আজঃ শুক্রবার ০৩ ডিসেম্বর ২০২১
শিরোনাম

নির্বাচনী সহিংসতায় দুই ভাইকে কুপিয়ে হত্যা

প্রকাশিত:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৮ নভেম্বর ২০২১ | ৭৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার পাথুলী ইউনিয়নের রাধাগোবিন্দপুর গ্রামের ৭ নম্বর ওয়ার্ডে নির্বাচনী সহিংসতায় দুই ভাইকে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষ মেম্বারের সমর্থকরা। 

সোমবার (৮ নভেম্বর) সকাল ৯টার দিকে বর্তমান মেম্বার ও সাবেক মেম্বারের সমর্থকদের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

গাংনী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বজলুর রহমান এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।  

নিউজ ট্যাগ: দুই ভাইকে হত্যা

আরও খবর



ডেঙ্গুতে আক্রান্ত আরও ১৩১ জন হাসপাতালে ভর্তি

প্রকাশিত:রবিবার ১৪ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৪ নভেম্বর ২০২১ | ৪৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে আরও ১৩১ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। এর মধ্যে ঢাকায় ৮৭ জন ও ঢাকার বাইরে ৪৪ জন ভর্তি হয়েছে। আজ রোববার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের নিয়মিত ডেঙ্গুবিষয়ক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে সর্বমোট ভর্তি থাকা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬৩৪ জন। এর মধ্যে ঢাকার ৪৬টি সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি আছে ৫০৭ জন এবং অন্যান্য বিভাগের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি আছে ১২৭ জন।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, গত ১ জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে ২৫ হাজার ৬৩৪ জন। তাদের মধ্যে সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছে ২৪ হাজার ৯০৩ জন। এ ছাড়া, চলতি বছরে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছে ৯৭ জন।


আরও খবর
আরও ১০৮ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1

করোনায় মৃত্যু ৩, শনাক্ত ২৬১ জন

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1




বারোমাসি তরমুজ চাষে সফল সিংড়ার আদিবাসী কৃষক নিতিশ

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | ৩৭০জন দেখেছেন

Image

সিংড়া (নাটোর) প্রতিনিধি:

মেধা, শ্রম ও চেষ্টা থাকলে কম পড়া-লেখা আর দরিদ্র পরিবার থেকেও যে সফলতা অর্জন করা যায় তারই এক দৃষ্টান্ত আদিবাসী কৃষক নিতিশ চন্দ্র সরদার ওরাওঁ। মাছ চাষ ও তরমুজ চাষে সফল এক কৃষক। আদিবাসী সফল এই কৃষকের বাড়ি নাটোরের সিংড়া উপজেলার শুকাশ ইউনিয়নের চালা পাড়া গ্রামে। নিতিশ ওরাওঁ কিছু দিন আগে পাবদা মাছ চাষ করে সফল মাছ চাষী হিসাবে এলাকায় পরিচিত হয়েছেন। এখন আবার পরিচিত হচ্ছেন সফল তরমুজ চাষী হিসাবে। মাত্র ৭০ শতাংশ জমিতে বারোমাসী হলুদ তরমুজ চাষ করে অধিক লাভবান হওয়ায় নিতিশের এই পরিচিত এনে দিয়েছে। নিতিশের এই সাফল্য দেখে অনেক বেকার যুবক বাণিজ্যিক ভাবে শুরু করেছেন তরমুজ চাষ।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, নিতিশের খেতের মাচায় ঝুলছে তরমুজ। খেত জুড়ে শোভা পাচ্ছে হলুদ, কালো ও ডোরাকাটা তরমুজ। উচ্চ ফলনশীল ব্লাক বেবী, বাংলালিংক এবং গোল্ডেন ক্রাউন নামের তিন জাতের এই তরমুজ খেতে যেমন সুস্বাদু দেখতেও আকর্ষণীয়।

কৃষক নিতিশ জানায়, প্রথমে ফেসবুকের একটি ভিডিও দেখে বারোমাসী তরমুজ চাষের ধারণা পান তিনি। পরে স্থানীয় কৃষি কর্মকর্তার সহযোগিতায় গত সেপ্টেম্বর মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে শুরু করেন চাষ। জমি লিজ, মাচা তৈরীর দড়ি, গুনা, বাঁশ, বেডসহ অন্যান্য বাবদ ৭০ শতাংশ জমিতে তার মোট খরচ হয় ১ লাখ ২৫ হাজার টাকা। মাত্র ৬০ থেকে ৬৫ দিনেই নিতিশের খেতের তরমুজ বিক্রির উপযোগী হয়। প্রথম দফায় ঢাকায় গিয়ে ১ লাখ ৩০ হাজার টাকার তরমুজ বিক্রয় করেন তিনি। প্রথম দফা বিক্রয়ের এক সপ্তাহের মধ্যেই আবারও বিক্রয়ের উপযোগী হয় খেতের তরমুজ।

কৃষক নিতিশ জানায়, প্রথম দফা তরমুজ বিক্রয় করে তার খরচের টাকা উঠে গেছে। এখনও দুই থেকে আড়াই লাখ টাকার তরমুজ তার খেতে আছে। বাকি তরমুজ ঠিক ঠাক বিক্রয় করতে পারলে খরচ বাদে ২ লাখের বেশি আয় হবে বলে আশা করছেন তিনি।

বারোমাসী এই তরমুজ একই জমিতে তিনবার চাষ করা যায়। প্রথমবার মাচান ও বেড তৈরী করতে যে খরচ হয় দ্বিতীয় ও তৃতীয় বার খরচ হয় তুলনামূলক খুবই কম। সেই হিসাবে নিতিশের ওই ৭০ শতাংশ জমিতে খরচ বাদে বছরে আয় হবে ৫ লাখ থেকে ৬ লাখ টাকা। এমনটাই স্বপ্ন দেখছেন কৃষক নিতিশ ওরাওঁ।

নিতিশের স্ত্রী অভিরন রাণীও কাজ করেন তরমুজের খেতে। বারোমাসী তরমুজ চাষের এই সফলতা স্বামী স্ত্রী দুজনারই। নিতিশের এমন সাফল্য এখন ছড়িয়ে পড়েছে লোকে মুখে। স্থানীয়দের কাছে একজন আদর্শ কৃষক হয়ে উঠেছেন তিনি।

উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবীদ মোঃ সেলিম রেজা বলেন, চলনবিল অধ্যুষিত সিংড়া উপজেলার শুকাশ ইউনিয়নের জমি তুলনামুলক উচুঁ হওয়ায় বারোমাসী তরমুজ চাষের উপযোগী এই অঞ্চল। এখানে নিতিশের মত অনেক কৃষকই প্রথমবারের মত তরমুজ চাষ শুরু করেছেন। দেশে তিন জাতের বারোমাসী তরমুজের অনেক চাহিদা রয়েছে। যারা বাণিজ্যিক ভাবে চাষ করছেন তারা লাভবান হচ্ছেন। আমরা চাষীদের পাশে আছি। চাষীদের সব ধরনের পরামর্শ ও সহযোগিতা করছি। এই সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

নিউজ ট্যাগ: তরমুজ চাষী

আরও খবর



রোনাল্ডোর গোলে জয় লাল ম্যাঞ্চেস্টারের

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | ৭৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সাম্প্রতিক ব্যর্থতার পরে জয়ে ফিরল ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেড। মঙ্গলবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ম্যাচে ভিয়ারিয়ালকে ২-০ গোলে হারিয়ে শেষ ষোলো পর্বের ছাড়পত্র আদায় করে নিল রেড ডেভিলস। দলের জয়ের দিনে গোলে ফিরলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোও।

ম্যাচের প্রথমার্ধে অবশ্য গোল করতে পারেনি ম্যাঞ্চেস্টার। ৭৮ মিনিটের মাথায় গোল করে দলকে এগিয়ে দেন সিআর ৭। ব্যবধান বাড়ান জ্যাডন স্যাঞ্চো। ব্রুনো ফের্নান্দেসের সাজিয়ে দেওয়া বল থেকে ডান পায়ের শটে গোল করেন তিনি। এ মরসুমে ম্যান ইউয়ে আসার পরে এটাই তাঁর প্রথম গোল। সম্প্রতি খারাপ ফলের জন্য দলের ম্যানেজার ওয়ে গুন্নার সোলসারকে বরখাস্ত করেছে ক্লাব। অন্তর্বর্তীকালীন ম্যানেজার মাইকেল ক্যারিকের কোচিংয়ে জয়ে ফিরল দল।

অন্য দিকে বায়ার্ন মিউনিখের জয়রথ অব্যাহত। বরফে ঢেকে যাওয়া এনএসসি অলিম্পিক স্টেডিয়ামেও আক্রমণাত্মক ফুটবল উপহার দিলেন রবার্ট লেয়নডস্কিরা। ম্যাচের ১৪ মিনিটে গোল করেন পোলিশ তারকা। ৪২ মিনিটে ব্যবধান বাড়ান কিংসলে কোমান। ৭০ মিনিটে কিয়েভের হয়ে গোল করেন সাইগানকভ। যদিও তাতে জয় আটকায়নি বায়ার্নের।


আরও খবর



ঝিনাইদহে স্বামীর লাঠির আঘাতে গৃহবধূ নিহত

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৬ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৬ নভেম্বর ২০২১ | ৪৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঝিনাইদহের মহেশপুরে স্বামীর লাঠির আঘাতে স্ত্রী নিহত হয়েছেন। শুক্রবার ভোরে এ ঘটনাটি ঘটেছে। নিহত রোজিনা খাতুন উপজেলার চাঁদরতনপুর গ্রামের মহিদুল ইসলামের স্ত্রী।

রোজিনার বাবার বাড়ি চৌগাছা উপজেলার রামকৃষ্ণপুর গ্রামে। সাত বছর আগে বিয়ে হয় তাদের। দুই কন্যাসন্তানের মা তিনি।

মহেশপুর থানার ওসি মো. সাইফুল ইসলাম জানান, গৃহবধূ রোজিনা ও তার স্বামী মহিদুলের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক কলহ চলে আসছিল। এর জের ধরে বৃহস্পতিবার রাতে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে স্বামী স্ত্রীর মাথায় লাঠি দিয়ে আঘাত করেন। এতে ঘটনাস্থলেই রোজিনার মৃত্যু হয়।

ঘটনার পর থেকে মহিদুল ইসলামসহ পরিবারের সদস্যরা পলাতক রয়েছেন। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিউজ ট্যাগ: গৃহবধূ নিহত

আরও খবর



অন্ধ্রপ্রদেশে অতিবৃষ্টিতে ১৭ জন নিহত

প্রকাশিত:শনিবার ২০ নভেম্বর ২০21 | হালনাগাদ:শনিবার ২০ নভেম্বর ২০21 | ২৬৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

অন্ধ্রপ্রদেশে অবিরাম বর্ষণে সৃষ্ট বন্যায় ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে এবং ১০০ জনের বেশি মানুষ নিখোঁজ রয়েছেন বলে খবর পাওয়া গেছে। তিরুপতি মন্দিরের শহর থেকে একটি ভিডিওতে দেখা যায় যে শত শত তীর্থযাত্রী বিশাল বন্যায় আটকা পড়েছেন।

তিরুমালা পাহাড়ের ঘাট রাস্তা ও হাঁটার পথ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে যেখানে মন্দির রয়েছে। তিরুপতির উপকণ্ঠে স্বর্ণমুখী নদী প্লাবিত হয়েছে এবং জলাশয়গুলি উপচে পড়ছে। তিনটি রাষ্ট্রীয় পরিবহণ বাস বিকল হয়ে পড়েছে।

পরিস্থিতি সামাল দিতে জাতীয় ও রাজ্য দুর্যোগ ত্রাণ দল মোতায়েন করা হয়েছে এবং উদ্ধারকাজও পুরোদমে চলছে। বন্যায় অনেক স্থানে সড়ক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং রেল, সড়ক ও বিমান চলাচল বিঘ্নিত হয়েছে।

রায়ালসিমা অঞ্চল সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। রাজ্যের চিত্তুর, কাদাপা, কুরনুল এবং অনন্তপুর জেলাগুলি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বৃহস্পতিবার থেকে বৃষ্টি থামছে না এবং চেইয়ুরু নদী উপচে পড়ছে। অন্নময় সেচ প্রকল্পও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

কাদাপা বিমানবন্দর ২৫ নভেম্বর পর্যন্ত বন্ধ থাকবে।


আরও খবর
ভারতে ধরা পড়ল ওমিক্রন

বৃহস্পতিবার ০২ ডিসেম্বর 2০২1