আজঃ শুক্রবার ২১ জুন ২০২৪
শিরোনাম

নিতাইগঞ্জে অস্থিতিশীল ডালের বাজার

প্রকাশিত:বুধবার ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
অর্থ ও বাণিজ্য ডেস্ক

Image

নারায়ণগঞ্জের নিতাইগঞ্জে লম্বা সময় ধরে অস্থিতিশীল ডালের বাজার। গত বছরের আগস্ট থেকে প্রতি মাসেই বাড়ছে সব ধরনের ডালের দাম। চলতি সপ্তাহে আরো এক দফা দাম বেড়েছে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, আসন্ন রমজান মাসকে কেন্দ্র করে এ সপ্তাহে ডালের বাজারদর আবারো বেড়েছে। তবে বাজারে সরবরাহ সংকট নেই বলেও জানিয়েছেন তারা। সব ধরনের ডাল গত সপ্তাহের তুলনায় কেজিপ্রতি ৩-৫ টাকা বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে।

বাজার ঘুরে দেখা গেছে, দেশী মসুর ডাল বেচাকেনা হচ্ছে ১২৭ টাকা কেজি দরে। এক সপ্তাহ আগেও একই ডাল বাজারে বেচাকেনা হয়েছিল ১২৩ টাকা কেজি দরে। সে হিসেবে দাম বেড়েছে ৪ টাকা।

ভারতের দিল্লি সুপার ডাল বেচাকেনা হচ্ছে ১৩৫ টাকা কেজি দরে। একই ডাল ১০-১২ দিন আগেও বেচাকেনা হয়েছিল ১৩০ টাকা কেজি দরে। সে হিসেবে দাম বেড়েছে ৫ টাকা। এছাড়া আরএ দিল্লি সুপার ডাল বেচাকেনা হচ্ছে ১২৮ টাকা কেজি দরে। একই ডাল ১৫ দিন আগেও বেচাকেনা হয়েছিল ১২৫ টাকা কেজি দরে।

সে হিসেবে দাম বেড়েছে ৩ টাকা। বোল্ডার মসুর ডাল বাজারে বেচাকেনা হচ্ছে ৯২ টাকা কেজি দরে। একই ডাল জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহে বেচাকেনা হয়েছিল ৮৮ টাকা কেজি দরে। সে হিসেবে দাম কেজিপ্রতি বেড়েছে ৪ টাকা। ভাঙা মসুর ডাল বেচাকেনা হচ্ছে ৮৬ টাকা কেজি দরে। এই ডাল ১০-১২ দিন আগেও বেচাকেনা হয়েছিল ৮০ টাকা কেজি দরে। সে হিসেবে দাম বেড়েছে কেজিপ্রতি ৬ টাকা। খেসারি ডাল বাজারে বেচাকেনা হচ্ছে ৭৪ টাকা কেজি দরে। একই ডাল এক সপ্তাহ আগে বেচাকেনা হয়েছিল ৭১ টাকা কেজি দরে। সে হিসেবে দাম কেজিপ্রতি বেড়েছে ৩ টাকা।

মুগ ডাল বাজারে বেচাকেনা হচ্ছে ১০৫ টাকা কেজি দরে। একই ডাল কয়েকদিন আগে ১০২ টাকা কেজি দরে বিক্রি হয়েছিল। সে হিসেবে দাম কেজিপ্রতি বেড়েছে ৩ টাকা। ডাবলি বেচাকেনা হচ্ছে ৬০ টাকা কেজি দরে। একই ডাল দুই সপ্তাহ আগেও বেচাকেনা হয়েছিল ৫৭ টাকা কেজি দরে। সে হিসেবে দাম বেড়েছে কেজিপ্রতি ৩ টাকা। অ্যাঙ্কর ডাল বেচাকেনা হচ্ছে ৬২ টাকা কেজি দরে। একই ডাল কয়েকদিন আগে বেচাকেনা হয়েছিল ৬১ টাকা কেজি দরে।

ডাল ব্যবসায়ী বিকাশ সাহা জানান, বাজারে ডালের দাম কিছুটা স্থিতিশীল ছিল। সবজির দাম কম থাকায় ডালের বেচাকেনাও ছিল নিম্নমুখী। কিন্তু সম্প্রতি পণ্যবাহী জাহাজে আটকা পড়েছে, এমন খবর ছড়িয়ে পড়লে ডালের দাম বাড়তে শুরু করে। দুই একদিনের ব্যবধানে সব প্রকার ডালের দাম কেজিতে ৩-৪ টাকা বেড়ে গেছে। এছাড়া মিল থেকেই ডালের দাম বাড়িয়ে বিক্রি করা হচ্ছে। ফলে খুচরা পর্যায়ে বেশি দামেই বিক্রি করতে হচ্ছে।

আমিনুল ইসলাম নামের এক ক্রেতা অভিযোগ করে বলেন, বাজারে ডালের কোনো ঘাটতি নেই। পর্যাপ্ত ডাল মিলগুলোতে মজুদ আছে। কিন্তু এর পরও ডালের দাম বাড়ানো ব্যবসায়ীদের কারসাজি। ভোক্তা অধিকারের কোনো তত্পরতা নেই নিতাইগঞ্জে। ফলে ব্যবসায়ীরা ইচ্ছেমাফিক দাম বাড়িয়ে অস্থিতিশীলতা সৃষ্টি করছেন।

নিউজ ট্যাগ: নারায়ণগঞ্জ

আরও খবর



হামাসকে পরাজিত করা সম্ভব নয়: ইসরাইলি বাহিনী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০24 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০24 | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী গোষ্ঠী হামাসকে নির্মূল করা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন ইসরাইলের সেনাবাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তা ড্যানিয়েল হাগারি। বুধবার (১৯ জুন) স্থানীয় সংবাদমাধ্যম চ্যানেল ১৩কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি এমনটি বলেন। খবর ডেইলি সাবাহর।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আট মাসের বেশি সময় ধরে গাজায় হামাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছে ইসরাইল। তবে এখনো তারা গোষ্ঠীটিকে নির্মূল করতে পারেনি। বরং হামাস উৎখাত করতে গিয়ে হাজার হাজার বেসামরিক মানুষ মেরেছে ইসরাইল।

এ প্রসঙ্গে ইসরাইল সেনাবাহিনীর মুখপাত্র হাগারি বলেন, হামাস একটি মতাদর্শ। একটি মতাদর্শ নির্মূল করা সম্ভব নয়। আমরা হামাসকে শেষ করে দিতে যাচ্ছিএটা বলা মানে হলো মানুষের চোখে ধুলা দেওয়া। আমরা বিকল্প ব্যবস্থা না নিলে শেষ পর্যন্ত হামাস থাকবে।

এদিকে হাগারির এই বক্তব্য প্রত্যাখান করেছে ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর কার্যালয়। ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়, প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহুর নেতৃত্বাধীন মন্ত্রিসভা হামাসের সামরিক ও সরকারি সক্ষমতা ধ্বংস করাকে যুদ্ধের অন্যতম লক্ষ্য হিসেবে বিবেচনা করছে। ইসরাইলি প্রতিরক্ষা বাহিনীও (আইডিএফ) এ বিষয়ে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এর বাইরে যেকোনো দাবি অপ্রাসঙ্গিক।

গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গত ৭ অক্টোবর থেকে গাজায় ইসরাইলি হামলায় প্রায় সাড়ে ৩৭ হাজার ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। নিহতদের বেশিরভাগ নারী ও শিশু। এছাড়াও আহত হয়েছেন ৮৪ হাজারেরও বেশি ফিলিস্তিনি।


আরও খবর



মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি পেলেন ৫০৪ বীরাঙ্গনা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) সুপারিশে ৫০৪ জন বীরাঙ্গনাকে নারী মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) জাতীয় সংসদে বাজেট অধিবেশনে স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য শামীম শাহনেওয়াজের লিখিত প্রশ্নের উত্তরে তিনি এ তথ্য জানান। এসময় সংসদে সভাপতিত্ব করেন স্পিকার শিরীন শারমিন।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক বলেন, যুদ্ধকালীন মুক্তিযুদ্ধের সহায়তাকারী সব নারীকে মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার কার্যক্রম চলমান আছে। জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের সুপারিশের আলোকে এরই মধ্যে ৫০৪ জন বীরাঙ্গনাকে নারী মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে। তাদের নাম গেজেটে প্রকাশিত হয়েছে।

সরকার দলীয় সংসদ সদস্য সৈয়দা জাকিয়া নূরের প্রশ্নের জবাবে আ ক ম মোজাম্মেল হক জানান, বীর মুক্তিযোদ্ধা যাদের নাম এমআইএস এবং সমন্বিত তালিকায় রয়েছে, তাদের অনুকূলে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে এক লাখ ৯৩ হাজার ৭৮০টি ডিজিটাল সনদ এবং জীবিত বীর মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য এক লাখ ৮০৫টি স্মার্ট আইডি কার্ড বিতরণ করা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, তাদের মধ্যে প্রবাসে অবস্থানকারী বীর মুক্তিযোদ্ধাও রয়েছেন। তবে এমআইএস ও সমন্বিত তালিকায় যেসব বীর মুক্তিযোদ্ধার নাম রয়েছে, কিন্তু অদ্যাবধি ডিজিটাল সনদ ও স্মার্ট আইডি কার্ড পাননি, তাদের অনুকূলে ডিজিটাল সনদ, স্মার্ট আইডি কার্ড প্রস্তুত ও প্রদানের কার্যক্রম চলমান আছে।


আরও খবর
আজ ভয়াল ২৫ মার্চ, গণহত্যা দিবস

সোমবার ২৫ মার্চ ২০২৪




পল্টনের ফায়েনাজ টাওয়ারে আগুন, নিয়ন্ত্রণে ৫ ইউনিট

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

Image

রাজধানীর পল্টনে অবস্থিত বহুতল বিশিষ্ট ফায়েনাজ টাওয়ারে আগুন লেগেছে। বুধবার (১২ জুন) সন্ধ্যা ৬টা ৪৮ মিনিটে আগুন লাগার খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের পাঁচটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ শুরু করেছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ফায়ার সার্ভিস সদর দপ্তরের ডিউটি অফিসার রোজিনা আক্তার বলেন, পল্টনের ফায়েনাজ টাওয়ারে আগুন লাগার বিষয়টি জেনেছি আমরা ৬টা ৪৮ মিনিটে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ৫টি ইউনিট পাঠানো হয়েছে। আগুন নিয়ন্ত্রণের কাজ চলছে। সর্বশেষ খবর অনুযায়ী আগুনের কারণ ও হতাহতের কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি।


আরও খবর



আষাঢ়ের প্রথম দিন আজ

প্রকাশিত:শনিবার ১৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৫ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

ঋতুচক্রে আষাঢ়-শ্রাবণ দু মাস মিলিয়ে বর্ষাকাল। আজ পয়লা আষাঢ়, অর্থাৎ বর্ষার প্রথম দিন। 

বর্ষা মানেই রিমঝিম বৃষ্টি, কখনো বা মুষলধারে ভারী বর্ষণও হবে। গ্রীষ্মের ধুলোমলিন জীর্ণতাকে ধুয়ে ফেলে গাঢ় সবুজের সমারোহে প্রকৃতি সাজে পূর্ণতায়। 

বর্ষা নিয়ে কবি-সাহিত্যিকরা লিখেছেন অগণিত গান ও কবিতা। আবেগে আপ্লুত হয়ে বিশ্বকবি বর্ষার প্রতি ভালোবাসায় সিক্ত হয়ে লিখেছেন, আজি ঝরো ঝরো বাদল দিনে।

বর্ষাকালে চলীয় বাষ্পবাহী দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ু সক্রিয় হয়ে ওঠে। ফলে প্রচুর বৃষ্টি হয়। তাই চারপাশের পরিবেশ রূপ নেয় চিরসবুজের আভরণে। কদম, বেলি, বকুল, জুঁই, দোলনচাঁপা, গন্ধরাজ, হাসনাহেনার ঘ্রাণে ভরে ওঠে চারপাশ। পেখম মেলে ময়ূর। বৃষ্টির পানি গায়ে নিয়ে আনন্দে নেচে ওঠে তারা। 


আরও খবর
সাত নদীর পানি বিপদসীমার ওপরে

বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০24




বেনজীরের সাভানা পার্ক খুলছে আজ

প্রকাশিত:শনিবার ১৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৫ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

পুলিশের সাবেক মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ ও তার পরিবারের সদস্যদের জব্দ করা গোপালগঞ্জের সাভানা ইকো রিসোর্ট অ্যান্ড ন্যাচারাল পার্ক দর্শনার্থীদের জন্য পুনরায় চালু করা হচ্ছে। আজ শনিবার (১৫ জুন) সকাল ৮টা থেকে জেলা প্রশাসনের ব্যবস্থাপনায় চালু হচ্ছে পার্কটি।

পর্যবেক্ষণ ও তদারকি কমিটির সদস্য সচিব এবং গোপালগঞ্জ জেলা দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) উপপরিচালক মো. মশিউর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর জেলা প্রশাসনের ব্যবস্থাপনায় শনিবার সকাল ৮টা থেকে সর্বসাধারণের জন্য পার্কটি খুলে দেওয়া হবে। এতে দর্শনার্থীরা আগের মতো ১০০ টাকা টিকিট কেটে পার্কে প্রবেশ করতে পারবেন।

তিনি আরও জানান, দর্শনার্থীদের বিনোদনের জন্য পার্কের বিভিন্ন রাইড খুলে দেওয়া হলেও কটেজ বন্ধ থাকবে। আর এ পার্ক থেকে সব আয় রাষ্ট্রীয় কোষাগারে ব্যাংক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে জমা হবে। পার্কের নিরাপত্তা জোরদারের লক্ষ্যে পুলিশ সদস্য মোতায়েনের জন্য আবেদন জানানো হবে। আশা করি সকাল থেকেই পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হবে। ইতোমধ্যে রিসোর্টের নিরাপত্তার জন্য আনসার ও সাভানার নিরাপত্তা কর্মীরা দায়িত্বে আছেন।

ক্রোক আদেশের পর পার্কটি চালু থাকলেও গত ৪ জুন সার্ভার জটিলতা দেখিয়ে সাময়িকভাবে বন্ধ করে দিয়েছিল পার্ক কর্তৃপক্ষ। এরপর থেকে পার্কটি বন্ধ ছিল।


আরও খবর