আজঃ মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২
শিরোনাম

রংপুর বিভাগীয় প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২১ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২১ জুন ২০২২ | ৩৩০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রংপুর বিভাগীয় প্রাণিসম্পদ দফতরের পরিচালক ওয়ালিউর রহমান আকন্দের (৫৫) গলায় গামছা পেঁচানো ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (২১ জুন) দুপুরে নগরীর ষ্টেশন রোডের অফিস সংলগ্ন জেলা প্রাণিসম্পদ কার্যালয়ের তৃতীয় তলার বাথরুম থেকে তার লাশ উদ্ধার করে।

পরিচালক ওয়ালিউর রহমান আকন্দের বাড়ি গাইবান্ধার সাদুল্যাপুর উপজেলায়। তার স্ত্রী ও দুই সন্তান বগুড়ায় থাকেন। চাকরির কারণে তিনি তার দফতরের পাশে জেলা প্রাণিসম্পদ কার্যালয়ের তৃতীয় তলার একটি রুমে থাকতেন।

বিভাগীয় প্রাণিসম্পদ দফতরের অফিস সহায়ক বদিউজ্জামান জানান, মঙ্গলবার (২১ জুন) সকালে স্যারের দেরি দেখে তাকে ডাকতে যাই। এ সময় দরজা খোলা অবস্থায় ভেতরে ঢুকে বাথ রুমে ঝর্ণার সঙ্গে গামছা পেঁচানো ঝুলন্ত লাশ দেখে চিৎকার করলে অন্যরা ছুটে এসে পুলিশে খবর দেন।

রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপপুলিশ কমিশনার (অপরাধ) আবু মারুফ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, আজ মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়। তার মৃত্যুর কারণ উত্ঘাটনে পুলিশ কাজ করছে।


আরও খবর



ভালোবাসার জন্য একটা জীবন যথেষ্ট নয়: পরীমনি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৬ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৬ জুন ২০২২ | ৩২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পরীমনির প্রেম-ভালোবাসার অনুভূতি উপচে পড়ছে। এ অভিনেত্রীর ভাষ্য ভালোবাসার জন্য একটা জীবন যথেষ্ট নয়। স্বামী শরিফুল রাজকে হৃদয় নিংড়িয়ে সবটুকু ভালোবাসা দিতে এ জীবন ফুরিয়ে যাবে। কিন্তু ভালোবাসা শেষ হবে না। ঠিক যেন বিখ্যাত ওই গানটির মতো  ভালোবাসা যত বড় জীবন তত বড় নয় 

মূলত মা হলে চলার প্রতিটি মুহূর্ত দারুণভাবে অনুভব করছেন পরীমনি। প্রতিটা মুহূর্তই তার কাছে ঐশ্বরিক লাগছে। আর সেসব অনুভূতিতে পাশে পাচ্ছেন রাজকে। অভিনয়, ডাবিং, অনুষ্ঠানে যাওয়া থেকে শুরু করে সব ধরনের কাজ বন্ধ রেখে শুধু অনাগত সন্তানের অপেক্ষায় প্রহর গুনছেন পরী।  যেখানে স্বামী রাজ হয়ে উঠেছেন নিরাপদ স্থল। তাই তো পরীর আক্ষেপ রাজের সঙ্গে কেন ছোটবেলায় দেখা হলো না তার!

এক ভারতীয় গণমাধ্যমে সাক্ষাৎকারে সে আক্ষেপের কথাই জানালেন এ চিত্রনায়িকা। রাজের বিষয়ে বললেন, ছোটবেলায় দেখা হলে আরও বেশি করে পেতাম মানুষটাকে। ভালোবাসার জন্য এই এক জীবন কখনও কখনও যথেষ্ট মনে হয় না। মন আরও চায়। আমার আর রাজের প্রেম জমে গেছে। সারাক্ষণ রাজ যত্ন নিচ্ছে আমার। পছন্দের নানা ধরনের ডিশ নিয়মিতই রান্না করে খাওয়াচ্ছে। রাজ বাসায় থাকলে কিছুক্ষণ পর পরই আমার পেটে হাত দিয়ে বাবা,বাবা বলে ডাকে। আমার সন্তান হয়তো বুঝতে পারে। কারণ রাজ ডাকলেই পেটের মধ্যে নড়াচড়া টের পাই। অনাগত সন্তানের কথা মনে করে মাঝে মাঝেই আনন্দে আত্মহারা হয়ে যাই। এ যেন এক ভীষণ সুখের সময় পার করছি আমরা দুজনে।


শুধু গণমাধ্যমকেই নয়; রাজকে ঘিরে পরীমনি তার ফেসবুকে সয়লাব। পরীমনির ফেসবুক পেজ কিংবা অ্যাকাউন্টে সব খানে নিজের অনাগত সন্তান আর রাজকে নিয়ে চর্চা। রাজকে উদ্দেশ্য করে তার ভালোবাসার বন্দনা থাকে প্রায় সব পোস্টেই। এ নিয়ে নায়িকা বলেন, রাজের প্রতি আমার আবেগ একদম খাঁটি। ব্যক্তিগত জীবনের সব আবেগের কথাই ফেসবুকে ফুটিয়ে তোলেন পরীমনি।  অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবরটাও ভক্তদের সঙ্গে শেয়ার করতে গিয়ে আবেগী হয়ে পড়েন এ নায়িকা। মা হতে চলার খবর শুনে ওই মুহূর্তের অনুভূতির কথা জানিয়ে পরীমনি বলেন, তখন মনে হচ্ছিল আমার দুটো ডানা গজিয়েছে। আমি সত্যি সত্যি পরী হয়ে গেছি। আমি উড়ে যাচ্ছি সাদা মেঘের পালের সঙ্গে। পৃথিবীটাকে এক টুকরো স্বর্গ মনে হচ্ছিল তখন!

প্রসঙ্গত, অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পরও দুটি সিনেমার কাজ শেষ করেছেন পরীমনি। এগুলো হলো মাকাগজের বউ। এ ছাড়া তার হাতে রয়েছে প্রীতিলতা সিনেমার কাজ। সন্তান হওয়ার পর এই সিনেমাটি সম্পন্ন করবেন নায়িকা।


আরও খবর



বিতর্কে যেসব বলিউড তারকা

প্রকাশিত:বুধবার ১৫ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১৫ জুন ২০২২ | ৪১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পাপারাজ্জি থেকে শুরু করে ভক্ত, বলিউড তারকাদের পোশাকের ওপর নজর সবারই। তবে এখন শুধু পত্রিকায় ফটোশ্যুটের মাধ্যমেই নয়, নেটমাধ্যমের সুবাদে তারকারা খুব সহজেই দর্শকদের কাছে পৌঁছে যান। তাদের ছবি এবং ভিডিও অহরই শেয়ার হয় নেটদুনিয়ায়। কখনো দর্শকেরা তারকাদের ভূয়সী প্রশংসা করেন। আবার কখনো তাদের পোশাক ও শরীরের গড়ন নিয়ে নেতিবাচক মন্তব্যও করে ফেলেন অনেকে। রণবীর সিংহ, করণ জোহর রংচঙে জামাকাপড় পরার জন্য সবসময়ই পাপারাজ্জিদের আলোচনার বিষয় হয়ে যায়। এমনকি, বলিউড এবং টেলিভিশন ধারাবাহিকের অভিনেত্রীরাও মন্তব্য থেকে রেহাই পান না।