আজঃ বুধবার ২৫ মে ২০২২
শিরোনাম

আজকের রাশিফল ১৩ মে ২০২২

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৩ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৩ মে ২০২২ | ৪৩০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

১৩ মে ২০২২ শুক্রবার, নক্ষত্রের গতিবিধি এবং গ্রহের অবস্থান দেখায় যে মিথুন রাশির লোকেরা তাদের প্রচেষ্টায় সাফল্য পাবে এবং তাদের মনোবল বৃদ্ধি পাবে। বৃষ রাশির লোকেরাও শুভ গ্রহ অবস্থানের সুবিধা নিতে সক্ষম হবেন। অন্য সব রাশির জাতক-জাতিকার দিনটি কেমন যাবে, জেনে নিন কী বলে আপনার ভাগ্যের নক্ষত্র।

মেষ রাশি:

আপনি প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ যে কোনও উপায়ে সরকার থেকে সুবিধা পেতে পারেন। আপনি যদি সময় মতো সুযোগের পূর্ণ সদ্ব্যবহার করেন, তাহলে আপনার পেশাগত জীবন ভবিষ্যতে আপনাকে প্রচুর সুবিধা দিতে পারে।

বৃষ রাশি:

বৃষ রাশির জাতকদের আজ আপনার আত্মবিশ্বাস ও সাহস তুঙ্গে থাকবে। রাজনীতি বা সমাজকর্মের সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা অনেক সভায় অংশ নেবেন ইত্যাদি। আপনি সম্মান পাবেন এবং কিছু নতুন দায়িত্বও পেতে পারেন। জটিল সমস্যার সমাধান পাবেন।

মিথুন রাশি:

আপনি সুস্বাস্থ্য উপভোগ করবেন এবং পারিবারিক জীবন সুখী হবে। আয় বৃদ্ধির সম্ভাবনা রয়েছে। আপনি নতুন সুযোগ পাবেন যা আপনার প্রভাব এবং প্রতিপত্তি বৃদ্ধি করবে। আপনি আপনার কাজ এবং পরিকল্পনা সম্পন্ন করে সন্তুষ্ট বোধ করবেন। আত্মীয় এবং বন্ধুদের সাথে আপনার সম্পর্কের উন্নতি হবে।

কর্কট রাশি:

কর্কট রাশির জাতকদের আজ মিশ্র ফল পাওয়া সম্ভব কিন্তু বেশিরভাগই আপনার অনুকূলে থাকবে। অনুৎপাদনশীল কাজে আপনার সময় ও শক্তি নষ্ট করবেন না। আপনার সিদ্ধান্তের প্রতি যথাযথ মনোযোগ দিন। আপনি যদি কোনও বিনিয়োগ করতে চান তবে বিশেষজ্ঞের নির্দেশনা নেওয়া বাঞ্ছনীয় হবে।

সিংহ রাশি:

গণেশ সিংহ রাশির দের জন্য সৌভাগ্যের সময় নয়। ভাইবোনের সঙ্গে বিবাদ পারিবারিক জীবনে অস্থিরতা সৃষ্টি করতে পারে। প্রেমের সম্পর্ক আগের মতোই থাকবে। নিবেদিত অধ্যবসায়ের সাথে আপনি উর্ধ্বতনদের সন্তুষ্ট করতে পারেন। আপনি আর্থিক সুবিধাও পেতে পারেন।

কন্যা রাশি:

কন্যা রাশির জাতকেরা নতুন সুযোগ পাবেন এবং সেগুলি ব্যবহার করে উপকার পাবেন। এইভাবে আর্থিক সমৃদ্ধি নিশ্চিত করা হয়। কিন্তু পরিবারের সদস্যদের স্বাস্থ্য ও সম্পত্তির বিষয়ে বিবাদ আপনাকে ক্রমাগত মানসিক চাপে ফেলতে পারে।

তুলা রাশি:

গণেশ তুলা রাশির জাতকদের নতুন ব্যবসায়িক সম্পর্ক এবং চুক্তি চূড়ান্ত করার জন্য এটি একটি অনুকূল সময়। প্রেমের ক্ষেত্রে আপনি ভাগ্যবান হবেন। গৃহস্থালির ক্ষেত্রে সংযম অবলম্বন করা উচিত, রাগ ও আবেগের কারণে পরিবারে বিবাদ হতে পারে। মাতৃগৃহ নিয়ে নারীরা কিছুটা বিভ্রান্তিতে থাকতে পারেন।

বৃশ্চিক রাশি:

বৃশ্চিক রাশির জাতকদের আজ আপনি একটি নতুন মেলামেশা বা অংশীদারিত্বে প্রবেশ করতে পারেন। আপনি ব্যবসায়িক প্রকল্পগুলিতে উত্সাহী এবং আত্মবিশ্বাসী, তাই আপনি ভবিষ্যতে সম্পূর্ণ সাফল্য অর্জন করতে সক্ষম হবেন। কোনও আইনি বিষয় বিচারাধীন থাকলে তা আদালতের মামলায় সাফল্যের ইঙ্গিত দেবে।

ধনু রাশি:

ধনু রাশির জাতকদের আজ আপনি আপনার জীবনসঙ্গী বা সহযোগীদের অর্ধাহারে সমর্থন পাবেন। এ কারণে আপনি কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে পারবেন না। এই পরিস্থিতি আপনাকে মানসিক বিভ্রান্তি এবং চাপে ফেলবে। এমন সময়ে নিজের দুর্বলতা কাউকে না বলাই ভালো, সে যতই কাছের হোক না কেন।

মকর রাশি:

মকর রাশির জাতকদের আজ আপনি পেশাগত ভাবে উন্নতি করবেন। কর্মক্ষেত্রে আপনি আপনার কাজের জন্য প্রশংসার পাত্র হয়ে উঠতে পারেন। আপনার মধ্যে কেউ কেউ একটি নতুন সমিতি বা অংশীদারিত্বে প্রবেশ করতে পারে। আপনার প্রতিপক্ষ আপনার কোনও ক্ষতি করতে পারবে না। স্থিতিশীল আয় আপনাকে আরও ভালো অবস্থানের জন্য অনুপ্রাণিত করবে।

কুম্ভ রাশি:

কুম্ভ রাশির জাতকদের আজ ব্যবসায়িক ক্ষেত্রে খুব ভালো ফল পাবেন। প্রভাবশালীদের সঙ্গে যোগাযোগ উপকারী হবে। ব্যবসায়ীরা অংশীদারিত্ব বা সমিতির মাধ্যমে ভাল লাভ পেতে পারেন। আপনার আত্মবিশ্বাস বাড়বে।

মীন রাশি:

মীন রাশির জাতকদের আজকের দিনটি আপনাদের কারও কারও জন্য খুব বিতর্কিত হতে পারে। আপনাকে আপনার উর্ধ্বতনদের অবহেলার সম্মুখীন হতে হতে পারে এবং আপনার সহকর্মীরা আপনার দুর্বলতাকে পুঁজি করে খেলা নষ্ট করতে পারে।


আরও খবর



ঘূর্ণিঝড় অশনির প্রভাবে ৫ বিভাগে ভারি বৃষ্টির আশঙ্কা

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | ৬২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ভারতের অন্ধ্র উপকূল ও পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থানরত প্রবল ঘূর্ণিঝড় অশনি’ পশ্চিম উত্তর দিকে অগ্রসর হয়ে একই এলাকায় অবস্থান করছে। এর প্রভাবে গত সোমবার (০৯ মে) থেকে সারা দেশে বৃষ্টি শুরু হয়েছে। 

আজ (বৃহস্পতিবারও ১২ মে) দেশের পাঁচ বিভাগে ভারী বর্ষণের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।

বুধবার (১১ মে) রাতে আবহাওয়াবিদ আবুল কালাম মল্লিক বলেন, মধ্যরাতে ঘূর্ণিঝড়টি গভীর নিম্নচাপে পরিণত হবে। পরে আরও দুর্বল হয়ে নিম্নচাপে পরিণত হবে। ঘূর্ণিঝড় হিসেবে অশনি বাংলাদেশে আঘাত হানার সম্ভাবনা নেই। তবে অশনির অগ্রবর্তী অংশের প্রভাবে দেশের খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম, ঢাকা ও সিলেটে ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে।’

আবহাওয়া অধিদপ্তরের বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, অশনি সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ৩২০ কিলোমিটার দক্ষিণ পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ২৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণ পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ১৩০ কিলোমিটার দক্ষিণ পশ্চিমে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ১৬৫ কিলোমিটার দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থান করছিল। এটি আরও উত্তর-উত্তর পূর্ব দিকে অগ্রসর হতে পারে।

ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৫৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৬২ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝোড়ো হাওয়া আকারে ৮৮ কিলোমিটার পর্যন্ত বাড়ছে। কেন্দ্রের আশপাশের এলাকার সাগর খুব উত্তাল রয়েছে। এতে চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরসমূহকে ২ নম্বর দূরবর্তী হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।


আরও খবর



ঈদের আগে কমল স্বর্ণের দাম

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৬ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৬ এপ্রিল ২০২২ | ৪৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বিশ্ববাজারে দাম কমার প্রেক্ষিতে ঈদের আগে কমল স্বর্ণের দাম। সব থেকে ভালো মানের স্বর্ণের দাম ভরিতে ১ হাজার ১৬৭ টাকা কমিয়ে নতুন দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। এতে ভালো মানের প্রতি ভরি স্বর্ণের দাম ৭৭ হাজার ৬৮২ টাকা হয়েছে। আগামীকাল মঙ্গলবার (২৬ এপ্রিল) থেকে স্বর্ণের এ নতুন দাম কার্যকর করা হবে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস)।

ভালো মানের স্বর্ণের পাশাপাশি কমানো হয়েছে সব ধরনের স্বর্ণের দাম। মান অনুযায়ী প্রতি ভরি স্বর্ণের দাম কমানো হয়েছে ৭৫৮ টাকা থেকে ১ হাজার ১৬৭ টাকা পর্যন্ত। তবে রুপার দামে কোনো পরিবর্তন আসেনি।

বাজুসের মূল্য নির্ধারণ ও মূল্য পর্যবেক্ষণ সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটি সোমবার (২৫ এপ্রিল) বৈঠক করে স্বর্ণের দাম কমানোর সিদ্ধান্ত নেয়। পরবর্তী সময়ে মূল্য নির্ধারণ ও মূল্য পর্যবেক্ষণ সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান এনামুল হক ভূইয়া লিটন সই করা এক বিজ্ঞপ্তিতে দাম কমানোর এ সিদ্ধান্ত জানানো হয়েছে।

নতুন মূল্য অনুযায়ী, সবচেয়ে ভাল মানের বা ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরি (১১ দশমিক ৬৬৪ গ্রাম) স্বর্ণের দাম ১ হাজার ১৬৭ টাকা কমিয়ে করা হয়েছে ৭৭ হাজার ৬৮২ টাকা।

২১ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম ১ হাজার ১৬৬ টাকা কমিয়ে ৭৪ হাজার ১৮৩ টাকা, ১৮ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম ৯৯১ টাকা কমিয়ে ৬৩ হাজার ৫৬৯ টাকা এবং সনাতন পদ্ধতির প্রতি ভরি স্বর্ণের দাম ৭৫৮ টাকা কমিয়ে ৫৩ হাজার ৭১ টাকা করা হয়েছে।

স্বর্ণের দাম বাড়লেও রুপার আগের নির্ধারিত দামই বহাল রয়েছে। ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরি রুপার দাম নির্ধারণ করা হয়েছে এক হাজার ৫১৬ টাকা, ২১ ক্যারেটের এক হাজার ৪৩৫ টাকা, ১৮ ক্যারেটের এক হাজার ২২৫ টাকা এবং সনাতন পদ্ধতির প্রতি ভরি রুপার দাম ৯৩৩ টাকা।

এর আগে স্থানীয় বুলিয়ান মার্কেটে দাম বাড়ার প্রেক্ষিতে গত ১২ এপ্রিল থেকে দেশের বাজারে স্বর্ণের দাম বাড়ানো হয়। তখন সবচেয়ে ভাল মানের বা ২২ ক্যারেটের প্রতি ভরি (১১ দশমিক ৬৬৪ গ্রাম) স্বর্ণের দাম ১ হাজার ৭৫০ টাকা বাড়িয়ে ৭৮ হাজার ৮৪৯ টাকা করা হয়েছিল।

এছাড়া ২১ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম ১ হাজার ৭৪৯ টাকা বাড়িয়ে ৭৫ হাজার ৩৪৯ টাকা, ১৮ ক্যারেটের প্রতি ভরি সোনার দাম ১ হাজার ৪৫৮ টাকা বাড়িয়ে ৬৪ হাজার ৫৬০ টাকা এবং সনাতন পদ্ধতির প্রতি ভরি স্বর্ণের দাম ১ হাজার ২২৪ টাকা বাড়িয়ে করা হয়েছিল ৫৩ হাজার ৮২৯ টাকা। সোমবার পর্যন্ত দেশের বাজারে এ দামেই স্বর্ণ বেচাকেনা হয়েছে।


আরও খবর
যশোরে ১০ ঢাকায় ৮০

বুধবার ২৫ মে ২০২২




গাইবান্ধায় বাস-অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ৩

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | ৪৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় বাস ও অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে তিনজন নিহত হয়েছেন। বুধবার সকাল সোয়া ৮টার দিকে উপজেলার রংপুর-ঢাকা মহাসড়কের মহেশপুর এলাকায় বিটিসি রোড থেকে ২০০ গজ দক্ষিণে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন সবজি চাষি তাজু মিয়া (২৫), সবুজ মিয়া (৩০) ও অটোরিকশাচালক সোহেল মিয়া (৩৫)। তাজু মিয়া রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলার চেরাগপুর গ্রামের রাজা মিয়ার ছেলে, সবুজ মিয়া একই গ্রামের দুলা মিয়ার ছেলে এবং সোহেল মিয়া সোলায়মান মিয়ার ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ঢাকা থেকে নিউ সাফা পরিবহণের যাত্রীবাহী একটি বাস পঞ্চগড়ের উদ্দেশে যাচ্ছিল। পথে মহেশপুর এলাকায় করলাবোঝাই অটোরিকশাকে চাপা দেয় বাসটি। এতে ঘটনাস্থলেই তাজু ও সোহেল মারা যান।  সবুজকে আহতাবস্থায় উদ্ধার করে পলাশবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হলে তার মৃত্যু হয়।

দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে পলাশবাড়ী থানার পরিদর্শক রূপ কুমার সরকার জানান, লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।  কৃষকরা সবজি নিয়ে পলাশবাড়ির মহেশপুর সবজির হাটে আসছিলেন।  এ সময় মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।  দুর্ঘটনাকবলিত বাস ও অটোরিকশা উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।


আরও খবর



ফিনল্যান্ডে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করল রাশিয়া

প্রকাশিত:রবিবার ১৫ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ১৫ মে ২০২২ | ৩৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইউক্রেন যুদ্ধের জেরে সৃষ্ট উত্তেজনায় পোল্যান্ড ও বুলগেরিয়ায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করে দেয় রাশিয়া। এবার ফিনল্যান্ডে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করে দিচ্ছে দেশটি। শনিবার থেকেই দেশটিতে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করা হয় বলে জানিয়েছে রুশ বিদ্যুৎ সরবরাহকারী কোম্পানি রাও (আরএও) নর্ডিক

সংস্থাটির দাবি করছে, ফিনল্যান্ডে আগে সরবরাহ করা বিদ্যুতের পাওনা মূল্য পরিশোধ করেনি। মূল্য পরিশোধ সংক্রান্ত জটিলতার কারণেই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এটি একটি ব্যতিক্রমী পরিস্থিতি, যা আমাদের বাণিজ্য ইতিহাসের বিশ বছরেরও বেশি সময়ের মধ্যে প্রথমবারের মতো ঘটছে। এদিকে, ফিনল্যান্ডের গ্রিড অপারেটর জানিয়েছে, রাশিয়া দেশটির বিদ্যুতের সামান্য অংশ সরবরাহ করে থাকে, যা বিকল্প উৎস যোগান দেওয়া হবে।

ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযানের পর উত্তর আটলান্টিক নিরাপত্তা জোটে (ন্যাটো) যোগ দেওয়ার পরিকল্পনা করছে ফিনল্যান্ড। এতে ক্ষুব্ধ রাশিয়া। ফিনল্যান্ড ন্যাটোতে যোগ দিলে বৃহস্পতিবার রাশিয়া প্রতিশোধমূলক পদক্ষেপ নেওয়ার হুমকি দেয়। ফিনল্যান্ডের সঙ্গে রাশিয়ার দীর্ঘ এক হাজার ৩০০ কিলোমিটার (৮১০ মাইল) সীমান্ত রয়েছে। রবিবার (১৫ মে) ফিনল্যান্ড ন্যাটোতে যোগ দেওয়ার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিতে পারে।

প্রসঙ্গত, ২১ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলীয় ডোনেটস্ক ও লুহানস্ক অঞ্চলকে আলাদা স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। রুশ ভাষাভাষী অধ্যুষিত এ দুটি অঞ্চল একত্রে ডোনবাস নামে পরিচিত। স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতির পর অঞ্চল দুটিকে বেসামরিকীকরণের লক্ষ্যে ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। তার জেরে বিভিন্ন দেশ একের পর এক রাশিয়ার বিরুদ্ধে যাচ্ছে। সেজন্য রাশিয়াও ওসব দেশে গ্যাস, বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করে দিচ্ছে।

নিউজ ট্যাগ: ফিনল্যান্ড

আরও খবর



যুদ্ধাপরাধের দায়ে বড়লেখার ৩ রাজাকারের ফাঁসি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ | ২৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধের সময় হত্যা, ধর্ষণের মত মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মৌলভীবাজারের বড়লেখার দুই ভাইসহ তিনজনের ফাঁসির রায় দিয়েছে আদালত। দণ্ডিত তিন যুদ্ধাপরাধী হলেন, আব্দুল মান্নান ওরফে মনাই, আব্দুল আজিজ ওরফে হাবুল এবং তার ভাই আব্দুল মতিন। তাদের মধ্যে আব্দুল মতিন পলাতক; বাকি দুজন রায়ের সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

বিচারপতি মো. শাহিনুর ইসলামের নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল বৃহস্পতিবার এ মামলার রায় ঘোষণা করে। এ ট্রাইব্যুনালের অপর দুই সদস্য হলেন বিচারপতি মো. আবু আহমেদ জমাদার এবং কে এম হাফিজুল আলম।

ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউশন এ মামলায় যে পাঁচ দফা অভিযোগ এনেছিল, তার সবগুলো প্রমাণিত হওয়ায় তিন আসামির সবাইকে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়  রায়ে।

আসামিদের মধ্যে মনাইয়ের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী এম সারোয়ার হোসেন, হাবুলের পক্ষে ছিলেন আব্দুস সাত্তার পালোয়ান। হাবুলের ভাই পলাতক আব্দুল মতিনের পক্ষেও রাষ্ট্রনিযুক্ত আইনজীবী হিসেবে আব্দুস সাত্তার পালোয়ানই শুনানি করেন।

ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা বলছে, আজিজ ও মতিন ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের সঙ্গে ভারতে মুক্তিযুদ্ধের প্রশিক্ষণ নেন। প্রশিক্ষণ শেষে পালিয়ে বড়লেখায় এসে তারা হানাদার বাহিনীর কাছে আত্নসমর্পণ করেন এবং রাজাকার বাহিনীতে যোগ দেন। তখন তাদের সাথে যোগ দেন মান্নান।

২০১৬ সালের ১ মার্চ গ্রেপ্তার হওয়ার আগে আব্দুল আজিজ বিএনপির রাজনীতিতে জড়িত ছিলেন। আর পলাতক মতিন জামায়াতে ইসলামীর রাজনীতি করতেন। আসামি মান্নান ওরফে মনাই ১৯৭১ সালে জামায়াতের তখনকার ছাত্র সংগঠন ইসলামী ছাত্রসংঘের রাজনীতিতে জড়িত ছিলেন বলে তদন্ত সংস্থার ভাষ্য।

মুক্তিযুদ্ধের সময় তিনি বড়লেখা থানা শান্তি কমিটির সদস্য হন এবং রাজাকার বাহিনীতে যোগ দেন। ২০১৬ সালের ১ মার্চ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তাকে গ্রেপ্তার করে।

প্রসিকিউটর সাবিনা ইয়ানমিন মুন্নি বলেন, আসামিরা নিজেদের 'মুক্তিযোদ্ধা' হিসেবে দাবি করলেও ট্রাইব্যুনালে এ বিষয়ে তারা যথাযথ প্রমাণ দিতে পারেননি।

তারা যে মুক্তিযুদ্ধের বিরুদ্ধে গিয়ে রাকাজার বাহিনীতে যোগ দিয়ে হত্যা-ধর্ষণ-নির্যাতনসহ অন্যান্য অপরাধের সাথে জড়িত ছিল তা ১৭ জন সাক্ষীর দেওয়া সাক্ষ্য ও দলিলপত্রে প্রমাণিত হয়েছে। আমরা তাদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড চেয়েছি।

ট্রাইব্যুনালের তদন্ত সংস্থা ২০১৪ সালের ১৬ অক্টোবর মনাই, হাবুল ও মতিনের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করে, যা শেষ হয় দুই বছর পর ২০১৬ সালের ১৪ নভেম্বর। ওই বছর ২৯ ফেব্রুয়ারি তিন আসামির বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করে ট্রাইব্যুনাল।


আরও খবর