আজঃ মঙ্গলবার ০৫ মার্চ ২০২৪
শিরোনাম

রাজবাড়ীতে শিশু অপহরণের পর হত্যা, তিনজনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
শাকিল মোল্লা, রাজবাড়ী

Image

রাজবাড়ীতে অপহরণের পর রিফাদ হত্যায় তিন আসামীকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে আদালত। প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে।

বুধবার বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে আসামিদের উপস্থিততে রাজবাড়ী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের বিচারক মোঃ সাব্বির ফয়েজ এ রায় দেন।

দন্ডপ্রাপ্ত আসামীরা হলো, রাজবাড়ী জেলা শহরের সজ্জনকান্দা এলাকার রক্তিম, রাসেল ও মিজানপুর ইউনিয়নের চরনারায়নপুর এলাকার রনি।

২০১৩ সালের ৬ নভেম্বর তারিখে দন্ডপ্রাপ্তরা রিফাতকে স্কুল থেকে ফেরার পথে অপহরণ করে। পরে রিফাতের পরিবারের কাছে ১৫ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। মুক্তিপণ না পাওয়ায় রিফাতকে হত্যা করে। ঘটনার ৯ দিন পর রাজবাড়ী সদর থানার পুলিশ সজ্জনকান্দা টিএন্ডটি পাড়ার জনৈক ভৈরব শীলের বাড়ির সেপটিক ট্যাংক থেকে শিশু রিফাতের লাশ উদ্ধার করে।

হত্যা ও অপহরণের ঘটনায় নিহত শিশুর বাবা মোক্তার আলী বাদী হয়ে রাজবাড়ী সদর থানায় হত্যা এবং নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতে অপহরণ ও মুক্তিপণের পৃথক দুটি মামলা করেন।

রাজবাড়ীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের পাবলিক প্রসিকিউটর এ্যাডভোকেট সাইফুল ইসলাম বলেন, শিশু রিফাদকে অপহরণের পর নির্মমভাবে হত্যা করেছে। দীর্ঘ শুনানী শেষে বিচারক রায় প্রদান করেছেন। এ রায়ে বিচারপ্রার্থী সঠিক বিচার পেয়েছে।


আরও খবর



হলিউডে পা রাখতে চলেছেন ওবামার মেয়ে মালিয়া

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
বিনোদন ডেস্ক

Image

আমেরিকার সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার মেয়ে মালিয়া এবার হলিউডে পা রাখতে চলেছেন। দীর্ঘদিন ধরে অভিনয়ের সঙ্গে জড়িত থাকলেও এবার নির্মাতা হিসেবে হলিউডে নিজের অভিষেক ঘটাতে চলেছেন মালিয়া। যার জন্য নিজের নাম থেকে ওবামা পদবিও ছেঁটে ফেলেছেন তিনি!

বারাক ওবামা ও মিশেল ওবামার বড় মেয়ে মালিয়া সম্প্রতি তার বিখ্যাত পারিবারিক পদবি ত্যাগ করেছেন। ২৫ বছর বয়সী এই অভিনেত্রী চলচ্চিত্র নির্মাতা হিসেবে হলিউডে অভিষেক করার আগে নিজের নামের পরিবর্তন করলেন।

উদীয়মান পরিচালক সানড্যান্স ফিল্ম ফেস্টিভালে তার স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র দ্য হার্ট ইন ইউটা-এর প্রিমিয়ারের আগে নতুন নামটি শেয়ার করেন। হার্ভার্ড গ্র্যাজুয়েট মালিয়া গত জানুয়ারিতেই তার পদবি ওবামা তুলে নিয়েছেন। সানড্যান্স ইনস্টিটিউটের মিট দি আর্টিস্ট স্পটলাইট ভিডিওতে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্টের মেয়ের নাম মালিয়া অ্যান বলে উল্লেখ করা হয়েছে।


আরও খবর



মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতকে তলব করে কড়া প্রতিবাদ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

মিয়ানমার থেকে ছোড়া মর্টারশেলের আঘাতে বাংলাদেশে দুজনের মৃত্যু এবং সীমান্তে চলমান পরিস্থিতি নিয়ে ঢাকায় নিযুক্ত দেশটির রাষ্ট্রদূত অং কিউ মোয়েকে তলব করে কড়া প্রতিবাদ জানানো হয়েছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মিয়ানমার অনুবিভাগের মহাপরিচালক মিয়া মুহাম্মদ মাইনুল কবির মঙ্গলবার (০৬ ফেব্রুয়ারি) তাকে এই প্রতিবাদ জানান।

এর আগে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতকে তলব করা হয়। পরে বেলা ১১টায় সেখানে আসেন রাষ্ট্রদূত।

সীমান্তের ওপারে মিয়ানমারের বিদ্রোহী গোষ্ঠী আরাকান আর্মির সঙ্গে দেশটির সরকারি বাহিনীর সঙ্গে সংঘর্ষ চলছে। সীমান্তের ওপার থেকে মর্টারশেলের আঘাতে বাংলাদেশে দুজন নিহত হয়েছেন। নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউপির ৪ নম্বর ওয়ার্ডের জলপাইতলি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

উদ্ভূত পরিস্থিতির মধ্যে মিয়ানমার সীমান্ত বাহিনীর ২২৯ জন সদস্য পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছেন। তাদের নিরস্ত্র করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। বান্দরবানে আশ্রয় নেওয়া ওই সীমান্তরক্ষীদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমার এরই মধ্যে বাংলাদেশের সঙ্গে যোগাযোগ শুরু করেছে।

সোমবার (০৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী হাছান মাহমুদ তার দপ্তরে সাংবাদিকদের বলেন, ‌‌মিয়ানমারের সঙ্গে বাংলাদেশের নিরবচ্ছিন্ন যোগাযোগ আছে। মিয়ানমারের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। তারা তাদের নাগরিকদের ফিরিয়ে নিয়ে যাবেন। তাদের সীমান্তরক্ষীদেরও ফিরিয়ে নিয়ে যাবেন।

সীমান্ত পরিস্থিতি এবং পক্ষ বা জাতিসংঘের যুক্ততা নিয়ে জানতে চাইলে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, আমাদের সীমান্ত যথেষ্ট সুরক্ষিত আছে। তারা পালিয়ে আসায় তাদের আশ্রয় দিয়েছি। যেহেতু দুই দেশের মধ্যে আলাপ-আলোচনা চলছে, সেহেতু তৃতীয় পক্ষকে এখানে জড়িত করার কোনো প্রশ্ন নেই।


আরও খবর



আবু ধাবিতে মন্দির উদ্বোধন করবেন নরেন্দ্র মোদি

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সংযুক্ত আরব আমিরাতের (ইউএই) রাজধানী আবু ধাবিতে একটি বিশাল হিন্দু মন্দির উদ্বোধন করবেন।

আবু ধাবির বিএপিএস হিন্দু মন্দিরটি সংযুক্ত আরব আমিরাত সরকার কর্তৃক দান করা ২৭ একর জায়গা জুড়ে নির্মাণ করা হয়েছে।

২০১৮ সালে মোদির সংযুক্ত আরব আমিরাত সফরের সময় এটি নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছিল ভারত সরকার।

বিশ্লেষকরা বলছেন, দুই মাসের মধ্যে ভারতে হতে যাওয়া সাধারণ নির্বাচনের আগে মোদির এই মন্দিরের উদ্বোধন বিজেপি সরকারের হিন্দু জাতীয়তাবাদী অ্যাজেন্ডা বৃদ্ধি করবে।

উত্তর ভারতীয় শহর অযোধ্যায় হিন্দু দেবতা রামের একটি বিশাল মন্দির উদ্বোধন করার কয়েক সপ্তাহ পরেই নতুন এই মন্দিরটি উদ্বোধন করা হচ্ছে।

দেবতা রামের মন্দিরটি ১৯৯২ সালে হিন্দু জনতার ভেঙে ফেলা ১৬ শতকের বাবরি মসজিদের জায়গার উপর নির্মাণ করা হয়েছে। মসজিদটি ভাঙায় দাঙ্গা শুরু হয়েছিল এবং এতে প্রায় ২ হাজার মানুষ নিহত হয়েছিল।

আবু ধাবির মন্দিরটি বিএপিএস স্বামীনারায়ণ সংস্থা দ্বারা পরিচালিত হয়। সংস্থাটি নিজেকে 'আধ্যাত্মিক, স্বেচ্ছাসেবক দ্বারা পরিচালিত সংঘ' বলে দাবি করে। এটির লক্ষ্য হল 'বিশ্বাস, সেবা এবং বৈশ্বিক সম্প্রীতির হিন্দু মূল্যবোধকে লালন করা।'

সংস্থাটির সদর দফতর নরেন্দ্র মোদির নিজ রাজ্য গুজরাটে।

আরব আমিরাতে কয়েক দশক ধরেই মন্দির থাকলেও বলা হচ্ছে, এটিই প্রথম মন্দির যেটি ঐতিহ্যবাহী কৌশল ব্যবহার করে নির্মাণ করা হয়েছে।

মন্দিরটি রাজস্থানের গোলাপি বেলেপাথর এবং সাদা ইতালীয় মার্বেল দিয়ে তৈরি করা হয়েছে। মন্দিরটি ভারতে খোদাই করে দুবাইতে এনে যুক্ত করা হয়েছে।

ভারত এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতের মধ্যে ভালো সম্পর্ক রয়েছে এবং ৮৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যে যুক্ত আছে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের সব থেকে বেশী প্রবাসী ভারতীয় এবং দেশটিতে হাজার হাজার হিন্দু বসবাস করে।

বিশ্ব নেতাদের ফোরাম ওয়ার্ল্ড গভার্নমেন্টস সামিটে অংশ নিতে নরেন্দ্র মোদি বর্তমানে সংযুক্ত আরব আমিরাতে অবস্থান করছেন।

সফরের প্রথম দিন মঙ্গলবারে (১৩ ফেব্রুয়ারি) তিনি সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাষ্ট্রপতির সাথে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেন।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, দুই দেশ একটি দ্বিপাক্ষিক বিনিয়োগ চুক্তি এবং একটি বড় অর্থনৈতিক অংশীদারিত্ব চুক্তিতে স্বাক্ষর করেছে।

চুক্তিগুলো দুই দেশের মধ্যে সুরক্ষা, বাণিজ্য এবং আধুনিক অবকাঠামোগত উন্নয়নে পারস্পরিক সহযোগিতা বাড়ানোর উদ্দেশ্যে করা হয়েছে।

মোদি আবু ধাবিতে ভারতীয় সম্প্রদায়ের এক সমাবেশে ভাষণ দিয়েছেন। সেখানে তিনি মন্দিরের জন্য জমি বরাদ্দ দেওয়ায় সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাষ্ট্রপতিকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।


আরও খবর
আইনি লড়াইয়ে বড় জয় পেলেন ট্রাম্প

মঙ্গলবার ০৫ মার্চ ২০২৪




শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যৌন নিপীড়নে তদন্তের নামে আর ছাড় নয় : শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত:সোমবার ০৪ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ০৪ মার্চ ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষক-কর্মচারীদের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানি ও নিপীড়নের অভিযোগ উঠলে অভ্যন্তরীণ কমিটি গঠন করে তদন্তের নামে আর কোনো ছাড় দেওয়া যাবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল। এক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানে অভ্যন্তরীণ কমিটি করে তদন্ত হোক আর না হোক, অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ফৌজদারি আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশনা দিয়েছেন তিনি।

রোববার (৩ মার্চ) রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে ডিসি সম্মেলনের প্রথম দিনের তৃতীয় অধিবেশন শেষে ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ নির্দেশনা দেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে যৌন হয়রানি-নিপীড়ন নিয়ে উচ্চ আদালতের স্পষ্ট নির্দেশনা রয়েছে। প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে নিপীড়ন নিরোধে কমিটি করতে হবে। অনেক প্রতিষ্ঠানে সেটা আছেও। কিন্তু কিছু ক্ষেত্রে আমরা দেখেছি, স্কুল-কলেজে কারও বিরুদ্ধে অপরাধমূলক কাজে জড়ানোর অভিযোগ উঠলে অভ্যন্তরীণ কমিটি করা হয়। সেখানে তদন্ত চলছে বলে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী অভিযুক্তের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নিতে পারে না। এ ধরনের ঘটনা হরহামেশা ঘটছে।

এরপর তিনি বলেন, প্রতিষ্ঠানের তদন্ত কমিটি তদন্ত করুক বা না করুক, দেশের প্রচলিত আইন অনুযায়ী আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে ব্যবস্থা নিতে হবে। এক্ষেত্রে এখন থেকে আর কোনো বাধা বা অজুহাত চলবে না।

ডিসি সম্মেলনের প্রথম দিনের তৃতীয় অধিবেশনে শিক্ষামন্ত্রী, মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা, কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী, সচিবসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা অংশ নেন। বিকেল সোয়া ৫টা থেকে সোয়া ৬টা পর্যন্ত এ অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয়। এরপর অধিবেশন শেষে বেরিয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী রুমানা আলী।

মহিবুল হাসান চৌধুরী বলেন, আমরা ডিসিদের জানিয়েছি, দক্ষতামূলক শিক্ষাব্যবস্থা প্রতিষ্ঠার কাজ চলছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা বাস্তবায়নে আমরা কাজ করছি। ডিসিরা সবাই বলেছেন যে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে যেভাবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে অবকাঠামো সৃষ্টি হচ্ছে, শিক্ষার্থীরা শিক্ষা উপকরণ পাচ্ছে, তা অভূতপূর্ব। শিক্ষায় সরকারের এমন বিনিয়োগ ও প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকলে বড় সফলতা আসবে বলেও তারা মতামত দিয়েছেন।

অধিবেশন ও ব্রিফিংয়ে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী রুমানা আলী, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব সোলেমান খান, মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষা বিভাগের সচিব ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব ফরিদ আহাম্মদ, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক নেহাল আহমেদ।


আরও খবর



আমতলীতে পরিবহনের চাপায় মোটরসাইকেল চালক নিহত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
উপজেলা প্রতিনিধি

Image

বরগুনার আমতলীতে ইসলাম পরিবহন বাসের চাপায় মোটরসাইকেল চালক আলী হাওলাদার (১৮) নামের এক যুবক নিহত হয়েছে।

আমতলী-কুয়াকাটা সড়কের সৈকত ফিলিং ষ্টেশনের সামনে মঙ্গলবার সকাল সোয়া ১০ টার দিকে। পুলিশ ঘাতক বাস, মোটরসাইকেল ও নিহতের মরদেহ উদ্ধার করেছে। ঘাতক বাসের চালক ও হেল্পার পালিয়ে গেছে।

জানাগেছে, আমতলী পৌরসভার লোচা গ্রামের মোশাররফ হাওলাদারের ছেলে আলী হাওলাদার (১৮) বাড়ী থেকে নিজের মোটরসাইকেল চালিয়ে শহরের একটি দোকানে যাচ্ছিল। একই দিক থেকে ঢাকাগামী ইসলাম পরিবহন বাস (ঢাকা মেট্রো ব-১৩-২০৪৬) আসতেছিল। পথিমধ্যে সড়কের সৈকত ফিলিং ষ্টেশন দ্রুত অতিক্রম করতে গিয়ে ঘাতক বাসটি পিছন থেকে মোটরসাইকেলটিকে চাপায় দেয়। এতে ঘটনাস্থলে মোটরসাইকেল চালক আলী হাওলাদার নিহত হয়।

খবর পেয়ে পুলিশ নিহত আলী হাওলাদারকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। ওই হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত্যু ঘোষণা করেছেন। পুলিশ নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে এবং ঘাতক বাসটি জব্দ করে থানায় নিয়ে আসে। ঘটনার পরপরই বাসটির চালক ও হেল্পার পালিয়ে গেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন বলেন, ঘাতক ইসলাম পরিবহন বাসটি পিছন থেকে মোটরসাইকেলটিকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলে মোটরসাইকেল চালক নিহত হয়।

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার গোলাম রাব্বি বলেন, নিহত আলী হাওলাদারকে হাসপাতালে আনার পুর্বেই মারা গেছে।

আমতলী থানার ওসি কাজী সাখাওয়াত হোসেন তপু বলেন, ঘাতক বাসটি জব্দ করা হয়েছে। নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে থানায় আনা হয়।

অপর দিকে আমতলী-তালতলী সড়কের তারিকাটা নামক স্থানে মোটরসাইকেলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে চালকসহ চারজন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত তামিম, মেহেদী হাসান ও রিফাতকে সংঙ্কটজনক অবস্থায় বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। 


আরও খবর