেই অনেকটা পচে নষ্ট হয়ে যেত। ফলে ব্যবসায়ীরা আর্থিকভাবে চরম লোকসানে পড়ত। এর প্রভাব গিয়ে পড়ত চাষীদের উপর তারাও আমড়ার ন্যায্যমূল্য পাওয়া থেকে বঞ্চিত হত। পদ্মা সেতু চালু হওয়ায় এখানকার ব্যবসায়ী ও চাষীরা বেশ আনন্দিত। সড়ক পথে এখানকার আমড়া রাজধানী ঢাকাসহ আশেপাশের এলাকায় ৩ থেকে ৪ ঘন্টার মধ্যে পৌছে যাচ্ছে। ফলে সঠিক সময়ে আমড়া বিক্রি করে ব্যবসায়ীরাও ভালো দাম পাচ্ছেন।

কুড়িয়ানা ইউনিয়নের আদমকাঠি গ্রামের বাগান মালিক ও আমড়া চাষী অতনু হালদার তনু জানান, এ বছর চৈত্র বৈশাখ মাসে বৃষ্টি কম হওয়ায় গাছের অনেক মুকুল ঝড়ে গেছে ফলে গত বছরের তুলনায় এবছর আমড়ার ফলন কিছুটা কম হয়েছে। তবে ফলন কম হলেও আমড়ার সাইজ বেশ বড় হওয়ায় ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে ভালো দাম পাচ্ছি।

এ ব্যাপারে আদমকাঠি হাটের ব্যবসায়ী মো. কবির হোসেন জানান, আগে হাট থেকে আমড়া ক্রয় করে লঞ্চযোগে পরের দিন রাজধানী ঢাকায় পৌছাতাম অথবা সড়ক পথে গেলে মাওয়া ফেরিঘাটে আটকে থেকে সেখানেই অনেক আমড়া পচে নষ্ট হয়ে যেত। ঠিক সময়ে বাজার ধরতে না পারায় উপযুক্ত দাম না পেয়ে লোকসান গুনতে হত। পদ্মা সেতুর কল্যানে দিনের আমড়া কিনে সেদিনই ঢাকায় পৌছাতে পেরে ভালো দাম পাচ্ছি।

আটঘর কুড়িয়ানা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মিঠুন হালদার জানান, পদ্মা সেতু চালু হওয়ায় গোটা দক্ষিণাঞ্চলের যোগাযোগ ও ব্যবসায়ের যে আমূল পরিবর্তন  এসেছে তার প্রভাব এই এলাকাতেও পড়েছে। সেতুর কল্যানে এই এলাকার আমড়া ও পেয়ারা চাষী এবং ব্যবসায়ীরা বেশ লাভবান হচ্ছে। কুড়িয়ানা বাজার হতে আদমকাঠি হয়ে ভীমরুলী পর্যন্ত তিন কিলোমিটার রাস্তা ও আদমকাঠির পুলটি সংস্কার করা হলে তারা আদমকাঠিতে বসেই ট্রাক বা পিকআপে আমড়া লোড করতে পারবে এত করে তাদের পরিবহন খরচ অনেকটা কমে যাবে।

এ ব্যাপারে উপজেলা কৃষি অফিসার চপল কৃষ্ণ নাথ বলেন, কৃষি অধিদপ্তরের পক্ষ হতে উপজেলা কৃষি অফিসের মাধ্যমে এখানকার আমড়া চাষীদের নিয়মিত প্রশিক্ষণ ও পরামর্শ দেয়া হচ্ছে। আমড়া গাছের রোগ ও পোকা নিধনের উপর কৃষি অধিদপ্তরের বিশেষজ্ঞ বিজ্ঞানীদের দিয়ে আমড়ার বাগানে চাষীদের প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে।

নেছারাবাদের ইউএনও মো. মাহবুব উল্লাহ মজুমদার বলেন, ব্যবসাসমৃদ্ধ আটঘর কুড়িয়ানা ইউনিয়নের অধিকাংশ রাস্তা পুল সংস্কার করা হয়েছে, বাকিগুলো অতিশীঘ্রই সংস্কারের উদ্যোগে নেয়া হবে।


আরও খবর



মোদিকে ‘ফ্যাসিবাদী’ বলছে গুগলের এআই, সরকারের প্রতিবাদ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ডেস্ক

Image

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সরকারের নীতিগুলোকে ফ্যাসিবাদী বলে বর্ণনা করেছে গুগলের এআই প্ল্যাটফর্ম জেমিনি। এ নিয়ে আপত্তি জানিয়েছে ভারত সরকার। একজন মন্ত্রী অভিযোগ করেছেন, গুগল তাঁর দেশের প্রযুক্তি আইনের লঙ্ঘন করছে।

সাংবাদিক অর্ণব রায় গত সপ্তাহে জেমিনির কাছে প্রশ্ন রেখেছিলেন যে, মোদি ফ্যাসিবাদী কি না। তিনি উত্তর পেয়েছিলেন, মোদি এমন কিছু নীতি বাস্তবায়ন করেছেন যেগুলোকে কিছু বিশেষজ্ঞ ফ্যাসিবাদী হিসেবে চিহ্নিত করেছেন।

জেমিনি বলেছে, এভাবে চরিত্রায়ণের কারণ হলো-ক্ষমতাসীন বিজেপির হিন্দু জাতীয়তাবাদী আদর্শ, ভিন্নমত দমন এবং ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের বিরুদ্ধে সহিংসতার ব্যবহার।

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির বিষয়ে জানতে চাইলে গুগলের জেমিনি তাঁদের বিষয়ে অনেক সদয় উত্তর পেয়েছেন সাংবাদিক অর্ণব।

ট্রাম্পের ক্ষেত্রে জবাবটি ছিল-দ্রুত পরিবর্তনশীল তথ্যের এই সময়ে নির্বাচন একটি জটিল বিষয়। সবচেয়ে সঠিক তথ্য পেতে গুগলে অনুসন্ধান করুন। আর জেলেনস্কির ক্ষেত্রে বলেছে-এটি অত্যন্ত জটিল এবং বিতর্কের বিষয়। এর কোনো সহজ উত্তর নেই। এই বিষয়ে সঠিকভাবে জানতে হলে বিভিন্ন দৃষ্টিকোণ থেকে এটি বিবেচনা করা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

সাংবাদিক অর্ণব যখন এক্স প্ল্যাটফর্মে এই জবাবের স্ক্রিনশটগুলো পোস্ট করেন, তখন মিডিয়ার সংশ্লিষ্ট এক ব্যক্তি মোদিকে নিয়ে জেমিনির এমন জবাবে এতটাই বিরক্ত হয়েছিলেন যে তিনি এটি রিপোস্ট করে ভারতের কেন্দ্রীয় জুনিয়র তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী রাজীব চন্দ্রশেখরকে নজরে নেওয়ার অনুরোধ জানান।

মন্ত্রী চন্দ্রশেখর তাৎক্ষণিক গুগলকে ভারতের তথ্যপ্রযুক্তি আইন লঙ্ঘনের জন্য অভিযুক্ত করেন। তিনি এক্স প্ল্যাটফর্মে লেখেন, এআই প্ল্যাটফর্মগুলোর অনির্ভরযোগ্যতাকে ভারতীয় আইন থেকে অব্যাহতি পেতে অজুহাত হিসেবে ব্যবহার করা যাবে না।

তিনি লেখেন, সরকার আগেও এটি বলেছে-গুগল ইন্ডিয়ার দৃষ্টি আকর্ষণের জন্য আমি আবারও বলছি ... অনির্ভরযোগ্য প্ল্যাটফর্ম/অ্যালগরিদম/মডেল নিয়ে আমাদের ডিজিটাল নাগরিকদের (নাগরিকদের) ওপর পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা যাবে না ...দুঃখিত অনির্ভরযোগ্যতা আইন থেকে রেহাই পাওয়ার অজুহাত হতে পারে না।

এর জবাবে গুগল একটি বিবৃতি দিয়েছেন। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, তারা এই সমস্যার সমাধান করেছে এবং সিস্টেমের উন্নয়নে কাজ করছে। বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে,  জেমিনি একটি সৃজনশীলতা এবং উৎপাদনশীলতার হাতিয়ার হিসেবে তৈরি করা হয়েছে। এটি সব সময় নির্ভরযোগ্য নাও হতে পারে, বিশেষ করে যখন এটি বর্তমান ঘটনা, রাজনৈতিক বিষয় বা পরিবর্তনশীল সংবাদ সম্পর্কে কিছু প্রম্পটের প্রতিক্রিয়া জানাতে আসে।

গত সপ্তাহে এক্স প্ল্যাটফর্ম থেকে বলা হয়েছে, সরকার উত্তর ভারতের কৃষকদের আন্দোলনে সমর্থনে করা পোস্টগুলো সরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে। এক্স বলেছে, সরকারের আদেশ তারা মেনে নিয়েছে। কিন্তু এমন নির্দেশ মতপ্রকাশের স্বাধীনতাকে খর্ব করে, তাই তারা ভারত সরকারের সঙ্গে একমত নয়।


আরও খবর



নিষেধাজ্ঞার মধ্যেই বাংলাদেশে পেঁয়াজ রপ্তানির অনুমতি দিলো ভারত

প্রকাশিত:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | অনলাইন সংস্করণ
অর্থ ও বাণিজ্য ডেস্ক

Image

পেঁয়াজের ওপর রপ্তানি নিষেধাজ্ঞার মধ্যে ব্যতিক্রম সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে ভারত সরকার। কয়েকটি দেশে নির্দিষ্ট পরিমাণে পণ্যটি রপ্তানির অনুমোদন দিয়েছে তারা।

নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বাংলাদেশ, মরিশাস, বাহরাইন ও ভুটানের কাছে মোট ৫৪ হাজার ৭৬০ টন পেঁয়াজ বিক্রি করবে দেশটি। ভারতীয় শীর্ষস্থানীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

এতে বলা হয়, বার্তা সংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়াকে (পিটিআই) ভোক্তা বিষয়ক সচিব রোহিত কুমার সিং বলেছেন, বাংলাদেশে ৫০,০০০ টন পেঁয়াজ রপ্তানির অনুমতি দিয়েছি আমরা। এছাড়া মরিশাসে ১২০০, বাহরাইনে ৩০০০ এবং ভুটানের কাছে ৫৬০ টন বিক্রির অনুমোদন দেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, আগামী ৩১ মার্চের মধ্যে বেসরকারি বাণিজ্যের মাধ্যমে পেঁয়াজের এ চালান পাঠানো হবে। ইতোমধ্যে এ বিষয়ে কাজ শুরু হয়েছে। শিগগিরই তা কার্যকর হবে। ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুপারিশে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

কয়েকটি সূত্রে জানা গেছে, ভারতের কাছে পেঁয়াজ চেয়ে কিছু দেশ অনুরোধ জানিয়েছিল। নরেন্দ্র মোদি সরকারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণায়ল বিষয়টি মূল্যায়ন করেছে। অবশেষে মসলা জাতীয় পণ্যটি রপ্তানির অনুমতি দেয়া হয়েছে।

এর আগে আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত পেঁয়াজ রপ্তানি নিষিদ্ধ রেখেছিল ভারত। ২০২৩ সালের ৮ ডিসেম্বর রান্নাঘরের মুখ্য পণ্যটির চালান বন্ধ করে দেশটি। দেশের বাজারে ক্রমবর্ধমান দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে এবং অভ্যন্তরীণ মার্কেটে পর্যাপ্ত সরবরাহ নিশ্চিত করতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। 

সামনে ভারতের সাধারণ নির্বাচন। ফলে আসছে ৩১ মার্চের মধ্যে পেঁয়াজের ওপর জারি করা সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত ক্ষীণ, একরকম নেই বললেই চলে। কারণ, দেশটির শীর্ষ উৎপাদক অঞ্চল মহারাষ্ট্রে শীতকালীন মৌসুমে কৃষিজ পণ্যটির উৎপাদন কম হয়েছে।


আরও খবর



টাঙ্গাইলে ট্রেনের ইঞ্জিন বিকল, উত্তরাঞ্চলের সঙ্গে ঢাকার রেল যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জেলা প্রতিনিধি

Image

টাঙ্গাইলের বাসাইলে কমিউটার ট্রেনের ইঞ্জিন বিকল হয়েছে। এতে দুই ঘণ্টা ধরে উত্তরাঞ্চলের সঙ্গে ঢাকার ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৭টা ২০ মিনিটের দিকে উপজেলার হাবলা ইউনিয়নের সোনালিয়া দক্ষিণপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এতে যাত্রীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

মহেড়া রেল স্টেশন অফিসার সোহেল মিয়া বলেন, সকাল ৭টা ১০ মিনিটে টাঙ্গাইল স্টেশন থেকে টাঙ্গাইল কমিউটার ট্রেনটি ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে আসে। ঘটনাস্থলে এলে ট্রেনের ইঞ্জিন বিকল হয়।

টাঙ্গাইল কমিউটার ট্রেনটির পরিচালক মুহাম্মদ ওমর আলী বলেন, সকাল ৭টা ২০ মিনিটের দিকে ট্রেনটি বিকল হয়েছে। ফলে সব ট্রেনের যাতায়াত বন্ধ রয়েছে। ঢাকা থেকে রিলিফ ট্রেন এলে এরপর ট্রেনটি সরানো হলে চলাচল স্বাভাবিক হবে।


আরও খবর



পাকিস্তান জাতীয় পরিষদের নতুন স্পিকার হলেন আয়াজ সাদিক

প্রকাশিত:শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

পাকিস্তানে পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ জাতীয় পরিষদের স্পিকার নির্বাচিত হয়েছেন পাকিস্তান মুসলিম লিগ-নওয়াজের (পিএমএলএন) নেতা সরদার আয়াজ সাদিক।

শুক্রবার (০১ মার্চ) দেশটির পার্লামেন্টের জাতীয় পরিষদের স্পিকার নির্বাচিত হয়েছেন। স্পিকার নির্বাচিত হওয়ার পর আজই তিনি শপথ নিয়েছেন। তাকে শপথবাক্য পাঠ করান বিদায়ী স্পিকার রাজা পারভেজ আশরাফ।

নির্বাচনের ২১ দিন পর গতকাল বৃহস্পতিবার প্রথমবার পাকিস্তান জাতীয় পরিষদের নতুন অধিবেশন বসে। এদিন শপথ নেন দেশটির নবনির্বাচিত আইনপ্রণেতারা (এমএনএ)।

আজ দ্বিতীয় দিনের অধিবেশনে স্পিকার হিসেবে শপথ নেয়া সরদার আয়াজ সাদিক ১৯৯ ভোট পেয়ে এ পদে নির্বাচিত হয়েছে। তার প্রতিদন্দ্বী পিটিআইসমর্থিত মালিক আমির দোগার পেয়েছেন ৯১ ভোট। স্পিকার নির্বাচনে ২৯১ জন এমএনএ ভোট দেন। এর মধ্যে একটি ভোট বাতিল ঘোষিত হয়।

আয়াজ সাদিক এর আগেও দুই দফায় পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদের স্পিকার ছিলেন। এবার তিনি তৃতীয়বার এ পদে নির্বাচিত হয়েছে।


আরও খবর
আইনি লড়াইয়ে বড় জয় পেলেন ট্রাম্প

মঙ্গলবার ০৫ মার্চ ২০২৪




শহীদ মনসুর আলী মেডিকেল কলেজে ছাত্রকে গুলি করলেন শিক্ষক

প্রকাশিত:সোমবার ০৪ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ০৪ মার্চ ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জেলা প্রতিনিধি

Image

সিরাজগঞ্জের শহীদ এম মনসুর আলী মেডিকেল কলেজে আরাফাত আমিন তমাল নামে এক শিক্ষার্থীকে গুলি করেছেন কলেজের শিক্ষক ডা. রায়হান শরীফ। সোমবার (৪ মার্চ) বিকেল ৩টার দিকে মেডিকেল কলেজ ক্যাম্পাসে এ ঘটনা ঘটে।

গুলিতে আহত শিক্ষার্থী তমাল মেডিকেল কলেজটির হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। এ ঘটনায় অভিযুক্ত শিক্ষকের বিচার চেয়ে বিক্ষোভ করছেন শিক্ষার্থীরা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে পুলিশ।

অভিযুক্ত ডা. রায়হান শরীফ কলেজের কমিউনিটি মেডিসিন বিভাগের শিক্ষক। আহত আরাফাত আমিন তমাল মেডিকেল কলেজের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

বিষয়টি নিশ্চিত করে শহীদ এম মুনসুর আলী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ মো. আমিরুল হোসেন বলেন, আমি ঢাকায় আছি। ওই শিক্ষক মাঝে মধ্যেই অস্ত্র প্রদর্শন করে ক্যাম্পাসে আসেন। যতটুকু জেনেছি, আজ তিনি অসময়ে তার ক্লাস নিতে চাইলে শিক্ষার্থীরা অপারগতা জানান। এই নিয়ে বাগবিতণ্ডার একপর্যায়ে ওই শিক্ষক তমালের পায়ে গুলি করেন।

অধ্যক্ষ বলেন, এখন ওই শিক্ষার্থী শঙ্কামুক্ত আছেন এবং মনসুর আলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেই চিকিৎসা নিচ্ছেন।

এ ব্যাপারে সিরাজগঞ্জের পুলিশ সুপার (এসপি) আরিফুর রহমান মন্ডল বলেন, শিক্ষার্থীরা বলছেন এক শিক্ষক এক শিক্ষার্থীকে গুলি করেছেন। বর্তমানে সেখানে পরিস্থিতি একটু উত্তপ্ত রয়েছে। তবে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ কাজ করছে।

তিনি বলেন, ওই শিক্ষার্থীর ডান পাশের থাইয়ে (পায়ের উপরের অংশ) গুলিটি লেগেছে। তবে ওই শিক্ষার্থীর পকেটে মোবাইল থাকায় তিনি গুরুতর আহত হননি। বর্তমানে তিনি শঙ্কামুক্ত আছেন। আমরা অভিযুক্ত শিক্ষক ডা. রায়হান শরীফকে হেফাজতে নেব।


আরও খবর