আজঃ শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪
শিরোনাম

প্রেম ও দ্রোহের কবি রুদ্রের জন্মদিন আজ

প্রকাশিত:সোমবার ১৬ অক্টোবর ২০২৩ | হালনাগাদ:সোমবার ১৬ অক্টোবর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

আজ ১৬ অক্টোবর, তারুণ্যের কবি রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহর ৬৭তম জন্মদিন। ১৯৫৬ সালের আজকের এদিনে পিতার কর্মস্থল বরিশালের আমানতগঞ্জ রেডক্রস হাসপাতালে জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

রুদ্রর পিতা ডাঃ শেখ ওয়ালীউল্লাহ এবং মাতা শিরিয়া বেগম। তার মূল বাড়ি বাগেরহাট জেলার মংলা উপজেলার অন্তর্গত সাহেবের মেঠ গ্রামে। উচ্চ মধ্যবিত্ত পরিবারে জন্ম নেওয়া রুদ্রের শৈশবের অধিকাংশ সময় কেটেছে নানাবাড়ি মিঠেখালি গ্রামে (বাগেরহাট জেলার মংলা থানার অন্তর্গত)। এখানকার পাঠশালাতেই তার পড়াশুনা শুরু।

১৯৭২ সালে ঢাকায় এসে ওয়েস্ট এ্যান্ড হাইস্কুল ভর্তি হয়ে ১৯৭৪ সালে চার বিষয়ে লেটার মার্কসসহ এসএসসিতে বিজ্ঞান শাখায় প্রথম বিভাগে উত্তীর্ণ হন তিনি। এর পর ১৯৭৬ সালে ঢাকা কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করার পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে ভর্তি হন। অতঃপর ১৯৮০ সালে সম্মানসহ বিএ এবং ১৯৮৩ সালে এমএ পাস করেন তিনি।

আশির দশকে স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে সাংস্কৃতিক লড়াইয়ের ময়দানে তিনি ছিলেন অন্যতম সদস্য। জাতীয় কবিতা পরিষদ গঠনে প্রধান উদ্যোগীদের একজন ছিলেন তিনি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সেই বিষ্ফোরক দিনগুলোতে রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ ছিলেন বিপ্লবের সহগামী এক মানুষ।

কবি রুদ্র মুহম্মদ শহীদুল্লাহ তার স্বল্পসময়ের জীবনে রচনা করেছেন সাতটি কাব্যগ্রন্থসহ গল্প, কাব্যনাট্য ও অর্ধ শতাধিক গান। তারই কবিতার লাইন জাতির পতাকা আজ খামচে ধরেছে পুরনো শকুন আজও অবিস্মরণীয়।

এরকম অসংখ্য কবিতা রচনা করেছেন রুদ্র। রাজনীতির ভন্ডামী আর সমাজের বৈশাদৃশ্যের ছবি তিনি তার কবিতায় তুলে এনেছেন নিপুন তুলির টানে। সোনালি শিশির তার একমাত্র গল্পের বই। তার বিষ বিরিক্ষির বীজ নামক একটি নাট্যকাব্য রয়েছে। এছাড়া উপদ্রুত উপকূল (১৯৭৯), ফিরে পাই স্বর্ণগ্রাম ১৯৮২, মানুষের মানচিত্র (১৯৮৪), ছোবল (১৯৮৬), গল্প (১৯৮৭), দিয়েছিলে সকল আকাশ (১৯৮৮), মৌলিক মুখোশ (১৯৯০) কাব্যগ্রন্থগুলোও ব্যাপক পাঠকপ্রিয়তা পেয়েছে। তার বিখ্যাত ভালো আছি ভালো থেকো গানটি জন্য বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সাংবাদিক সমিতি ১৯৯৭ সালে তাকে শ্রেষ্ঠ গীতিকারের (মরনোত্তর) সম্মাননা প্রদান করে।

রুদ্র ১৯৮১ সালে আলোচিত নারীবাদী কবি-লেখিকা তসলিমা নাসরীনকে বিয়ে করেন। ১৯৮৮ সালে তাদের সাত বছরের দাম্পত্য জীবনের অবসান ঘটে। ১৯৯১ সালের ২১শে জুন ঢাকার বাসভবনে কবির অকালপ্রয়ান ঘটে।


আরও খবর
একুশে বইমেলার সময় বাড়লো ২ দিন

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

শেষ ছুটির দিনে জমজমাট বইমেলা

রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ফেব্রুয়ারির নয় দিনে রেমিট্যান্স এসেছে ৬৩ কোটি ডলার

প্রকাশিত:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

Image

চলতি মাসের প্রথম নয় দিনে প্রবাসীরা ৬৩ কোটি ১৭ লাখ মার্কিন ডলার রেমিট্যান্স দেশে পাঠিয়েছেন। এই হিসাবে প্রতিদিন গড়ে ৭ কোটি ২ লাখ ডলার রেমিট্যান্স দেশে পাঠিয়েছেন প্রবাসীরা।

রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ প্রতিবেদনে এই চিত্র উঠে এসেছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৬৩ কোটি ১৭ লাখ ৭০ হাজার মার্কিন ডলারের মধ্যে রাষ্ট্র মালিকানাধীন ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে এসেছে ৬ কোটি ৯০ লাখ ৯০ হাজার ডলার। বিশেষায়িত ব্যাংকের মাধ্যমে এসেছে ২ কোটি ৯৬ লাখ ৪০ হাজার ডলার। আর বেসরকারি ব্যাংকের মাধ্যমে এসেছে ৫৩ কোটি ১৬ লাখ ৫০ হাজার ডলার এবং বিদেশি খাতের ব্যাংকগুলোর মাধ্যমে রেমিট্যান্স এসেছে ১৩ লাখ ৯০ হাজার ডলার।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, ১ থেকে ২ ফেব্রুয়ারি দেশে ৭ কোটি ১১ লাখ ৪০ হাজার মার্কিন ডলার রেমিট্যান্স আসে। আর ৩ ফেব্রুয়ারি থেকে ৯ তারিখ পর্যন্ত এসেছে ৫৬ কোটি ৬ লাখ ৩০ হাজার ডলার।

বিগত ৭ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ প্রবাসী আয় এসেছিল গত মাস জানুয়ারিতে। ওই মাসে দেশে রেমিট্যান্স এসেছিল ২১০ কোটি ৯ লাখ ৫০ হাজার ডলার।

নিউজ ট্যাগ: রেমিট্যান্স

আরও খবর



ইইউর নতুন নিষেধাজ্ঞা, তালিকায় ১৯৩ ব্যক্তি-প্রতিষ্ঠান

প্রকাশিত:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

রাশিয়াসহ তিন দেশের ১৯৩ জন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের ওপর নতুন নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। বুধবার (২১ ফেব্রুয়ারি) বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ইইউর সদস্যরা রাশিয়ার বিরুদ্ধে নতুন নিষেধাজ্ঞার অনুমোদন দিয়েছে। এর আওতায় প্রায় ২০০ জন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হবে। তাদের বিরুদ্ধে মস্কোর অস্ত্র ক্রয়-বিক্রি ও ইউক্রেনের শিশুদের অপহরণের অভিযোগ তোলা হয়েছে। তালিকায় রয়েছে উত্তর কোরিয়া ও বেলারুশের একটি করে প্রতিষ্ঠানও।

ইইউর কূটনৈতিক সূত্র জানিয়েছে, তাদের দূতরা ১৩তম নিষেধাজ্ঞার মূলনীতির বিষয়ে সম্মত হয়েছে। নতুন নিষেধাজ্ঞার আওতায় থাকা ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান সংশ্লিষ্টরা ইউরোপে ভ্রমণ বা ব্যবসায়িক কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারবে না। এর আগে গত বছরের মার্চে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) প্রধান কৌসুলি বলেন, ইউক্রেনের অধিকৃত অঞ্চল থেকে রাশিয়া কয়েকশ এতিম শিশুকে অনথালয় এবং কেয়ার হোম থেকে সরিয়ে নিয়েছে। এছাড়া অনেককে দত্তকও দিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আইসিসি ইউক্রেনীয় শিশুদের অপহরণের জন্য রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনকে অভিযুক্ত করে আসছে। এটিকে তারা যুদ্ধাপরাধ বলেও উল্লেখ করেছে। তবে এ অভিযোগ বরাবরই অস্বীকার করে আসছে মস্কো। তাদের দাবি, যুদ্ধক্ষেত্র থেকে নিরাপদ রাখতে শিশুদের সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। অন্যদিকে ইউক্রেনের অভিযোগ, রাশিয়া চার হাজারের বেশি শিশুকে সরিয়ে নিয়েছে।


আরও খবর



কালীগঞ্জে সরিষার বাম্পার ফলন, আগ্রহ বাড়ছে কৃষকের

প্রকাশিত:সোমবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
উপজেলা প্রতিনিধি

Image

গাজীপুরের কালীগঞ্জে বিগত বছরের তুলনায় এ বছর রেকর্ড পরিমাণ জমিতে বিভিন্ন জাতের সরিষার চাষ করা হয়েছে। স্থানীয় চাষিরা বলছেন, বর্তমান বাজারে সরিষার দাম ও চাহিদা ভালো থাকায় অনেকেই সরিষা চাষে আগ্রহ দেখাচ্ছেন। তাছাড়া সরিষা সিজনে গ্রাম-বাংলার প্রকৃতি সাজে অন্যরকম এক সাজে। যা পথচারী ও প্রকৃতি প্রেমিদের মুগ্ধ করে।

উপজেলার কৃষি অফিসের তথ্যমতে, কালীগঞ্জ পৌরসভাসহ ৭টি ইউনিয়নেই সরিষার চাষ হয়। তবে উপজেলার তুমলিয়া ও জামালপুর ইউনিয়নে সরিষার চাষ একটু বেশি হয়। এ উপজেলায় বারি সরিষা ৯, ১৪, ১৭ ও ১৮ এবং বিনা সরিষা ৯ ও ১১ উচ্চ ফলনশীল জাত ছাড়াও স্থানীয় টরি সেভেন ও মাঘি প্রজাতির রেকর্ড পরিমাণ সরিষা চাষ হয়েছে।

সূত্র আরো জানায়, চলতি বছর এ উপজেলায় ২৯৫ হেক্টর জমিতে বিভিন্ন জাতের সরিষা চাষ হয়েছে। গেল বছর ১৫০ হেক্টর জমিতে ২৩৭ মেট্রিক টন সরিষা উৎপাদন হলেও এ বছর লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ৪৭২ মেট্রিক টন। গত বছরের তুলনায় এ বছর ১৪৫ হেক্টর জমিতে সরিষার চাষ বেশি হয়েছে।

উপজেলা তুমলিয়া ইউনিয়নের পিপ্রাশৈর গ্রামের কৃষাণী স্টেলা জোৎস্না বলেন, আমি প্রতি বছর সরিষার চাষ করি। তবে এবার কৃষি কর্মকর্তাদের কাছ থেকে বীজ ও পরামর্শ পাওয়ায় সরিষা চাষ ভালো হয়েছে। সেই সাথে আবহাওয়া ভালো থাকায় ফলন বেশ ভালো হয়েছে।

কৃষক নয়ন মিয়া জানান, গত বছর ২ বিঘা জমিতে সরিষার চাষ করেছিলাম, ফলন খুব ভালো হয়েছে। গত বছরের ভাল ফলন দেখে এবার দ্বিগুন জমিতে সরিষার চাষ করেছি। এবারও ফলন খুব ভালো হয়েছে। আগামীতে হয়তো আরো বেশি জমিতে সরিষার চাষ করার চেষ্টা করবো।

একই এলাকার আরেক কৃষক দিপু রোজারিও বলেন, গত বছর আমি ৩ বিঘা জমিতে সরিষার চাষ করেছি ফলন খুব ভালো হয়েছে। তবে এবারও আমি ৩ বিঘা জমিতেই সরিষার চাষ করেছি এ বছরও ফলন খুব ভালো হয়েছে।