আজঃ শুক্রবার ০৩ ডিসেম্বর ২০২১
শিরোনাম

শ্রীবরদীতে বিদ্যুতায়িত জিআই তারে জড়িয়ে বন্য হাতির মৃত্যু

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৯ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৯ নভেম্বর ২০২১ | ৬২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শেরপুর প্রতিনিধি:

শেরপুরের গারো পাহাড়ে বিদ্যুতায়িত জিআই তাড়ে জড়িয়ে একটি বন্য হাতি মারা গেছে। আজ ভোরে শ্রীবরদী উপজেলার মালাকুচা নেয়া বাড়ি টিলার কাছে আমির উদ্দিনের সবজি বাগানে বিদ্যুতায়িত জিআই তারের বেড়ার সাথে জড়িয়ে হাতিটি মারা যায়।

শেরপুরের গারো পাহাড়ের বন্যহাতির বিচরণ এলাকায় স্থানীয় লোকজন বনবিভাগের জবর দখলকৃত জমিতে বাড়ি-ঘর নির্মাণ এবং ধান ও সবজি বাগান করে আসছে। এসব স্থানে বনবিভাগের নির্দেশনাকে উপেক্ষা করে সবজি, ধান ক্ষেত ও বাড়ির চারপাশে বিদ্যুতায়িত জিআই তারের বেড়া দিয়েছে। এসব জিআই তারে জড়িয়ে প্রায়ই হাতির মৃত্যুর ঘটনা ঘটে আসছে।

বন কর্মকর্তাদের নানাভাবে হুমকি ও আন্দোলন করে আসছে তারা। বনবিভাগের পক্ষ থেকে বিদ্যুতায়িত জিআই তারের বেড়া তুলে নেয়ার জন্য বারবার নিষেধ করার পরও তারা তা মানছে না। একারণেই আজ মালাকুচা নেয়া বাড়ি টিলার কাছে আমির উদ্দিনের সবজি বাগানে বন্য হাতিটি বিদ্যুতায়িত জিআই তারে জড়িয়ে মারা যায়।

মৃত হাতিটির ময়না তদন্ত করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে রেঞ্জ কর্মকর্তা মো: রবিউল ইসলাম জানান।

অপরদিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিলুফা আক্তার জানান, আমরা বিষয়টি তদন্ত করছি। যারা দায়ী তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আরও খবর



টিভিতে আজকের খেলা

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৬ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ নভেম্বর ২০২১ | ৪৮৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
ক্রিকেট, ফুটবল, টেনিস লাইভ সম্প্রচার, খেলার সময়সূচী সহ কোন কোন টিভিতে কখন সম্প্রচারিত হবে

এক নজরে দেখে নিন কোন কোন টিভি চ্যানেলে আজ কোন কোন খেলা কখন সম্প্রচার করবে। ক্রিকেট, ফুটবল, টেনিস লাইভ সম্প্রচার, খেলার সময়সূচী সহ কোন কোন টিভিতে কখন সম্প্রচারিত হবে।

ক্রিকেট

জাতীয় ক্রিকেট লিগ 

ঢাকা বিভাগ-রংপুর, ইউটিউব/বিসিবি লাইভ, সকাল ৯-৩০ মি.

খুলনা-সিলেট, ইউটিউব/বিসিবি লাইভ, সকাল ৯-৩০ মি.

ঢাকা মহানগর-বরিশাল,ইউটিউব/বিসিবি লাইভ, সকাল ৯-৩০ মি.

চট্টগ্রাম-রাজশাহী, ইউটিউব/বিসিবি লাইভ, সকাল ৯-৩০ মি.

 

সৈয়দ মুশতাক আলী ট্রফি   

মহারাষ্ট্র-বিদর্ভ, স্টার স্পোর্টস ১, সকাল ৯টা

কর্ণাটক-সৌরাষ্ট্র, স্টার স্পোর্টস ১বেলা ১-৩০ মি.

 

ফুটবল

আন্তর্জাতিক প্রীতি

কাজাখস্তান-তাজিকিস্তান, সনি টেন ২, সন্ধ্যা ৭টা

বেলারুশ-জর্ডান, সনি টেন ২, রাত ১১টা

 

বিশ্বকাপ বাছাই

এশিয়া

চীন-অস্ট্রেলিয়া, টি স্পোর্টস, রাত ৯টা

ইউরোপ

ফিনল্যান্ড-ফ্রান্স, সনি টেন ১, রাত ১-৪৫ মি

ওয়েলস-বেলজিয়াম, টি স্পোর্টস ও সনি টেন ২, রাত ১-৪৫ মি

নেদারল্যান্ডস-নরওয়ে, সনি টেন ৩, রাত ১-৪৫ মি

বসনিয়া-ইউক্রেন, সনি সিক্স, রাত ১-৪৫ মি


আফ্রিকা

মিসর-গ্যাবন, ইউটিউব/ফিফাটিভি, সন্ধ্যা ৭টা

লিবিয়া-অ্যাঙ্গোলা, ইউটিউব/ফিফাটিভি, সন্ধ্যা ৭টা

মোজাম্বিক-মালাউয়ি, ইউটিউব/ফিফাটিভি, সন্ধ্যা ৭টা

আলজেরিয়া-বুরকিনা ফাসো, ইউটিউব/ফিফাটিভি, রাত ১০টা

লাইবেরিয়া-সেন্ট্রাল আফ্রিকান, ইউটিউব/ফিফাটিভি, রাত ১০টা

নাইজেরিয়া-কেপভার্দে, ইউটিউব/ফিফাটিভি, রাত ১০টা

ক্যামেরুন-আইভরিকোস্ট, ইউটিউব/ফিফাটিভি, রাত ১টা

মরক্কো-গিনি, ইউটিউব/ফিফাটিভি, রাত ১টা

তিউনিসিয়া-জাম্বিয়া, ইউটিউব/ফিফাটিভিরাত ১টা

নিউজ ট্যাগ: আজকের খেলা

আরও খবর



বসুন্ধরার এমডিকে হত্যাচেষ্টা

সাদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ মা-বাবা এলাকাবাসী

প্রকাশিত:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | ৭৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র লিমিটেডের চেয়ারম্যান সায়েম সোবহান আনভীরকে হত্যা চেষ্টাকারী সাইফুল ইসলাম সাদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ ছিলেন খোদ তার মা-বাবা এবং এলাকাবাসী। ধীরে ধীরে বখাটে ও সন্ত্রাসী কার্যকলাপে জড়িয়ে পড়ার ঘটনায় লাগাম টানতে না পেরে শেষ পর্যন্ত ছেলেকে ত্যাজ্যপুত্র ঘোষণা করেছিলেন মা-বাবা। সাদের গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামের চন্দনাইশ উপজেলার দোহাজারী পৌরসভার হাছনদন্ডী এলাকায় সরেজমিন ঘুরে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

গত রবিবার দুপুরে ওই এলাকায় গেলে তার বাবা সুজন দত্ত বলেন, বখাটে ও সন্ত্রাসী প্রকৃতির হওয়ায় অতিষ্ঠ হয়ে ছেলেকে ২০১৭ সালে ত্যাজ্য ঘোষণা করি। পরে সে মুসলমান ধর্ম গ্রহণ করে। অবশ্য পরে আবার হিন্দু ধর্মে ফেরার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু ঘরে জায়গা দেওয়া হয়নি। শুনেছি ঢাকায় গিয়ে অপরাধে জড়িয়েছে। এই বখাটে যদি কোনো অপরাধে জড়ায় তাহলে তার উপযুক্ত শাস্তি হওয়া দরকার বলেও মনে করেন সুজন দত্ত।

জানা গেছে, প্রায় চার বছর আগে সাদকে ত্যাজ্য ঘোষণা করেছিলেন তা মা-বাবা। জন্ম চন্দনাইশে হলেও তার বেড়ে ওঠা পটিয়ায়। দশম শ্রেণিতে পড়ার সময় পরিচয় হয় পটিয়ার সাংসদ হুইপ সামশুল হক ও তার ছেলে নাজমুল করিম ওরফে শারুন চৌধুরীর সঙ্গে। সাদকে মানসিকভাবে প্রস্তুত করে বসুন্ধরা গ্রুপের এমডিকে হত্যা পরিকল্পনায় যুক্ত করেন তারা। তারই অংশ হিসেবে কৌশলে দিনমজুরের ছদ্মবেশ নিয়ে বসুন্ধরার এমডি হাউসে প্রবেশ করেন সাদ। এরপর একাধিকবার চালান হত্যাচেষ্টা।

গত বৃহস্পতিবার দিনগত রাত ১টার দিকে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার সাউতুল কোরআন মাদরাসা ও এতিমখানা থেকে সাদকে আটক করে পুলিশ। বসুন্ধরার এমডিকে হত্যার পরিকল্পনায় যুক্ত সন্দেহে তাঁকে শুক্রবার ৫৪ ধারায় আদালতে সোপর্দ করা হয়। গত রবিবার আদালত তাঁকে তিন দিনের রিমান্ডে দেন। তাঁকে রিমান্ডে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করছে ভাটারা থানা পুলিশ।

চন্দনাইশে সরেজমিনে গেলে কথা হয় সাদের মা-বাবা, বন্ধু ও এলাকাবাসীর সঙ্গে। সাদের সঙ্গে হুইপ শামসুল হক কিংবা শারুন চৌধুরীর সঙ্গে যোগাযোগ হয়েছিল কি না জানতে চাইলে তার বাবা সুজন দত্ত বলেন, এই বিষয়ে আমি জানি না। সর্বশেষ যখন গ্রামে ফিরেছিল তখন তাকে ঘরে জায়গা না দেওয়ায় আমার সঙ্গে ঝগড়া করে। তবে তার ফেসবুকে কিছু ছবি দেখা গেছে, সেখানে প্রবীণ রাজনীতিবিদদের সঙ্গে তার ছবি দেখা গেছে।

তার মা রীনা বালা দে বলেন, ত্যাজ্য ঘোষণার পরও মাঝে মধ্যে গ্রামের বাড়িতে আসতো জয় (সাদের পূর্বের নাম)। সর্বশেষ পূজার সময় এসেছিল। হাতে দামি মোবাইল ফোন ও ঘড়ি দেখেছি। পোশাকও ছিল দামী। এসব দামি জিনিসপত্র কোথায় পেয়েছে তা জানতে প্রশ্ন করা হলেও জয় উত্তর দেয়নি। তিনি বলেন, জয়ের আচরণে মনে হয়েছে সে কোনো অপরাধী চক্রের সঙ্গে জড়িয়ে গেছে। ছেলেকে যারা ভুল পথে নিয়ে গেছে তাদের বিচার দাবি করেন রীনা।

সাদের প্রতিবেশী হাছনদন্ডী ব্রাইট স্টার সোসাইটির সভাপতি সুমন চন্দ্র দে বলেন, জয় মুসলমান ধর্ম গ্রহণের পর পুনরায় হিন্দু ধর্মে ফিরেছে। কিন্তু এখন শুনছি সে মুলমান হিসেবে মাদ্রাসায় পড়ছে। সর্বশেষ পূজার সময় গ্রামে এসেছিল। এই সময় ঘরে থাকতে চেয়েছিল। কিন্তু তার বাবা ঘরে জায়গা দেননি। এই কারণে আমাদের কাছে নালিশ দিয়েছিল। আমরা এই বিষয়ে সুজন দত্তের সঙ্গে কথা বলেছিলাম। তারা ত্যাজ্য ঘোষণার কাগজ দেখানোর পর তাকে ঘর ছেড়ে চলে যেতে বলি। তার স্বভাব চরিত্র ভালো ছিল না। মারধর ও ঝগড়া বিবাদ করা তার স্বভাব।

একই বিষয়ে গ্রামের বাসিন্দা নূর নবী বলেন, শুরুতে শুনেছিলাম সে মুসলমান হয়েছে। পরে তার মা তাকে হিন্দু ধর্মে ফিরিয়ে নিয়ে গেছে বলে শুনেছি। সব পাঞ্জাবিসহ অন্য কাপড় খুলে ধুতি পরে এবং মাথার চুল ফেলে দিয়ে পুনরায় হিন্দু রীতি অনুযায়ী চালচলন শুরু করে। গত মাসে পূজাও করে গেছে।

সাদের বন্ধু জনি দে বলেন, কিছুদিন আগে আমিও ঢাকায় ছিলাম। পরে গ্রামে ফিরে এসেছি। ঢাকায় থাকতে তার সঙ্গে আমার যোগাযোগ হতো। এই সময় তার আচরণে পরিবর্তন লক্ষ্য করি এবং সে যেন ভিন্ন জগতের বাসিন্দা হয়ে গেছে এমন ভাব ধরে আমার সঙ্গে। পরে রাগ করে আমি যোগাযোগ বন্ধ করে দিই।

প্রতিবেশী সুবল চন্দ্র দে বলেন, জয় দত্ত ধর্মান্তরিত হওয়ার পর তাকে পুনরায় তার মা হিন্দু ধর্মে নিয়ে আসে। সে গ্রামে এসে প্রতিবেশীদের সঙ্গে ঝগড়া ফ্যাসাদ করে। ছেলে হিসেবে ভালো না। এখন শুনছি যে নাকি হত্যাচেষ্টা মিশনে যুক্ত হয়েছিল।


আরও খবর



ট্রাক মালিকদের সঙ্গে বৈঠক করছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | ৫০৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

জ্বালানি তেলের মূল্য বাড়ার পর থেকে ধর্মঘটরত ট্রাক-কাভার্ডভ্যান মালিক-শ্রমিক প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠকে বসেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান।

সোমবার (৮ নভেম্বর) রাত সোয়া আটটায় সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এ বৈঠক শুরু হয়।

বাংলাদেশ ট্রাক-মালিক কাভার্ডভ্যান ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি রোস্তম আলীর নেতৃত্বে বৈঠকে আরও উপস্থিত রয়েছেন মালিক-শ্রমিক নেতারা।

জ্বালানি তেলের মূল্য বাড়ার প্রতিবাদে গত শুক্রবার (৫ নভেম্বর) থেকে ধর্মঘট পালন করে বাস ও লঞ্চ মালিকরা। এরপর থেকে ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান মালিকরাও ধর্মঘটের ডাক দেন। রোববার (৭ নভেম্বর) বাস ও লঞ্চের ভাড়া বাড়ানোর পর বাস ধর্মঘট প্রত্যাহার হলেও ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান ধর্মঘট এখনো চলমান। এই পরিস্থিতিতে ট্রাক মালিক ও শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে বসেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।


আরও খবর
দেশবাসীকে শপথ পড়াবেন প্রধানমন্ত্রী

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1

এএসপি হলেন ২২ পুলিশ কর্মকর্তা

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1




আজ আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৫ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৫ নভেম্বর ২০২১ | ৩১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক প্রতিরোধ দিবস আজ। ১৯৬০ সালের ২৫ নভেম্বর ক্যারিবিয়ান দেশ ডোমিনিকান রিপাবলিকের স্বৈরাচারী সরকারবিরোধী মিরাবেল ভগ্নিত্রয়কে সেনা সদস্যরা ধর্ষণ ও হত্যা করেন।

এই নির্যাতনের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক প্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য ১৯৮১ সালে লাতিন আমেরিকা ও ক্যারিবীয় নারী সম্মেলন এই হত্যাকাণ্ডকে স্মরণ করে ২৫ নভেম্বরকে নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক প্রতিরোধ দিবস ঘোষণা করে।

দিবসটি উপলক্ষে দেশের বিভিন্ন সংগঠন আজ নানা কর্মসূচি পালন করবে। নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক প্রতিরোধ দিবস উদযাপন কমিটি এবারের প্রতিপাদ্য নির্ধারণ করেছে যৌন নিপীড়নের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ। কমিটি এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে গতকাল জানিয়েছে, আজ সন্ধ্যায় ঢাকার মোহাম্মদপুরে নারী পক্ষের কার্যালয় থেকে লাঠি খেলা, স্লোগানসহ প্রতিরোধের আগুন শিরোনামে মশাল মিছিল বের করা হবে। মিছিলটি সাতমসজিদ সড়ক, বঙ্গবন্ধু সড়ক ও মানিক মিয়া এভিনিউ হয়ে সংসদ ভবনের সামনে শেষ হবে।

আরেকটি সংগঠন আমরাই পারি জোট আজ দেশজুড়ে নারী নির্যাতন প্রতিরোধে ৯টি দাবি নিয়ে মানববন্ধন কর্মসূচি পালনের পাশাপাশি জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি দেবে। আগামী ২৭ নভেম্বর ঢাকার মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর মিলনায়তনে সকাল সাড়ে ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত আমরাই পারি পারিবারিক নির্যাতন প্রতিরোধ জোট নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াও একসাথে স্লোগান সামনে রেখে জাতীয় সম্মেলনের আয়োজন করেছে।

এছাড়া আগামী রোববার সিবিসিবি সেন্টারে দেশের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে অধ্যয়নরত এবং আমরাই পারি জোটের সঙ্গে সম্পৃক্ত শতাধিক শিক্ষার্থীকে নিয়ে স্টুডেন্ট চেঞ্জমেকার সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।


আরও খবর
দেশবাসীকে শপথ পড়াবেন প্রধানমন্ত্রী

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1

এএসপি হলেন ২২ পুলিশ কর্মকর্তা

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1




নতুন শিক্ষা কারিকুলাম করা হবে : মহিবুল হাসান

প্রকাশিত:বুধবার ১৭ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ নভেম্বর ২০২১ | ৪৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

এসএসসি পরীক্ষার পর নতুন শিক্ষা কারিকুলাম করা হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী। বুধবার দুপুরে নেত্রকোনায় শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কার্যক্রম পরিদর্শনে এসে তিনি এ কথা জানান।

শিক্ষা উপমন্ত্রী বলেন, করোনার সংক্রমণের কারণে আমাদের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখতে হয়েছে। এ সময়ে শিক্ষাঙ্গনে ছিল মারাত্মক প্রতিবন্ধকতা। শিক্ষার্থীদের ওপর বিশেষ মানসিক চাপ তৈরি হয়েছে। তাদের ক্ষতিটা যাতে দ্রুত পুষিয়ে নিতে পারি সেই চেষ্টা করা হচ্ছে। সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে সশরীরে এসএসসি পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে। এইচএসসি পরীক্ষাও একইভাবে নেওয়া হবে। আগামী বছরের কারিকুলাম নিয়ে যেটা আলোচনা হচ্ছে সেটা এসএসসি পরীক্ষাটা সম্পন্ন করার পর আমরা সবার সঙ্গে বসে একটা পরিকল্পনা করব।

মহিবুল হাসান চৌধুরী বলেন, কারিকুলামের একটা রূপরেখা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় আমরা সেটা নিশ্চিত করেছি। আমরা মাঝপথ থেকে ভিন্ন পরিকল্পনা বা অন্য কিছু করবার এখানে সম্ভব হবে না। তাই নতুন যে আমাদের শিক্ষাক্রমের রূপরেখা সেটাকে মাথায় রেখেই আমরা আগামী দিনগুলোতে আমাদের সিলেবাস এবং পাঠ্যসূচি, বইপুস্তক নির্ধারণ করব। 


আরও খবর
এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু আজ

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1