আজঃ মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২
শিরোনাম

বিয়ে করলেন সানাই মাহবুব

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৭ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৭ মে ২০২২ | ১৫৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আর অভিনয় করবেন নাগত বছরই এমন ঘোষণা দিয়েছিলেন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আলোচিত ব্যক্তিত্ব সানাই মাহবুব। তারপর থেকেই বিনোদন জগতে আর আলোচনায় নেই তিনি। এরই মাঝে আবারও নতুন করে আলোচনায় এলেন সানাই মাহবুব। শুক্রবার বিকেলে নীলফামারী শহরে নিজ বাড়িতে বিয়ের পিঁড়িতে বসেন সানাই।

সানাইয়ের বর আবু সালেহ মুসা একটি বেসরকারি ব্যাংকে কর্মরত। তিনি নীলফামারী জেলার কিশোরগঞ্জ উপজেলার বাহাগিলি ইউনিয়নের দক্ষিণ দুরাকুঠি গ্রামের আনছার আলীর পুত্র।

 নীলফামারী শহরের ছিট ইটাখোলা পাড়ার নিজ বাড়িতে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সারেন আলোচিত এই অভিনেত্রী। সানাইয়ের বাবা মাহবুবুর রহমান একটি এনজিওতে এবং মা মেরিনা মাহবুব স্কুল শিক্ষিকা হিসেবে কর্মরত। জানা গেছে, অনেকটা ঘরোয়া পরিবেশে বিয়েটা সেরেছেন এই অভিনেত্রী।

সাবেক এক মন্ত্রীকে বিয়ে করছেন সানাইএমন খবর চাউর হয়েছিল ২০১৯ সালে। সে সময় একটি সংবাদমাধ্যমকে আলোচিত এই অভিনেত্রী নিজেই সে খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেছিলেন, পারিবারিকভাবেই বিয়ে করতে যাচ্ছি। আজ (২৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে আমাদের বাগদান হয়ে গেল। আমার বাসাতেই আয়োজন হলো। সবার কাছে দোয়া চাই আমার নতুন জীবনের জন্য।

তিন বছর আগে কি হয়েছিল তা নিয়ে জল ঘোলাও কম হয়নি। তবে তিন বছর পর আবার বিয়ের পিঁড়িতে বসলেন এই অভিনেত্রী। তবে এ প্রসঙ্গে সানাইর সঙ্গে যোগাযোগ করলে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি তিনি।

বিনোদন জগতে ক্যারিয়ার গড়তে এসে খুব একটা সুবিধা করতে পারেননি সানাই। আলোচিত হওয়ার বদলে বিভিন্ন কর্মকাণ্ডের কারণে সমালোচিতই হয়েছেন বেশি। গত বছর তিনি অভিনয় ছেড়ে আল্লাহর পথে বাকি জীবন কাটানোর ঘোষণা দিয়েছিলেন। তারপর থেকেই হিজাব পরে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে উপস্থিত হতে দেখা যেত তাঁকে।

নিউজ ট্যাগ: সানাই মাহবুব

আরও খবর



সিলেটে তীব্র হচ্ছে খাবার পানির সংকট

প্রকাশিত:শনিবার ১৮ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ১৮ জুন ২০২২ | ৩৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সিলেটে বন্যা পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়েছে। সীমান্ত এলাকা দিয়ে ভারতীয় পাহাড়ি ঢলে বন্যার পানি বাড়ছে। সেই সঙ্গে চলছে টানা বর্ষণ। এতে পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন কয়েক লাখ মানুষ। দেখা দিয়েছে খাদ্য সংকট। দুর্গত এলাকার অনেকের কাছে এখনও ত্রাণ সহায়তা না পৌঁছানোর অভিযোগ উঠেছে।

নগরীর সাদারপাড়া এলাকার বাসিন্দা মাহবুবুর রহমান বলেন, এমন বন্যা আর কখনও দেখেনি। বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে নগরীর অধিকাংশ এলাকা। বাসা-বাড়িতে পানি ঢুকে ভয়াবহ আকার ধারণ করছে। অনেক না খেয়ে দিন পার করছেন।

তালতলার এলাকার গৃহিণী সানজিদা ইসলাম জানান, সিলেটের অবস্থা ভয়াবহ। বিশুদ্ধ পানিসহ খাবারের সংকটে আছি। বাসার সব মালামাল পানিতে ডুবে আছে। পরিবারের সবাইকে নিয়ে খাটের ওপর বসে দিন কাটাচ্ছি।’ এদিকে শনিবার (১৮ জুন) সিলেটের বন্যাদুর্গত উপজেলায় সহায়তা দিতে অনেকে নৌকা নিয়ে মানুষের কাছে গিয়ে ত্রাণ পৌঁছানোর প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

নগরীর তেররতন এলাকার বাসিন্দা হুমায়ৃন কবীর সুহিন বলেন, মানুষের কষ্টের এই সময়ে আমি আমার সামর্থ্য অনুযায়ী কাজ করে যাচ্ছি। জেনারেটরের সাহায্যে আমার বাসা থেকে খাবার পানি সরবরাহের পাশাপাশি শুকনা খাবারও বিতরণ করছি।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, বন্যার পানি বেড়ে মানুষের ভোগান্তির শেষ নেই। ওয়ার্ডের অধিকাংশ এলাকায় সরকারি কোনও সহায়তা পৌঁছায়নি।

টানা বৃষ্টি ও পাহাড়ি ঢলে দিন দিন সিলেটের পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে। অধিকাংশ বাড়িঘর ও রাস্তাঘাট পানিতে ডুবে গেছে। পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন কয়েক লাখ মানুষ। অনেকে আশ্রয়ের খোঁজে এদিক-ওদিক ছুটছেন। গবাদি পশু ও ঘরের জিনিসপত্র নিয়ে চরম বিপাকে পড়েছেন তারা।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, নৌবাহিনীর ৩৫ জনের একটি ডুবুরিদল কাজ শুরু করেছে। বিকালে ৬০ জনের আরেকটি দল আসবে। দুপুরের পর আসবে কোস্ট গার্ডের দুটি ক্রুজ। তাদের মধ্যে একটি সুনামগঞ্জ এবং একটি সিলেটে উদ্ধারকাজে যাবে। এছাড়া বিমানবাহিনীর দুটি হেলিকপ্টার উদ্ধার কাজে নিয়োজিত থাকবে। সেনাবাহিনীর সদস্যরা গ্রামে গ্রামে পানিবন্দি মানুষকে উদ্ধার করে নিয়ে আসছে।

এদিকে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তার জন্য টোল ফ্রি নম্বর চালু করেছে সেনাবাহিনী। বিনামূল্যে এসব নম্বরে যোগাযোগ করা যাবে বলে জানানো হয়েছে। শনিবার (১৮ জুন) আন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতর (আইএসপিআর) থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সিলেটের জ্যেষ্ঠ আবহাওয়াবিদ সাঈদ আহমদ চৌধুরী জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ১০৮ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। আগামী ২০ জুন পর্যন্ত সিলেটে বৃষ্টি অব্যাহত থাকবে। তবে ভারী বৃষ্টি হবে ১৯ জুন পর্যন্ত। এর পরদিন কিছুটা কমে ২৭ জুন পর্যন্ত হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত হবে।

পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) সিলেট কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, সকাল ৬টার দিকে সিলেটের প্রধান নদী সুরমার কানাইঘাট ও সিলেট পয়েন্টে পানি বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। ভারী বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকায় অন্যান্য নদ-নদীর পানিও বাড়ছে।


আরও খবর



চসিকের ২ হাজার ১৬১ কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা

প্রকাশিত:রবিবার ২৬ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৬ জুন ২০২২ | ২৩৫জন দেখেছেন

Image

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:

২০২২-২৩ অর্থবছরের জন্য দুই হাজার ১৬১ কোটি ২৭ লাখ ৫০ হাজার টাকার বাজেট ঘোষণা করেছে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক)। এছাড়া আগের অর্থবছরের সংশোধিত বাজেটও উপস্থাপন করা হয়েছে।

রোববার দুপুরে চট্টগ্রামের থিয়েটার ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে এ বাজেট ঘোষণা করেন সিটি করপোরেশনের মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরী। মেয়র হিসেবে দ্বিতীয় বাজেট ঘোষণা করলেন তিনি।

২০২২-২৩ অর্থবছরের জন্য দুই হাজার ১৬১ কোটি ২৭ লাখ ৫০ হাজার টাকার বাজেটের মধ্যে নিজস্ব উৎসে আয় ধরা হয়েছে ৯০৪ কোটি ৫৭ লাখ ৫০ হাজার টাকা। উন্নয়ন অনুদান খাতে সরকার থেকে সম্ভাব্য আয় ধরা হয়েছে ১ হাজার ২১২ কোটি টাকা। অন্যান্য উৎস খাতে ৩৯ কোটি ৭০ লাখ টাকা আয় ধরা হয়েছে।

এদিকে ২০২১-২২ অর্থবছরের দুই হাজার ৪৬৩ কোটি ৯৬ লাখ টাকা মূল বাজেট হলেও সংশোধিত বাজেটে তা দাঁড়ায় এক হাজার ২০২ কোটি ৫৭ লাখ  টাকা।

বাজেট বক্তৃতায় মেয়র বলেন, নগরবাসীর আশা-আকাঙ্ক্ষার প্রতিফলন ঘটানোর প্রত্যাশা এবং চট্টগ্রাম নগরকে পরিবেশগত, প্রযুক্তিগত ও অর্থনৈতিকভাবে সমৃদ্ধ, নান্দনিক ও বাসযোগ্য নগর হিসেবে প্রতিষ্ঠা করার জন্য এই বাজেট। জনগণের প্রত্যাশিত সেবা ও উন্নয়ন কর্মকাণ্ড নিশ্চিত করার জন্য নগরবাসীর সর্বাত্মক সহযোগিতা প্রয়োজন।

তিনি বলেন, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন একটি বৃহৎ পরিবার। এখানে অনেক সেবা সংস্থা রয়েছে যারা নগরবাসীকে বিভিন্ন ধরনের সেবা দিয়ে থাকে। তার মধ্যে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন সবচেয়ে বড় ও নগরের অভিভাবক প্রতিষ্ঠান। আমি বিশ্বাস করি, সব সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান ও প্রশাসনের সঙ্গে সমন্বয়ের মাধ্যমে সমস্যার সমাধান নিশ্চিত করতে হবে। সমস্যা আছে এবং থাকবেই। মেধা, দক্ষতা ও সৃজনশীলতার মাধ্যমে সমাধানের পথ আমাদের খুঁজতে হবে। নগরবাসী আস্থা ও বিশ্বাস রেখে আমাদের নির্বাচিত করেছেন, তাদের আস্থা ও বিশ্বাসের প্রতিদান দিতে হবে। অতীত নিয়ে কিছু বলতে চাই না। যা আছে তা নিয়েই আমাদের ভবিষ্যৎ পানে এগিয়ে যেতে হবে। চট্টগ্রাম মহানগরীর উন্নয়নকল্পে বিগত এক বছরে অনেকগুলো নতুন প্রকল্প গ্রহণপূর্বক বাস্তবায়নে কাজ শুরু করেছি।

রেজাউল করিম চৌধুরী বলেন, চট্টগ্রাম শহরের জলাবদ্ধতা নিরসনে নগরীর প্রধান ৩৬টি খালে ৫ হাজার ৬শ ১৬ কোটি টাকার মেগা প্রকল্প সিডিএ কর্তৃক বাস্তবায়িত হচ্ছে। যার বাস্তবায়নের দায়িত্ব বাংলাদেশ সেনাবাহিনীকে দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও পানি উন্নয়ন বোর্ড ও চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন সরকারের প্রকল্প সহায়তায় জলাবদ্ধতা নিরসনে কাজ করছে। আশা করছি, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে উন্নয়নকাজ সম্পন্ন হলে চট্টগ্রাম শহরের জলাবদ্ধতা নিরসনে দৃশ্যমান পরিবর্তন আসবে। এছাড়া নগরীর অবশিষ্ট ২১টি খালে উন্নয়ন ও পুনরুদ্ধারের বিষয়ে ফিজিবিলিটি স্ট্যাডির জন্য কনসালট্যান্ট নিয়োগ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

অনুষ্ঠানে সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা, প্যানেল মেয়র, কাউন্সিলর ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



সবাইকে বুস্টার ডোজ নেওয়ার আহ্বান স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

প্রকাশিত:শনিবার ০৪ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০৪ জুন ২০২২ | ২৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

যারা এখনও বুস্টার ডোজ নেননি, তাদের সবাইকে বুস্টার ডোজ নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, বুস্টার ডোজ হচ্ছে কোভিডের জন্য মানুষের সুরক্ষা। এ পর্যন্ত দেশের প্রায় দেড় কোটি মানুষকে বুস্টার ডোজ দেওয়া হয়েছে। চলমান বুস্টার ডোজ ক্যাম্পেইন সপ্তাহে আরও এক কোটি মানুষকে বুস্টার ডোজ দেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।

শনিবার (৪ জুন) দুপুর সোয়া ১২টার দিকে মানিকগঞ্জে কর্নেল মালেক মেডিক্যাল কলেজে হাসপাতালে বুস্টার সপ্তাহ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বুস্টার ডোজ কার্যক্রম সপ্তাহে ১৬ হাজার ৬৫০টি কেন্দ্রের মাধ্যমে ৮৫ হাজার সেবক বুস্টার ডোজ প্রদানে কাজ করছেন। টিকা নিয়ে দেশের মানুষ ভালো আছেন। আমাদের দেশের অর্থনীতি ভালো আছে। যারা বুস্টার ডোজ নেবেন তাদের শারীরিক সুরক্ষা আরও ভালো থাকবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক আব্দুল লতিফ, জেলা পরিষদের প্রশাসক অ্যাডভোকেট গোলাম মহিউদ্দিন, কর্নেল মালেক মেডিক্যাল কলেজের মহাপরিচালক আশ্বাদ উল্লাহ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. হাফিজুর রহমান প্রমুখ।


আরও খবর



রাত ৮টার পরেও খোলা থাকবে যেসব দোকান-প্রতিষ্ঠান

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ১৯ জুন ২০২২ | ৪১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আগামীকাল সোমবার থেকে রাত ৮টার পর খোলা রাখা যাবে না মার্কেট ও শপিংমল। তবে যেসব দোকান বা প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা যাবে তার তালিকা প্রকাশ করেছে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়।

আজ রোববার শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সচিব এহছানে এলাহী জানান, নিম্নলিখিত দোকান বা প্রতিষ্ঠান ছাড়া সব কিছু আগামীকাল থেকে রাত ৮টার পর বন্ধ থাকবে।

১. ডাক, জেটি, বিমানবন্দর, পরিবহন সার্ভিস, টার্মিনাল ও অফিস।

২. তরকারি, মাংস, মাছ, দুগ্ধজাতীয় সামগ্রী, রুটি, পেস্ট্রি, মিষ্টি ও ফুল বিক্রির দোকান।

৩. ওষুধ, অপারেশন সামগ্রী, সরঞ্জাম, ব্যান্ডেজ ও চিকিৎসা সংক্রান্ত প্রয়োজনীয় সামগ্রী বিক্রির দোকান।

৪. দাফন ও অন্ত্যষ্টেক্রিয়া সম্পাদনের জন্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী বিক্রির দোকান।

৫. তামাক, সিগারেট, পান-বিড়ি, খবরের কাগজ, সাময়িকী বিক্রির দোকান ও দোকানের বসে খাওয়ার জন্য যেসব দোকান।

৬. পেট্রোল পাম্প ও কারখানা নয় এমন মোটরগাড়ি সার্ভিসিংয়ের দোকান এবং সেলুন।

৭. পয়নিষ্কাশন ও স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠান, পানি, বিদ্যুত ও গ্যাস সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান।

৮. ক্লাব, হোটেল, রেস্তোরা ও সিনেমা হল।

আজ সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে বিভিন্ন ব্যবসায়ী সমিতির নেতৃবৃন্দ সরকারের নির্দেশনার সঙ্গে একমত হওয়ার পর সিদ্ধান্ত হয়, আগামীকাল সোমবার থেকেই রাত ৮টায় বন্ধ করতে হবে মার্কেট ও শপিংমল।

তবে সমিতির নেতারা ঈদুল আজহার কারণে ১ জুলাই থেকে ১০ জুলাই পর্যন্ত রাত ১০টা পর্যন্ত দোকান খোলা রাখার অনুমতি দিতে সরকারের কাছে অনুরোধ জানিয়েছেন।

এই অনুরোধের পরিপ্রেক্ষিতে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান জানান, বাড়তি ২ ঘণ্টা দোকান খোলা রাখার বিষয়ে অনুমোদনের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে তার মন্ত্রণালয় অনুরোধ জানাবে।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের পর বিশ্বব্যাপী জ্বালানির মূল্য বৃদ্ধির কারণে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সাশ্রয়ের লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় সম্প্রতি এই নির্দেশনা দিয়েছে।


আরও খবর



৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিয়ে ছাত্রলীগের অবরোধ স্থগিত

প্রকাশিত:বুধবার ০১ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ০১ জুন ২০২২ | ৪৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

স্থানীয় বাসিন্দাদের মারধরের অভিযোগের প্রতিবাদে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের একাংশের ডাকা অবরোধ ১০ ঘণ্টা পর স্থগিত করা হয়েছে। বুধবার ভোর ৪ টায় এ অবরোধ শুরু হয়, যা চলে আড়াইটা পর্যন্ত।

এদিন দুপুরে অবরোধ প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন চবি ছাত্রলীগের উপ-গ্রুপ ভিএক্সের নেতা প্রদীপ চক্রবর্তী দুর্জয়।

তিনি বলেন, প্রশাসন ইতোমধ্যে অভিযুক্ত মো. হানিফকে আটক করেছে। অন্যদেরও গ্রেপ্তারের আশ্বাস দিয়েছে। আমরা প্রশাসনকে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিয়েছি। শিক্ষার্থীদের কথা বিবেচনা করে অবরোধ প্রত্যাহার করা হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর রবিউল হাসান ভূঁইয়া গণমাধ্যমকে বলেন, হাটহাজারী থানা পুলিশের সঙ্গে এ বিষয়ে দীর্ঘ আলোচনা হয়েছে। ইতোমধ্যে অভিযুক্ত একজনকে পুলিশের হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। বাকি অভিযুক্তদেরও গ্রেপ্তারে চেষ্টা চলছে। ছাত্রলীগ অবরোধ প্রত্যাহার করে নিয়েছে। ক্যাম্পাস থেকে শহরগামী বিকাল ৪ টার ট্রেন যথাসময়ে চলবে।

এর আগে ভোর সাড়ে তিনটায় স্থানীয় বাসিন্দাদের মারধরের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ করেন শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি রাশেদ হাসান ও উপপক্ষ ভার্সিটি এক্সপ্রেসের নেতা প্রদীপ চক্রবর্তী। এ ঘটনা জানাজানি হলে অবরোধ শুরু হয়। ফলে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব বিভাগের পরীক্ষা স্থগিত করা হয়।


আরও খবর