আজঃ বুধবার ২৫ মে ২০২২
শিরোনাম

গাইবান্ধায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে শ্বশুর–জামাইয়ের মৃত্যু

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | ৪১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে শ্বশুর ছায়েদ আলী (৬২) ও জামাতা সাজু মিয়ার (৪০) মৃত্যু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১২ মে) বিকালে উপজেলার দরবস্ত ইউনিয়নের কালিকাপুর গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার দরবস্ত ইউনিয়নের কালিকাপুর গ্রামের ছায়েদ মিয়া (৬৩) ও তাঁর জামাতা সাজু মিয়া (৪০)।

স্থানীয়রা জানান, বাড়ির উঠান থেকে ধানমাড়াইয়ের মেশিন ঘরের বারান্দায় তুলতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হন জামাতা সাজু মিয়া। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। পরে তাকে উদ্ধার করতে গিয়ে শ্বশুর ছায়েদ আলীও বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হন। এতে দু’জনেরই মৃত্যু হয়।

গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ প্রধান মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, পরিবারটিকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়েছে।’

গোবিন্দগঞ্জ থানার এসআই সঞ্জয় কুমার বলেন, অভিযোগ না থাকায় মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।’


আরও খবর



পানি কমলেও তীব্র হচ্ছে যমুনার ভাঙন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৪ মে ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৪ মে ২০২২ | ১৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সিরাজগঞ্জ হার্টপয়েন্টে গত ১২ ঘণ্টায় যমুনা নদীর পানি ১০ সেন্টিমিটার কমেছে। মঙ্গলবার সকালে এখানে পানি ছিল ১২.৩৫ সেন্টিমিটার। বিকালে তা কমে গিয়ে ১২.২৫ সেন্টিমিটারে দাঁড়িয়েছে। সিরাজগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ডের গেজ রিডার হাসানুর রহমান এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, গত ১২ ঘণ্টায় ১০ সেন্টিমিটার পানি কমে যাওয়ায়, নদীর তীরবর্তী এলাকায় ভাঙন আরও বৃদ্ধি পেয়েছে।

এদিকে যমুনায় বন্যার পানি কমতে থাকায় শাহজাদপুর উপজেলার জালালপুর ইউনিয়নের আরকান্দি, ঘাটাবাড়ি, জালালপুর, পাকুরতলা, কৈজুরি ইউনিয়নের ভেকা ও হাট পাচিল গ্রামে যমুনা নদীর ভাঙন আরও তীব্র আকার ধারণ করেছে। গত ২৪ ঘন্টায় এ ৬ গ্রামের অন্তত অর্ধশতাধিক বাড়িঘর যমুনা নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। গৃহহীন হয়ে পড়েছে প্রায় ২ শাতাধিক মানুষ।

গত ২৪ ঘন্টায় পাচিল গ্রামে অন্তত ২০টি বাড়িঘর নদীগর্ভে বিলীন হয়েছে। এছাড়া অন্যান্য গ্রাম মিলিয়ে প্রায় অর্ধশত বাড়িঘর যমুনাগর্ভে চলে গেছে। সর্বস্ব হারিয়ে নিঃস্ব এসব অসহায় মানুষ শিশুসন্তানদের নিয়ে খোলা আকাশের নিচে মানবেতর জীবনযাপন করছে।  তাদের অভিযোগ চলতি পাচিল-আরকান্দি যমুনার তীর সংরক্ষণ বাঁধ নির্মাণ কাজের ঠিকাদারের লোকজন স্থানীয় দালালদের মাধ্যমে ভাঙ্গণ কবলিত বাড়িঘর রক্ষায় বালির বস্তা ফেলার নাম করে জন প্রতি ২০ হাজার টাকা থেকে ৩০ হাজার টাকা করে নিলেও শেষ পর্যন্ত দাবি অনুযায়ী আরও টাকা না দেয়ায় বস্তা ফেলা হয়নি। ফলে চোখের সামনে তাদের বাড়িঘর যমুনা নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে।

তারা আরও বলেন, সময়মতো বস্তা ফেলা হলে তাদের আজ এ অবস্থা হতো না। এজন্য তারা ঠিকাদারের লোকজনকে দায়ী করেন। এ বিষয়ে কথা বলতে চাইলে ঠিকাদারের লোকজন কেউ কথা বলতে রাজি হননি। ফলে তাদের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।এ বিষয়ে কৈজুরি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোয়াজ্জেম হোসেন খোকন বলেন, পাচিল গ্রামে যমুনা নদীর তীর সংরক্ষণ কাজের ঠিকাদারের গাফিলতিতে এ বছর গ্রামের মানুষ নদী ভাঙনের কবলে পড়ে নিঃস্ব হয়েছে। তারা সময়মতো বস্তা ফেললে এ ক্ষতি হতো না।

অপরদিকে জালালপুর গ্রামের আলহাজ আলী, কামরুল ইসলাম, মহির মেম্বর, লালচান বলেন, ভাঙনে ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে এখনো কেউ এসে দাঁড়ায়নি ফলে তাদের দিন কাটছে অর্ধাহার-অনাহারে। তারা রোদ-বৃষ্টিতে ভিজে মানবেতর জীবনযাপন করছে।

এ বিষয়ে জালালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলহাজ সুলতান মাহমুদ জানান, তিনি স্থানীয় ইউপি সদস্যদের নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। এদের জন্য দ্রুত সাহায্য সহযোগিতা চেয়ে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি অবহিত করেছি। কিন্তু এখনো কোনো বরাদ্দ পাইনি। পেলে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে বিতরণ করা হবে।

এ বিষয়ে শাহজাদপুর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ বলেন, সরেজমিন এলাকা পরিদর্শন করে এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 


আরও খবর



পল্লবীর ফ্ল্যাট থেকে মিলেছে নেশার জিনিস

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২ | ৬৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পল্লবীর দে-র অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় টেলি অভিনেত্রীর পরিবারের একাধিক অভিযোগ এবং পুলিশি তদন্ত ঘিরে দানা বাঁধছে রহস্য। পুলিশ সূত্রে খবর, পল্লবীর লিভ-ইন সঙ্গী সাগ্নিক চক্রবর্তীকে দফায় দফায় জেরা এবং গরফার আবাসনে তল্লাশি চালিয়ে ইতিমধ্যেই নানা তথ্য হাতে এসেছে। অভিনেত্রীর ফোন পরীক্ষা করেও মিলেছে বেশ কিছু তথ্য।

মাসখানেক আগে থেকেই গরফার আবাসনে থাকতে শুরু করেছিলেন পল্লবী ও সাগ্নিক। পুলিশ সূত্রে খবর, ওই ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার হয়েছে হুক্কা, গাঁজা-সহ নেশার জিনিসপত্র। এ ছাড়াও তদন্তকারীদের সূত্র জানান, পল্লবীর মোবাইল ফোন পরীক্ষা করে দেখা গিয়েছে, শেষ ফোন পরিচারিকাকে করেছিলেন অভিনেত্রী। যদিও, তাঁদের মধ্যে কী কথোপকথন হয়েছিল, তা বিশদে জানা যায়নি।

পল্লবীর পরিবারের তরফে আগেই জানা গিয়েছিল, পল্লবীকে ওই পরিচারিকার খোঁজ দিয়েছিলেন তাঁর মাসি সঙ্ঘমিত্রা ভট্টাচার্য। তিনি বলেন, উনি (পরিচারিকা) আমায় প্রায়ই বলতেন, ওঁদের (পল্লবী ও সাগ্নিক) মধ্যে প্রায়ই নানা কারণে ঝামেলা হয়। জিনিস ছোড়াছুড়ি করত ওরা।

অভিনেত্রীর পরিবারের আরও দাবি, পল্লবীর উপর আর্থিক দিক দিয়ে অনেকটাই নির্ভর করতেন তাঁর লিভ-ইন সঙ্গী সাগ্নিক। একাধিক বার নিজের প্রয়োজনে পল্লবীর থেকে টাকা নিয়েছেন তিনি। এমনকি, ইদানীং পল্লবীর সঙ্গে আর্থিক বিষয় নিয়ে মাঝে মধ্যেই অশান্তিও হত তাঁর। এই বিষয়গুলি নজরে রেখে পল্লবীর বাড়ি থেকে পাওয়া তাঁর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের তথ্য খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে খবর পুলিশ সূত্রে।

নিউজ ট্যাগ: পল্লবী দে

আরও খবর



বাস-ট্রাক মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৩

প্রকাশিত:রবিবার ০১ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০১ মে ২০২২ | ৪১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বা‌গেরহা‌টের ফ‌কিরহা‌টে বাস-ট্রাক মুখোমুখি সংঘর্ষে শিশুসহ তিন জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন প্রায় ১০ জন। আজ রবিবার (১ মে) সকালে এ দুর্ঘটনা ঘটে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে নিহতদের পরিচয় জানা যায়নি। মোল্লাহাট হাইওয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ শেখ আবুল হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

স্থানীয়রা জানান, নিহত তিন জনের মধ্যে দুই গাড়ির দুইজন চালক ও আয়ান শেখ নামের দশ মাস বয়সী এক শিশু রয়েছে। আয়ান শেখ টাঙ্গাইল জেলার মাসুদ শেখের ছেলে। সে বাবা-মায়ের সঙ্গে ছিল। তার বাবা-মাও গুরুতর আহত হয়েছেন এই দুর্ঘটনায়। স্থানীয়রা আরও জানান, যাত্রীবাহী বাসটি ঢাকার দিকে যাচ্ছিল। পালেরহাট নামক স্থানে পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা ট্রাকটির সঙ্গে বাসের সংঘর্ষ হয়।

ফকিরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক সবুজ শেখ বলেন, দুর্ঘটনায় আহত কয়েকজন আমাদের হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। এদের মধ্যে দুইজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদেরকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।


আরও খবর



শহীদ শেখ জামালের জন্মদিন আজ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৮ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৮ এপ্রিল ২০২২ | ৪৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আজ ২৮ এপ্রিল সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দ্বিতীয় পুত্র ও বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর গর্বিত অফিসার বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ লেফটেন্যান্ট শেখ জামালের ৬৯তম জন্মদিন। শেখ জামাল ১৯৫৪ সালের ২৮ এপ্রিল গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজ থেকে মাধ্যমিক ও ঢাকা কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাস করেন। তিনি ছিলেন সংস্কৃতিপ্রেমী ও একজন ক্রীড়াবিদ।

১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় পরিবারের অন্য সদস্যদের সঙ্গে শেখ জামালও গৃহবন্দি ছিলেন। সেখান থেকে পালিয়ে তিনি মহান মুক্তিযুদ্ধে সম্মুখসমরে নেতৃত্ব দেন। শেখ জামাল ধানমন্ডি থেকে অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ পথচলা শেষে ভারতের আগরতলা পৌঁছান এবং সেখানে মুজিব বাহিনীতে (বাংলাদেশ লিবারেশন ফোর্সেস, বিএলএফ) যোগদান করে প্রশিক্ষণ শেষে মুক্তিযুদ্ধের ৯ নম্বর সেক্টরে সম্মুখসমরে অংশ নেন।

শহীদ শেখ জামাল ছিলেন একজন দেশপ্রেমিক চৌকস-মেধাবী সেনা অফিসার। তিনি ছিলেন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর লং কোর্সের প্রথম ব্যাচের কমিশন্ড অফিসার। ১৯৭৪ সালে শেখ জামাল যুগোস্লাভিয়ার মিলিটারি একাডেমিতে ক্যাডেট হিসেবে প্রশিক্ষণ ক্যাম্পে অংশ নেন। এরপর ব্রিটেনের স্যান্ডহার্স্ট একাডেমি থেকে প্রশিক্ষণ শেষে দেশে ফিরে ঢাকা সেনানিবাসস্থ দ্বিতীয় ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্টে সেকেন্ড লেফটেন্যান্ট পদে যোগদান করেন।

দ্বিতীয় ইস্ট বেঙ্গলে চাকরিকালে স্বল্প সময়েই অফিসার ও সৈনিকদের মাঝে তিনি অসাধারণ পেশাগত দক্ষতা ও আন্তরিকতার ছাপ রেখেছিলেন। কয়েক সপ্তাহেই শেখ জামাল অফিসার ও সৈনিকদের মধ্যে তাদেরই একজন হয়ে যান। ট্রেনিং গ্রাউন্ডে, রণকৌশলের ক্লাসে, অবস্টাকল ক্রসিংয়ে অংশ নিয়ে সৈনিকদের মুগ্ধ করেন।

ব্যাটালিয়ন বক্সিং টিমের সদস্যদের প্রশিক্ষণ দেন। ১৯৭৫ সালের ১৪ আগস্টও ব্যাটালিয়ন ডিউটি অফিসার হিসেবে ক্যান্টনমেন্টে নিজ দায়িত্ব পালন করেন তিনি। ওই দিন রাতে ক্যান্টনমেন্ট থেকে ফিরে আসেন ধানমন্ডি ৩২ নম্বরের বাড়িতে। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট কালরাত্রিতে ঘাতকের নির্মম বুলেটের আঘাতে পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের সঙ্গে নিহত হন শেখ জামাল।

জন্মদিন স্বভাবতই সবার কাছে আনন্দের। কিন্তু ১৫ আগস্টের নৃশংসতম মর্মান্তিক হত্যাকাণ্ড সে আনন্দকে ম্লান করে দেয়। স্বাধীনতা ও মুক্তি সংগ্রামে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের অবদান বাঙালি জাতি কৃতজ্ঞতার সঙ্গে চিরদিন স্মরণ করবে।

৬৯তম জন্মদিনে শহীদ শেখ জামালকে গভীর শ্রদ্ধা ও ভালোবাসার সাথে স্মরণ করছে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। এ উপলক্ষে আজ সকাল ৮টায় বনানী কবরস্থানে শহীদ শেখ জামালের সমাধিতে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে যথাযথভাবে স্বাস্থ্যসুরক্ষা বিধি মেনে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ এবং তার পবিত্র আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়।


আরও খবর



শাহজালাল বিমানবন্দরের টয়লেটে মিলল সাড়ে ৫ কেজি স্বর্ণ

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | ৩৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের টয়লেট থেকে প্রায় সাড়ে পাঁচ কেজি স্বর্ণবার পরিত্যক্ত অবস্থায় উদ্ধার করেছে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তর। শুল্ক গোয়েন্দার রাজস্ব কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। বুধবার (২৭ এপ্রিল) সকালে বিমানবন্দরের টয়লেটের ময়লার ঝুড়িতে পরিত্যক্ত অবস্থায় স্কচটেপ মোড়ানো ২ বান্ডেলে ৪৬টি স্বর্ণবার পাওয়া যায়।

শুল্ক গোয়েন্দা সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তল্লাশি চালানো হয়। সংস্থার শিফট ইনচার্জ উপ-পরিচালক মো. শাকিল খন্দকারের নেতৃত্বে কাস্টমস গোয়েন্দা দল এয়ারপোর্টের বিভিন্ন পয়েন্টে অবস্থান নিয়ে নজরদারি করতে থাকে। পরে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে এয়ারপোর্টের ওয়াশরুমের ময়লার ঝুড়িতে পরিত্যক্ত অবস্থায় স্কচটেপ মোড়ান ২টি বান্ডেল পাওয়া যায়। যেখানে ৪৬টি সোনারবার ছিল। যার ওজন ৫ কেজি ৩৫৯ গ্রাম। বাজারমূল্য প্রায় ৩ কোটি ৭৫ লাখ টাকা।


আরও খবর